আস্থার প্রতিদান দিলেন মুস্তাফিজ


70 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
আস্থার প্রতিদান দিলেন মুস্তাফিজ
মে ১৩, ২০১৯ খেলা ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

অনলাইন ডেস্ক ::

পরপর তিন ম্যাচেই ‘সাইড স্টোরি’ মুস্তাফিজ। নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজের শেষ ম্যাচে ১০ ওভারে ৯৩ রান দেন ফিজ। ক্যারিয়ার সর্বোচ্চ খরুচে বোলিংয়ের রেকর্ড গড়েন। খবরের শিরোনাম হন ফিজ। কথা ওঠে, বিশ্বকাপে ইংল্যান্ডের কন্ডিশনও হবে কিউইদের মতো। ফিজ পারবেন তো? ত্রিদেশীয় সিরিজের প্রথম ম্যাচেও খরুচে বল করেন তিনি। ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে দেন ৮৪ রান।

ওয়ানডে ক্যারিয়ারের দ্বিতীয় সর্বোচ্চ খরুচে বোলিং করেন কাটার মাস্টার মুস্তাফিজ। আবার ম্যাচের ‘সাইড স্টোরি’ তিনি। তবে কি ফিজ ফুরিয়ে গেছেন। প্রশ্নের উত্তর দেন টাইগার কোচ স্টিভ রোসড এবং মুস্তাফিজের সতীর্থ ও দলের সিনিয়র ক্রিকেটার সাকিব আল হাসান।

রোডস জানান, ফিজের খরুচে বোলিং নিয়ে তিনি চিন্তিত নন। তার বলে গতি বেড়েছে। বিশ্বকাপের এখনও সময় আছে। এরমধ্যে তার বলে আরও গতি বাড়বে। ধারও ফিরবে। আর সাকিব বলেন, মুস্তাফিজ যে সময় বোলিং করে তাতে খরুচে হওয়ায় স্বাভাবিক। স্লগ ওভারে তিন-চার ওভার বোলিং করতে হয় তাকে। ফিজ কোন কোন দিন তাই একটু খরুচে হন। তবে তা চিন্তার কোন কারণ নয়।

মুস্তাফিজ সেটাই বুঝিয়ে দিলেন। তাকে দিয়ে চিন্তার কিছু নেই। ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে মালাহাইডে এক ম্যাচ হাতে রেখে ফাইনালে যাওয়ার ম্যাচে ৪ উইকেট নিয়েছেন তিনি। মুস্তাফিজ তার ১০ ওভারে দিয়েছেন ৪৩ রান। যা তার দারুণভাবে ফিরে আসার স্বপক্ষে কথা বলে। ভক্তদের আস্থা রাখার ইঙ্গিতও দিলেন।

ফিজের এই চার উইকেটের মধ্যে আছেন টপ অর্ডারের দুই ব্যাটসম্যান রোস্টন চেজ এবং জোনাথন কার্টার। যে সময় তারা জুটি গড়বেন ঠিক সেই সময়ে প্রথম স্পেলের চার ওভারে উইকেট দুটি তুলে নেন ফিজ। পরে আবার শেষ দিকে মেরে খেলতে অভ্যস্ত আসলি নার্সকে ফেরান তিনি। তুলে নেন রেমন্ড রেইফারকে। এছাড়া পুরো ম্যাচে তার কাটার-স্লোয়ার এবং স্টোকস বলের সমাহার ছিল।