আশাশুনিতে অজ্ঞাত মহিলার লাশ উদ্ধার


366 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
আশাশুনিতে অজ্ঞাত মহিলার লাশ উদ্ধার
সেপ্টেম্বর ১৩, ২০১৫ আশাশুনি ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

গোপাল কুমার, আশাশুনি ব্যুরো :
আশাশুনির মরিচ্চাপ নদী থেকে অজ্ঞাত মহিলার লাশ উদ্ধার করেছে থানা পুলিশ।

সরেজমিনে ঘুরে দেখাগেছে, রোববার সন্ধ্যায় উপজেলার বুধহাটা ইউনিয়নের মরিচ্চাপ নদীতে মধ্য চাপড়া  ইটভাটা সংলগ্ন তীরে ভাটার টানে বেতনা নদী থেকে ভেসে আসা অজ্ঞাত একটি মহিলার (অনুমান ৪০ বছর) লাশ ভাসছিল।

স্থানীয় লোকজন থানা পুলিশে খবর দিলে আশাশুনি থানার এসআই আব্দুর রাজ্জাক ও এএসআই আছাফুর রহমান সুইপার নিয়ে লাশ উদ্ধার করে। এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত সুরতহাল রিপোর্ট চলছিল। মহিলার সমস্ত শরীর ফুলে গেছে তবে শরীরে কোন বস্ত্র ছিলনা। তার দুই হাতে সিটি সোনার চুরি পরা রয়েছে।

আশাশুনি থানার ওসি আজমল হুদা ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।
##

আশাশুনিতে গাজা ও ফেন্সিডিলসহ ৩ মাদক ব্যবসায়ী আটক
আশাশুনি ব্যুরোঃ আশাশুনি মাদক নিয়ন্ত্রন অধিদপ্তরের অভিযানে ৩ মাদক সেবী ও ব্যবসায়ীকে গ্রেপ্তার করেছে।

রোববার বিকালে মাদক নিয়ন্ত্রন অধিদপ্তর (কালীগঞ্জ সার্কেল) এর উপ-পরিদর্শক সানোয়ার হোসেন ও সহকারী উপ- পরিদর্শক আব্দুল মজিদের নেতৃত্বে কুল্যা, কাদাকাটি ও খাজরা ইউনিয়নে অভিযান চালায়। অভিযানে খাজরা এলাকায় অভিযান চালিয়ে গদাইপুর গ্রামের আমিনুল ইসলাম মোল্যার পুত্র মাদক সেবী আরিফুল ইসলাম (১৮) কে ও একই গ্রামের ফারুক মোল্যার পুত্র আরিফুল ইসলাম ওরফে আরিফ (২০) কে আটক করে। পরে তাদের দেহ তল্লাশি করে ৫ পুরিয়া গাজা উদ্ধার করে। আটককৃতদের থানা হেফাযতে রাখা হয়েছে।

অপরদিকে কুল্যা ইউনিয়নের শ্রীরামকাটি গ্রামের আরশাদ আলী সানার পুত্র মাদক ব্যবসায়ী আজহারুল ইসলাম (২৪) মাদক ক্রয়ের নাটক করে গ্রেপ্তার করেন। পরে তার দেহ তল্লাশি করে ২ বোতল ফেন্সিডিল উদ্ধার করেন। তাদের উপস্থিতি টের পেয়ে আজহারুল এর অপর সহযোগি একই গ্রামের উকিল উদ্দীন সানার পুত্র আনিছুর রহমান ওরফে বুলু পালিয়ে যায়। তাদের বিরুদ্ধে এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত থানায় মামলার প্রস্তুতি চলছিল।