‘এ’ দলের নেতৃত্বে শুভাগত, সহ-অধিনায়ক সৌম্য


354 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
‘এ’ দলের নেতৃত্বে শুভাগত, সহ-অধিনায়ক সৌম্য
অক্টোবর ১০, ২০১৫ খেলা ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

ভয়েস অব সাতক্ষীরা ডটকম ডেস্ক :
দক্ষিণ আফ্রিকা ও জিম্বাবুয়ে সফরে বাংলাদেশ ‘এ’ দলের নেতৃত্ব দেবেন শুভাগত হোম। তাকে অধিনায়ক ও সৌম্য সরকারকে সহ-অধিনায়ক করা হয়েছে। ১৬ সদস্যের দলটিকে ১১ অক্টোবর বিসিবিতে সকাল সাড়ে ৮টায় রিপোর্ট করতে বলা হয়েছে। সেদিনই শুরু হবে ‘এ’ দলের ক্যাম্প।

জাতীয় দলে অনিয়মিত হলেও নির্বাচকদের ভাবনায় ছিলেন শুভাগত। গত মাসে বাংলাদেশ ‘এ’ দলের ভারত সফরে ছিলেন তিনি। সেবার মুমিনুল হকের কাঁধে দায়িত্ব চাপালেও এবার শুভাগতের উপর এ দায়িত্ব দিয়েছে বিসিবি। সে সফরে মুমিনুলের ডেপুটি ছিলেন নাসির হোসেন। এবারে শুভাগত’র সহকারী মনোনীত হয়েছেন জাতীয় দলের তরুণ ব্যাটসম্যান সৌম্য সরকার।

আগামী ১৪ অক্টোবর বাংলাদেশ ‘এ’ দল দক্ষিণ আফ্রিকার উদ্দেশে ঢাকা ত্যাগ করবে। সফরে দক্ষিণ আফ্রিকায় তিনটি ওয়ানডে ও একটি তিন দিনের ম্যাচ খেলবে শুভাগত বাহিনী। পরে জিম্বাবুয়ে ‘এ’ দলের বিপক্ষেও তিনটি ওয়ানডে ও দুটি চার দিনের ম্যাচ খেলবে ‘এ’ দল।

১৫ অক্টোবর দক্ষিণ আফ্রিকা পৌঁছে তিনদিন অনুশীলনের পর ১৯ অক্টোবর আইরেনে ভিলেজার্স ক্লাবের বিপক্ষে প্রথম ওয়ানডে ম্যাচ খেলতে মাঠে নামবে শুভাগত-সৌম্যরা।

এরপর ২১ থেকে ২৩ অক্টোবর একটি তিন দিনের ম্যাচ খেলার পর ২৭ ও ২৯ তারিখে শেষ দুটি এক দিনের ম্যাচ খেলবে সফরকারীরা। প্রথম তিন ম্যাচে বাংলাদেশ ‘এ’র প্রতিপক্ষ আইরিন ভিলেজার্স ক্লাব, শেষ ম্যাচের প্রতিপক্ষ গুটেং স্ট্রাইকার্স।

দক্ষিণ আফ্রিকা থেকে ৩০ অক্টোবর জিম্বাবুয়ে যাবে ‘এ’ দল। বুলাওয়েতে জিম্বাবুয়ে ‘এ’ দলের সঙ্গে তিনটি এক দিনের ও দুটি চার দিনের ম্যাচ খেলে ১৯ নভেম্বর দেশে ফিরবে বাংলাদেশ ‘এ’ দল।

জিম্বাবুয়ে ‘এ’ দলের বিপক্ষে এক দিনের ম্যাচ তিনটি নভেম্বরের ২, ৪ ও ৬ তারিখে কুইন্স স্পোর্টস ক্লাবে। বুলাওয়েতে ৯-১২ নভেম্বর প্রথম চারদিনের ম্যাচ, ১৫-১৮ নভেম্বর দ্বিতীয় চারদিনের ম্যাচটি খেলবেন শুভাগত-সৌম্যরা।

বাংলাদেশ ‘এ’ দল: শুভাগত হোম চৌধুরী (অধিনায়ক), সৌম্য সরকার (সহ-অধিনায়ক), সাদমান ইসলাম, রনি তালুকদার, লিটন কুমার দাস, সাব্বির রহমান, মোসাদ্দেক হোসেন সৈকত, মাহমুদুল হাসান, মোহাম্মদ মিঠুন, কামরুল ইসলাম রাব্বি, মোহাম্মদ শহীদ, আল-আমিন হোসেন, আবু জায়েদ চৌধুরী রাহি, সাকলাইন সজীব, জুবায়ের হোসেন লিখন ও তাইজুল ইসলাম।—সুত্র:-বাংলাদেশ প্রতিদিন।