ইন্দোনেশিয়ায় শিশুধর্ষণের শাস্তি মৃত্যুদণ্ড


350 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
ইন্দোনেশিয়ায় শিশুধর্ষণের শাস্তি মৃত্যুদণ্ড
মে ২৬, ২০১৬ প্রবাস ভাবনা ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

নিউজ ডেস্ক :

সম্প্রতি সুমাত্রায় স্কুল শিক্ষার্থী উয়ুন ধর্ষণ ও হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় দেশব্যাপী ক্ষোভ ছড়িয়ে পড়ে। ছবিতে উয়ুনের পরিবার। ছবি: বিবিসি

সম্প্রতি সুমাত্রায় স্কুল শিক্ষার্থী উয়ুন ধর্ষণ ও হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় দেশব্যাপী ক্ষোভ ছড়িয়ে পড়ে। ছবিতে উয়ুনের পরিবার। ছবি: বিবিসি

ইন্দোনেশিয়ায় শিশুধর্ষণের বিরুদ্ধে আইন আরো কঠোর করা হয়েছে। নতুন আইনে মৃত্যুদণ্ড এবং ওষুধ প্রয়োগে পুরুষত্বহীন করার শাস্তিও যোগ করা হয়েছে।

বিবিসি বলছে, ১৪ বছরের এক বালিকাকে দলগত ধর্ষণ ও হত্যাসহ দেশটিতে সম্প্রতি বেশ কয়েকটি ধর্ষণের ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে আইনে কঠোর শাস্তির বিধান করা হয়েছে।

ইন্দোনেশিয়ার প্রেসিডেন্ট জোকো উইদোদো বলেন, “শিশু যৌনপীড়ন সমস্যা কাটিয়ে উঠার লক্ষ্যে” এই বিধান।

ইতিপূর্বে শিশু অথবা পূর্ণবয়স্ক কাউকে ধর্ষণের দায়ে সর্বোচ্চ ১৪ বছর কারাদণ্ডের বিধান ছিল।

এখন থেকে শিশু যৌনপীড়নের দায়ে কারাদণ্ড পাওয়া ব্যক্তিদের মুক্তি পাওয়ার পর পর্যবেক্ষণের জন্য ইলেকট্রনিক ডিভাইস পড়তে হতে পারে।

সম্প্রতি সুমাত্রায় স্কুল শিক্ষার্থী উয়ুন ধর্ষণ ও হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় দেশব্যাপী ক্ষোভ ছড়িয়ে পড়ে। এই ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে স্থানীয় গণমাধ্যমে নির্মম যৌনপীড়নের আরো ঘটনাগুলো পাদপ্রদীপের আলোয় আসে

প্রেসিডেন্টের জরুরি ডিক্রি বলে এই আইন দ্রুত বাস্তবায়িত হলেও পরবর্তী সময়ে দেশটির সংসদ তা বাতিল করে দিতে পারে।

যেমন অপরাধ তেমন শাস্তিই প্রাপ্য, বলেন উইদোদো।