আশাশুনি সংবাদ ॥ মোবাইল কোর্টে ক্লিনিককে জরিমানা


380 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
আশাশুনি সংবাদ ॥ মোবাইল কোর্টে ক্লিনিককে জরিমানা
জুন ১৫, ২০১৬ আশাশুনি ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

এস,কে হাসান :
আশাশুনি উপজেলার কুল্যার মোড়ে মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করে দুই ক্লিনিককে জরিমানা ও এক ক্লিনিকের মালামাল জব্দ করা হয়েছে। (বুধবার) দুপুর দু’টার দিকে কোর্ট পরিচালনা করা হয়।
বিজ্ঞ নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট সুবর্ণা রানী সাহা , নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট সাদিয়া আফরিন ও জুনিঃ ম্যাজিস্ট্রেট আবু তালেব ও মেডিকেল অফিসার ডাঃ আরিফুজ্জামান মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করেন। এসময় কুল্যার মোড়ে মা সার্জিক্যাল ক্লিনিককে ১০,০০০ টাকা ও সোনার বাংলা ক্লিনিককে ৭.০০০ টাকা জরিমানা করা হয়। এবং বুধহাটা নার্সিং হোমের মালিককে না পেয়ে ওয়াড বয় মনোরঞ্জন পালকে নিয়ে ওটিতে থাকা ৩১ প্রকার যন্ত্রপাতি জব্দ করা হয়।
###

শ্রীউলায় উত্তরণের শালিসদার কমিটির ত্রৈমাসিক সভা

এস,কে হাসান :
আশাশুনি উপজেলার শ্রীউলা ইউনিয়ন শালিসদার কমিটির ত্রৈমাসিক সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। (বুধবার) সকালে শ্রীউলার নাকতাড়া কালবাড়ি বাজারস্থ রেডিয়েন্স এন্ড ফ্রেন্ডশীপ ক্লাব মিলনায়তনে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়।

উত্তরণ ক্লাস বিডি প্রকল্পের আওতায় আয়োজিত সভায় সভাপতিত্ব করেন স্থানীয় শালিসদার ও সমাজ সেবক শফিক উদ্দিন। সভায় বিভিন্ন ওয়ার্ডের শালিসদার আমিনুল ইসলাম, আবু সাইদ, অমল চন্দ্র বৈরাগী, আঃ হাকিম, কল্পনা রাণী, পারুল রাণী, রিনা রানী প্রমুখ ও মাঠ সহায়ক নূর জাহান উপস্থিত ছিলেন। অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন এরিয়া ম্যানেজার আঃ করিম ও লিগ্যাল এইড এন্ড ডকুমেন্টেশন অফিসার সাজ্জাত হোসেন। সভায় বিরোধ কি, বিরোধ কেন হয়, সামাজিক নেতৃবৃন্দ ও গন্যমান্য ব্যক্তিদের বিরোধ নিরসনে ভূমিকা, বাংলাদেশে মধ্যস্থতা বা শালিস কিভাবে আইনদ্বারা স্বীকৃত, আইনে শালিসের কাঠামো ও স্বীকৃতি, শালিসকারীর গুণাবলী ও দক্ষতাসহ বিভিন্ন বিষয় নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা করা হয়।
###

কাদাকাটিতে মৎস্য ঘেরে গিয়ে মারপিট, আহত-২

এস,কে হাসান :
আশাশুনি উপজেলার কাদাকাটিতে দু’ভাই কর্তৃক সহোদর ভাই-ভাবীতে বেদম মারপিটের অভিযোগ পাওয়া গেছে। গুরুতর আহত স্বামী-স্ত্রীকে সাতক্ষীরা হাসপাতালে নেওয়া হয়েছে। (বুধবার) দুপুর দেড়টার দিকে এ ঘটনা ঘটে।
প্রত্যক্ষদর্শী ও স্থানীয় সূত্রে জানাগেছে, কাদাকাটি গ্রামের রুহুল আমিনের পুত্র সাহেব আলির সাথে তার সহোদর দুই ভাই আকবর আলী ও আজগর আলির মধ্যে জমিজমা সংক্রান্ত বিরোধ ছিল। গতকাল তারা দু’ভাই মোবাইলে বড় ভাই সাহেব আলিকে এনিয়ে কথা বলার এক পর্যায়ে উত্যক্ত বাক্য বিনিময় হয়। এক পর্যায়ে তারা দু’ভাই অন্য সহযোগিদের নিয়ে হকি স্টিক, দা ইত্যাদি সহকারে সবুর সরদারের চকের ঘের নামক স্থানে ভাইয়ের মৎস্য ঘেরে গিয়ে উঠে কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে বেদম মারপিট করে। এসময় সাহেব আলির স্ত্রী নাছিমা ঠেকাতে গেলে তাকেও বেদম মারপিট করা হয়। প্রত্যক্ষদর্শী কচুয়া গ্রামের রফিকুল ও আগরদাড়ী গ্রামের শরিফুল জানান, সাহেব আলির দুই শিশু সন্তান রহিম (৪) ও মাহবুবা (১২) কান্নাকাটি করে চাচাদের পা জড়িয়ে ধরলে তারা রহিমকে ছুড়ে পানিতে ফেলে দেয়।