অপহরণকারীদের বিরুদ্ধে মামলা করায় বাদীকে হুমকী : প্রতিকার চেয়ে বাদীর সংবাদ সম্মেলন


366 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
অপহরণকারীদের বিরুদ্ধে মামলা করায় বাদীকে হুমকী : প্রতিকার চেয়ে বাদীর সংবাদ সম্মেলন
অক্টোবর ৯, ২০১৫ ফটো গ্যালারি শ্যামনগর
Print Friendly, PDF & Email

প্রেস বিজ্ঞপ্তি :
শিশু কন্যা কে অপহরণ করার পর অপহরণকারীদের বিরুদ্ধে মামলা করে আসামীদের দ্বারা নিজের জীবন ও পরিবারের নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছি। শুক্রবার দুপুরে সাতক্ষীরা প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলনে এই অভিযোগ করেন, সাতক্ষীরার শ্যামনগর উপজেলার গড়কুমারপুর গ্রামের মৃত্যু মোসলেম আলী সানার পুত্র আব্দুল হাকিম।

সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে তিনি বলেন, আমার একমাত্র কন্যা শিলা পারভীন(১৩)কে দুর্ষধ ক্যাডার, লম্পট ও নারী লোভী আশাশুনি উপজেলার দিঘলার আইট গ্রামের মো: দাউত আলী সানার ছেলে আলমগীর সানা (৪০), গত ৭ মাস পূর্বে জোরপূর্বক অপহরণ করে নিয়ে যায়। বিষয়টি আমি জানতে পেরে আলমগীরের নামে সাতক্ষীরা নারী শিশু নির্যাতন আদালতে একটি অপহরণ মামলা দায়ের করি। ওই মামলায় গ্রেফতার হয়ে আলমগীর কারাগারে যায়। সম্প্র্রতি সে হাইকোর্ট থেকে জামিনে পেয়ে আমার দু ছেলে মামুন, রিপনসহ পদ্ম পুকুর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের যুব ও ক্রীড়া বিষয়ক সম্পাদক আমিনুর রহমানসহ আরও নয়জনকে আসামী করে পাটকেলঘাটা থানায় একটি মিথ্যো শিশু হত্যা মামলা দায়ের করে। মামলা নং ৯৬/১৫। আমার মত অসহায় পিতার পক্ষে সহযোগিতা করায় আলমগীর তাদের নামে ওই মিথ্যা ষড়যন্ত্রমূলক মামলা দায়ের করে। শিশুটি আমার নাবালিকা কন্যার বলে মামলা উল্লেখ করেছে। দীর্ঘ ৭ মাস ধরে আমি কন্যার মুখটি পর্যন্ত দেখতে পায়নি।

তিনি আরও বলেলন, লম্পট আলমগীর এর আগে আরো ৪টি বিবাহ করে। যে কারণে এলাকায় সে বহুবিবাহকারী হিসেবে পরিচিত। এছাড়া জাল টাকার ব্যবসা ও  নারী পাচার করতে যেয়ে ধরা পড়ে গত ২ বছর আগে ভারতে জেল খেটে দেশে ফিরে। দেশে ফেরার পর এলাকায় বিভিন্ন অপরাধ মূলক কর্মকান্ডে জড়িয়ে পড়ার কারণে প্রতাপনগর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান শেখ জাকির হোসেন কর্তৃক বিতাড়িত হয়ে সাতক্ষীরা বিনেরপোত ব্রীজের ধারে বাস করে।

বর্তমানে আলমগীর আমাকে ও আমার সহযোগিতাকারীদের বিভিন্ন থানার পেন্ডিং মামলায় ঢুকিয়ে দেবে বলে মোবাইল ফোনের মাধ্যমে হুমকি দিচ্ছে। নাবালিকা কন্যা কে ফিরে পেতে ও আমার দু ছেলেসহ সহযোগীদের নামে মিথ্যো ষড়যন্ত্র ও হয়রানি মূলক মামলা থেকে অব্যাহতি পেতে সাতক্ষীরা পুলিশ সুপারের আশু হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।