অনুমোদনহীন নিম্মমানের গাইড পাঠ্যসূচিতে অন্তর্ভুক্ত করলে কঠোর ব্যবস্থা : সাতক্ষীরা জেলা প্রশাসক


139 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
অনুমোদনহীন নিম্মমানের গাইড পাঠ্যসূচিতে অন্তর্ভুক্ত করলে কঠোর ব্যবস্থা : সাতক্ষীরা জেলা প্রশাসক
ডিসেম্বর ১২, ২০১৯ ফটো গ্যালারি সাতক্ষীরা সদর
Print Friendly, PDF & Email

॥ শাহিদুর রহমান ॥

সাতক্ষীরা জেলা প্রশাসক এসএম মোস্তফা কামাল বলেছেন, কোন কোম্পানি দ্বারা প্রভাবিত হয়ে নিম্মমানের নোট/গাইড বই পাঠ্যসূচিতে অন্তর্ভুক্ত করা যাবে না। একইভাবে সাথে এনসিটিবির অনুমোদনবিহীন কোন বই বিক্রি করা যাবে না। এর ব্যত্যয় ঘটলে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

বৃহস্পতিবার বিকালে জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে শিক্ষক সমিতি ও পুস্তক বিক্রেতা সমিতির নেতৃবৃন্দের অংশগ্রহণে অনুষ্ঠিত নোট/গাইড বই মজুদ, ক্রয়-বিক্রয় বা পাঠ্যসূচিতে অন্তর্ভুক্ত না করণ সংক্রান্ত মতবিনিময় সভায় তিনি এসব কথা বলেন।

জেলা প্রশাসন আয়োজিত এই সভায় জেলা প্রশাসক আরও বলেন, নিম্মমানের বইয়ে ইতোপূর্বে মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস বিকৃতির অভিযোগ প্রমাণিত হয়েছে। এটা কোনভাবেই গ্রহণযোগ্য নয়। শোনা যায় শিক্ষক সমিতি স্কুলগুলোতে কোন বই পড়ানো হবে তা বই নির্ধারণ করে দেয়। এটা আর হবে না। আগামী ১৬ ডিসেম্বরের পরে সংশ্লিষ্ট সকলকে নিয়ে ওয়ার্কশপ করে শিক্ষার্থীদের জন্য বই ধরনের বই ভাল হবে, তা নির্ধারণ করে দেওয়া হবে।

তিনি বলেন, শিক্ষার্থীদের গাইড/নোট বইয়ে অভ্যস্ত করে তোলায় তারা এখন অন্যান্য বই পড়তে চাই না। তাদের নিম্মমানের গাইডের মাধ্যমে বিকৃত ইতিহাস শেখানোর অপচেষ্টা রুখে দেওয়া হবে।

সভায় অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মো. বদিউজ্জামান, জেলা শিক্ষা অফিসার আব্দুল্লাহ আল মামুন, নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট জুবায়ের হোসেনসহ শিক্ষক ও পুস্তক বিক্রেতা সমিতির নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।