কপিলমুনির আব্দুলের স্বপ্ন সে কন্ঠশিল্পী হবে


355 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
কপিলমুনির আব্দুলের স্বপ্ন সে কন্ঠশিল্পী হবে
মার্চ ৪, ২০১৭ খুলনা বিভাগ ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

পলাশ কর্মকার, কপিলমুনি ::
শুধু মঞ্চ নয়, যেখানেই বসেন সেখানেই তিনি মানুষের মাঝে কন্ঠ বিলিয়ে দেন। অনেক দিন ধরে পল্লীগীতি নিয়ে সাধনা করছেন তিনি। তিনি কপিলমুনির আব্দুল মল্লিক।
জানাযায়, ছোট বেলা থেকেই বাসনা আব্দুলের কন্ঠ শিল্পী হবেন তিনি, কিন্তু পরিবারের অভাব আর অনাটন তার সেই মন বাসনার লাগাম টেনে ধরেছিল। দীর্ঘ প্রচেষ্টার পরও ফোঁটেনি তার স¦প্নের কুঁড়ি। কিšুÍ ২০০২ সালে তার জীবনের ভাগ্যাকাশে ফুটেছিল সেই স্বপ্নের কুঁড়ি। ওই বছর থেকেই তিনি কন্ঠ সাধনায় আত্ম নিয়োগ করেন। কপিলমুনির পার্শ¦বর্তীহরিঢালী গ্রামের মৃতঃ জাকের মল্লিকের ছেলে মোঃ আব্দুল মল্লিক, পা রেখেছেন চল্লিশের কোঠায়, ৩ ভাই বোনের মধ্যে সকলের ছোট তিনি। দীর্ঘ ১৫বছর ধরে কন্ঠ সাধনায় আত্মনিয়োগ করে এখন তার চোখে-মুখে স্বপ্ন বড় মাপের শিল্পী হয়ে জীবনে প্রতিষ্ঠিত হতে চান। এলাকায় বিভিন্ন অনুষ্ঠানে তিনি মঞ্চ মাতিয়েছেন, অনেক মজলিসে তিনি গান গেয়ে পুুুুুুুুুুরস্কৃত হয়েছেন। আতœগর্বে বুক ভরে উঠেছে তার, আর সেখান থেকেই অনুপ্রেরণা পেয়েছেন তিনি। এগিয়েছেন শুধু সামনে।
স্বল্প লেখাপড়া জানা বিনয়ী ও মিষ্টভাষী আব্দুল শুধু পল্লীগীতি চর্চা করেন না, তিনি আধুনিক বাংলা গানে কন্ঠ ও সুর দেন, গান লেখেনও। তিনি বিজয় সরকারের বই পড়েন, বিজয় সরকারের গান তার ভীষণ প্রিয় বলে জানান তিনি, বিজয়ের গান করে তিনি আত্মতৃপ্তি পান।
গান পাগল এই সহজ সরল মানুষ আব্দুল এ প্রতিবেদককে বলেন, ‘জীবনের অনেকটা সময় গানের জগতে কাটিয়েছি, বাকী জীবন এ জগতেই বিচরণ করতে চাই। গান লিখে গান গেয়ে কপিলমুনি তথা পাইকগাছা এলাকার মানুষের মনের খোরাক জোগালেও আজ স্বীকৃতি জোটেনি আমার’। বিভিন্ন প্রশ্নের জবাবে তিনি আরো বলেন, ‘একটি সাধ আছে আমার, টেলিভিশনে গান করার, আমি গণমাধ্যমের মাধ্যমে তা আজ প্রকাশ করলাম’।