আশাশুনি সংবাদ : জমি মালিককে মাছ চাষে বাঁধা প্রদানের অভিযোগ


372 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
আশাশুনি সংবাদ : জমি মালিককে মাছ চাষে বাঁধা প্রদানের অভিযোগ
মার্চ ৩, ২০১৭ আশাশুনি ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

মাসুদুর রহমান মাসুদ, আশাশুনি ::

আশাশুনি নিজ জমিতে মৎস্য চাষে বাঁধা প্রদানের অভিযোগ পাওয়া গেছে। আশাশুনি গ্রামের আবুল হোসেন মোড়লের পুত্র জাকির হোসেন শামীম লিখিত অভিযোগে জানান, বড় দূর্গাপুর মৌজায় এসএ ৫৯৩ নং খতিয়ানে ২০১৩ সহ ১৬টি দাগের ২৩.২৫ একর জমির মালিক মৌলভী ইয়াকুব আলি পাটোয়ারীর পুত্র ও বর্তমান দুদক চেয়ারম্যানের পিতা মৌলভী আব্দুল লতিফ পাটোয়ারী।

তিনি ১৯৭৭ সালে ২১৫৭ নং কোবালা দলিলে ২.৬৬ একর জমি দবির উদ্দিন সরদারের পুত্র ও তার (শামীম) নানা ছহিল উদ্দিনের কাছে হস্তান্তর করেন। ছহিল উদ্দিন একই বছর ২১৬৫ নং কোবালা দলিলে নিজ কন্যা মাহমুদা খাতুনের কাছে হস্তান্তর করেন।

মাহমুদা খাতুন ১৫/৭/১৯৮০ তাং মিউটিশান (নং ৫৯৪/০৪) করান এবং জমির খাজনা পরিশোধ পূর্বক ভোগদখল করে আসছেন। উক্ত জমিসহ তাদের আরও জমিতে মৎস্য ঘের হওয়ায় জমি হারি গ্রহনের মাধ্যমে ভোগদখলে আছেন। তাদের জমি

বলাবাড়িয়া গ্রামের অসীম মন্ডল লীজ এগ্রিমেন্টে স্বাক্ষর করে মাছ চাষের সুবাদে গোপনে ঐ জমির মধ্যে ১.০০ একর তঞ্চকতা করে মাঠ পর্চা করে নেন। বিষয়টি জানতে পেরে লীজ এগ্রিমেন্ট বাতিল পূর্বক তাদের জমিতে নিজেরা পৃথক বাঁধ দিয়ে মৎস্য চাষ করার উদ্যোগ নেয়।

এতে অসীম মন্ডল বাধার সৃষ্টির চেষ্টা করছেন। এব্যাপারে অভিযোগকারী তাদের কোবালা দলিলে ক্রয়সূত্রে মালিকানা, চেকদাখিলা এবং লীজ এগ্রিমেন্টের মাধ্যমে হারীর টাকা নিয়ে মালিকানা স্বত্ত্ব থাকা ৩৯ বছরের ভোগদখলীয় জমিতে মাছ চাষের জন্য রিং বাঁধ

দিতে প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টিকারীদের বিরুদ্ধে কার্যকরী পদক্ষেপ নিতে আইন প্রয়োগকারী সংস্থার হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।
##

 

সাংবাদিকের চাচার দোয়া মাহফিল

আশাশুনি প্রেসক্লাবের দপ্তর সম্পাদক আলী নেওয়াজের চাচা ও চাপড়া হাইস্কুলের সহকারী শিক্ষক আছাদুল হকের পিতা মরহুম আব্দুস সাত্তার সরদার এর রূহের মাগফেরাত কামনায় দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়েছে। শুক্রবার বাদ জুম্মা এ দোয়া অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

দোয়া মোনাজাত পরিচালনা করেন হাফেজ মহিবুল্লাহ। দোয়া মাহফিলে তেতুলিয়া মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক এস এম আবু সাদেক, আশাশুনি প্রেসক্লাব সভাপতি জিএম মুজিবুর রহমান, সেক্রেটারী জিএম আল-ফারুক, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক প্রভাষক

মাসুদুর রহমান মাসুদ, প্রচার সম্পাদক বাহবুল হাসনাইনসহ চাপড়া স্কুলের প্রধান শিক্ষক, সহকারী শিক্ষকবৃন্দ ও এলাকার গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন। উল্লেখ্য, মরহুম আব্দুস সাত্তার (৭৮) বৃহস্পতিবার ভোর ৫.৫০ টায় বার্ধক্য জনিত কারনে ইন্তেকাল করেন।
##