কপিলমুনিতে নিত্য প্রয়োজনীয় দ্রব্যের মূল্যবৃদ্ধি, ভ্রাম্যমান আদালতে জরিমানা আদায়


110 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
কপিলমুনিতে নিত্য প্রয়োজনীয় দ্রব্যের মূল্যবৃদ্ধি, ভ্রাম্যমান আদালতে জরিমানা আদায়
মার্চ ২১, ২০২০ খুলনা বিভাগ ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

পলাশ কর্মকার, কপিলমুনি ঃ
খুলনার কপিলমুনিতে চালসহ নিত্য প্রয়োজনীয় দ্রব্যের মুল্য বৃদ্ধি ও দোকানে মূল্য তালিকা না রাখার কারণে একাধিক ব্যবসায়ীর কাছ থেকে জরিমানা আদায় করেছে ভ্রাম্যমাণ আদালত।
শনিবার বেলা ১১ টায় উপজেলার বৃহত্তর বাজার কপিলমুনিতে অভিযান পরিচালনা করা হয়। উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট জুলিয়া সুকায়না ও উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভুমি) , নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মোঃ আরাফাতুল আলম অভিযানের নের্তৃত্ব দেন। এ সময় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ আইন ও মুল্য তালিকা না থাকার অপরাধে কপিলমুনি বাজারের চাউল ব্যাবসায়ী কামরুলকে ৩ হাজার, কীটনাশক ব্যবসায়ী গোপাল সাধুকে ১ হাজার ৫ শ টাকা, চাউল গোপাল সাধুকে ১ হাজার ৫শ, ও রবি সাধুকে ৫ হাজার, লক্ষী সাধুকে ৩ হাজার টাকা জরিমানা আদায় করা হয়।
ভ্রাম্যমান আদালত চলাকালে উপস্থিত ছিলেন, উপজেলা স্যানীটারী কর্মকর্তা উদয় মন্ডল, কপিলমুনি ইউপি চেয়ারম্যান কওসার আলী জোয়ার্দার, নির্বাহী আদালতের পেশকার দিপংকর মল্লিক, উপজেলা সার্ভেয়ার মোঃ সাকিরুল ইসলাম, কপিলমুনি ইউ এল ও মোঃ জাকির হোসেন। এ ছাড়া দুবাই থেকে আসা চয়ন মন্ডল ও ভারত থেকে আসা বিভুতি মিশ্রকে বাড়ীর বাইরে প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা জারী করে হোম কোয়ারান্টাইনে থাকার নির্দেশ জারি করেন ভ্রাম্যমান আদালত।

কপিলমুনিতে আজ ঐতিহ্যবাহী মহা বারুনী ¯œান, করনোর কারণে হচ্ছে না অনুষ্ঠানিকতা

পলাশ কর্মকার, কপিলমুনি ০
কপিলমুনিতে আজ ৪‘শ বছরের ঐতিহ্যবাহী মহা বরুণী ¯œানের দিন। জানাযায়, কোন এক চৈত্র মাসের মধুকৃৃষ্ণা ত্রয়োদশীতে মহামুনি কপিলদেব কপিলমুনির কপোতাক্ষ ঘাটে সাধনায় মা গঙ্গার সাক্ষাৎ পেয়ে সিদ্ধি লাভ করেন। এ কারণে তাঁর সিদ্ধিলাভের দিনটিকে স্মরণ রাখতে ও নিজেকে পাপ মুক্ত করতে ধর্ম প্রাণ হিন্দু ভক্তরা কপোতাক্ষ নদের কপিলমুনি নামক স্থানের কালীবাড়ী ঘাটে গঙ্গা ¯œান বা বারুণী ¯œান উৎসব পালন করে আসছেন। গতকাল শনিবার রাত ৮ টা থেকে ¯œান শুরু হয়েছে, আর শেষ হবে আজ সকাল ১০ টায়।
প্রবীনরা জানান, মধুকৃষ্ণা ত্রয়োদশী তিথিতে গঙ্গার জল এই স্থানে প্রবাহিত হয়। বরুণ জলের দেবতা, বরুণের স্ত্রী বারুণী, বারুণী আর এক নাম গঙ্গা। তাই বারুণী ¯œান মানেই গঙ্গা ¯œান। তবে এ বছর স্বাড়ম্বরে এ ¯œান হচ্ছে। করোনা ভাইরাসের প্রদুর্ভাবের কারণে অনুষ্ঠানিকতা বন্ধ রাখা হয়েছে।
এ বিষয়ে কালী মন্দিরের সভাপতি যুগোল কিশোর দে বলেন, ‘করোনা ভাইরাসের কারণে আজ ¯œানের দিন থাকলেও জনস্বার্থে এবছর ¯œানের অনুষ্ঠানিকতা হচ্ছে না।