কপিলমুনিতে এক অসহায় মমতাজের সংবাদ সম্মেলন


115 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
কপিলমুনিতে এক অসহায় মমতাজের সংবাদ সম্মেলন
ফেব্রুয়ারি ২৪, ২০২১ খুলনা বিভাগ ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

পলাশ কর্মকার ::

কপিলমুনি সুদের টাকার চাপ ও জীবন নাশের হুমকিতে ভীত সন্ত্রন্ত হয়ে পড়েছে এক অসহায় মহিলা, স্বামী ও পরিবারের নিরাপত্তার আকুতি জানিয়েছেন তিনি। আকুতি জানিয়েছেন মোটা অংকের সুদের টাকার হাত থেকে পরিত্রাণের জন্য। মঙ্গলবার বেলা ১১ টায় কপিলমুনিতে এক জনাকীর্ণ সংবাদ সম্মেলনে শ্রীরামপুর গ্রামের মীর আকরাম আলীর স্ত্রী মমতাজ বেগম এমন আর্জি জানান।
লিখিত বক্তব্যে তিনি বলেন, তার স্বামী আকরাম হোসেন ব্যবসায়ীক প্রয়োজনে প্রায় আড়াই বছর পূর্বে একই গ্রামের প্রতিবেশী মৃতঃ মোকন হাজরার ছেলে সেলিম হাজরার কাছে ৫০ হাজার টাকা ধার চাইলে শর্ত সাপেক্ষে আমার স্বামীকে ৫০ হাজার টাকা দেয় সেলিম। শর্তানুযায়ী এই টাকার বিনিময়ে দেড় লক্ষ টাকার একটি তারিখ বিহীন একটি চেক এবং প্রতিমাসে ৩ হাজার টাকা হারে সুদ দিতে থাকে। বর্তমানে বাস্তহারা হয়ে ৩ সস্তান নিয়ে শ্রীরামপুর গ্রামে আমার দিনমজুর পিতার গোয়াল ঘরে আশ্রয় নিয়ে মানবেতর দিন যাপন করছি।
এদিকে কয়েক মাস সুদের টাকা দিতে ব্যার্থ হওয়ায় সমুদয় সুদের টাকার জন্য আমার স্বামীকে ভয় ও চাপ দিয়ে দ্বিতীয় দফায় ৫০ হাজার টাকার আরোও একটি চেক গ্রহণ করে সেলিম। যার নং ই৭৬৬৮০৪০, কপিলমুনি (ফাস্ট সিকিউরিটি ইসলামী ব্যাংক লিঃ)। চেকটি গ্রহণের দু-একদিন পরেই সুদসহ সব টাকার চাপ দিতে থাকে সে। আগামী মার্চ মাসে সুদের টাকা পরিশোধের জন্য অনুনয় বিনয় করি। কিন্তু হঠাৎ গত ২১ ফেব্রুয়ারী ফজরের আযানের পর পরই আমার পিতার বাড়িতে প্রবেশ করে অশ্রাব্য ভাষায় গালি গলাজসহ হুমকি দেয়। এই ঘটনার পর জীবনের নিরাপত্তার জন্য পাইকগাছা থানায় একটি জিডি করি। যার নাং ১১৩৮, তারিখ ২১/০২/২১ ইং।