অরিত্রির শিক্ষক হাসনা হেনার জামিন


260 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
অরিত্রির শিক্ষক হাসনা হেনার জামিন
ডিসেম্বর ৯, ২০১৮ জাতীয় ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

অনলাইন ডেস্ক ::

রাজধানীর ভিকারুননিসা নূন স্কুল অ্যান্ড কলেজের নবম শ্রেণির ছাত্রী অরিত্রি অধিকারীর আত্মহত্যার মামলায় গ্রেফতার শ্রেণি শিক্ষক হাসনা হেনাকে জামিন দেওয়া হয়েছে।

রোববার তার জামিন আবেদনের শুনানি করে ঢাকার মহানগর হাকিম বাকি বিল্লাহ এ আদেশ দেন।

আদালত পুলিশের উপপরিদর্শক জালাল আহমেদ জানান, আদালতে তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল পর্যন্ত পাঁচ হাজার টাকা মুচলেকায় তাকে জামিন দেওয়া হয়েছে।

গত রোববার পরীক্ষার হলে মোবাইল ফোন সঙ্গে নিয়ে গিয়েছিল অরিত্রি অধিকারী (১৫)। ফোনে নকল থাকার অভিযোগ তুলে তাকে পরীক্ষা থেকে বহিষ্কার করা হয়।

এরপর ওই ছাত্রীর বাবা-মাকে ডেকে পাঠায় স্কুল কর্তৃপক্ষ। সোমবার সকালে তারা স্কুলে যান এবং মেয়ের হয়ে দফায় দফায় ক্ষমা চান। কিন্তু এরপরও ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ তাদের অপমান করেন এবং স্কুল থেকে অরিত্রি অধিকারীকে ছাড়পত্র দেওয়ার ঘোষণা দেন।

নিজের সামনে বাবা-মায়ের এমন অপমান সইতে না পেরে ওইদিন দুপুরে শান্তিনগরের বাসায় ফিরে গলায় ওড়না দিয়ে ফাঁস লাগিয়ে আত্মহত্যা করে ওই ছাত্রী। ওই ঘটনার জেরে শিক্ষার্থী-অভিভাবকদের আন্দোলনে উত্তাল হয়ে উঠে বেইলি রোডে ভিকারুননিসার ক্যাম্পাস।

এসময় অধ্যক্ষের পদত্যাগ ও তাকে আত্মহত্যায় প্ররোচণার দায়ে শাস্তিসহ ছয় দফা দাবি জানায় শিক্ষার্থীরা। এর মধ্যে মঙ্গলবার রাতে অরিত্রির আত্মহত্যার ঘটনায় পল্টন থানায় একটি মামলা করেন তার বাবা।

আত্মহত্যায় প্ররোচনার অভিযোগে হওয়া মামলায় শিক্ষা ভিকারুননিসার ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ নাজনীন ফেরদৌস, প্রভাতি শাখার প্রধান জিনাত আরা এবং হাসনা হেনাকে আসামি করা হয়। পরে বুধবর রাতে উত্তরা থেকে হাসনা হেনাকে গ্রেফতার করা হয়।

হাসনা হেনাকে গ্রেফতারের পর থেকেই তার মুক্তি দাবিতে আন্দোলন করে আসছে প্রতিষ্ঠানটির একদল শিক্ষার্থী।

রোববারও শিক্ষক হাসনা হেনার মুক্তির দাবিতে অনশন করে তারা। অবশেষে আন্দোলনরতরা প্রতিষ্ঠানটির শিক্ষকদের অনুরোধে দুপুর একটার দিকে অনশন ভাঙে।