আশাশুনির কলিমাখালী আজিজিয়া মাদ্রাসার নিয়োগ সংক্রান্ত প্রকাশিত সংবাদের প্রতিবাদ


96 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
আশাশুনির কলিমাখালী আজিজিয়া মাদ্রাসার নিয়োগ সংক্রান্ত প্রকাশিত সংবাদের প্রতিবাদ
সেপ্টেম্বর ১, ২০১৯ আশাশুনি ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

ভয়েস অব সাতক্ষীরা অনলাইন পত্রিকায় গত ১‌ সেপ্টেম্বর প্রকাশিত “আশাশুনির কলিমাখালী আজিজিয়া সিদ্দিকীয়া মাদ্রাসায় এমএলএসএস পদে নিয়োগ পরীক্ষা বন্ধ” শীর্ষক সংবাদের বিভিন্ন অংশের প্রতিবাদ জানিয়েছেন মাদ্রাসার অধ্যক্ষ মাওলানা সোহরাব হোসাইন।

প্রতিবাদ লিপিতে তিনি জানান, প্রকাশিত ওই সংবাদে মাদ্রাসা সভাপতির বরাত দিয়ে তাকে জড়িয়ে যেসব বক্তব্য উপস্থাপন করা হয়েছে তা উদ্দেশ্যমূলক, মিথ্যা বানোয়াট ও সরকারি নীতিমালা বহির্ভুত। তার স্বচ্ছ ভাবমূর্তি নষ্ট করার জন্য তা করা হয়েছে। তিনি দাবি করেন, কোন চাকরি প্রার্থীর সাথে বিন্দু পরিমান লোনদেনের কোন প্রমান কেউ কোনদিন দিতে পারবেনা।

এছাড়া তিনি আরো জানান, সভাপতি জহুরুল ইসলাম, সহসভাপতি ওসমান গনিসহ সবার সম্মতিতে ৩১ আগস্ট নিয়োগ পরীক্ষার দিন ধার্য করা হয়। সেই অনুয়ায়ী নিয়োগ বর্ডে উপস্থিত হন মাদ্রাসা শিক্ষা অধিদপ্তরের মহাপরিচালকের প্রতিনিধি মুহাম্মদ হোসাইন। কিন্ত বোর্ডে সভাপতিকে উপস্থিত না দেখে অবাক হন মুহাম্মদ হোসাইন। পরে মোবাইল ফোনে সভাপতির সম্মতি নিয়েই তিনি লিখিত পরীক্ষা নিচ্ছিলেন বলেও প্রতিবাদ লিপিতে জানানো হয়। এছাড়া বোর্ডে সাতক্ষীরা সরকারি কলেজের একজন শিক্ষকও উপস্থিত ছিলেন। প্রতিবাদে আরো জানানো হয়, মাদ্রাসা শিক্ষা অধিদপ্তরের নিয়োগ সংক্রান্ত নীতিমালা অনুযায়ী বোর্ড গঠনের কোন নির্ধারিত স্থান নেই। স্বাধারণত বোর্ড সদস্য ও পরীক্ষার্থীদের সুবিধামত স্থানে করা হয়। সে জন্য সভাপতির আনুমতিক্রমে সাতক্ষীরায় পরীক্ষা নেয়া হচ্ছিল। এছাড়ায় নীতিমালায় নিয়োগ বোর্ডে উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তার থাকার কোন বিধান না থাকায় তাকে রাখা যায়নি। এছাড়া মাদ্রসা অধ্যক্ষ অভিযোগ করেন, প্রতিবেদক তার সাথে কোনরকম যোগযোগ না করলেও সংবাদের তাকে উদ্ধৃত করা হয়েছে।