কলারোয়ার জয়নগর ইউনিয়নে প্রার্থী বাছাইয়ে অনিয়মের প্রতবিাদে সংবাদ সম্মেলন


391 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
কলারোয়ার জয়নগর ইউনিয়নে প্রার্থী বাছাইয়ে অনিয়মের প্রতবিাদে সংবাদ সম্মেলন
ফেব্রুয়ারি ১৬, ২০১৬ কলারোয়া ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

স্টাফ রিপোর্টার :
আসন্নœ ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে কলারোয়া উপজেলার জয়নগর ইউনিয়নে প্রার্থী বাছাইয়ে অনিয়ম করা হয়েছে বলে অভিযোগ করে এক সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছে। মঙ্গলবার সকালে সাতক্ষীরা প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলনে এ অভিযোগ তুলে ধরেন উপজেলার জয়নগর গ্রামের করিম বকস মোড়লের ছেলে জয়নগর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক বজলুর রহমান মোড়ল। তিনি তার লিখত বক্তব্যে বলেছেন, গত ১৯ জানুয়ারী বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের স্থানীয় সরকার/ ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন মনোয়ন বোর্ডের সভাপতি ও প্রধান মন্ত্রী শেখ হাসিনা আসন্ন ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে প্রার্থী বাছাইয়ের ক্ষেত্রে ৫টি সিদ্ধান্তের কথা জানান। প্রার্থী বাছাইয়ের ক্ষেত্রে সেখানে ২নম্বর সিদ্ধান্তে বলা হয়েছে, ইউনিয়ন কমিটি ও ওয়ার্ড কমিটির নেতৃবৃন্দের সাথে বর্ধিতসভা করে একজন প্রার্থীর নাম সুপারিশ করা হবে। কিন্তু জয়নগর ইউনিয়নের ক্ষেত্রে তা করা হয়নি। ইউনিয়ন কমিটির সভাপতি ও সাধারন সম্পাদক অসৎ উদ্দেশ্য চরিতার্থ ও দলীয় প্রার্থীকে কৌশলে পরাজিত করার অভিপ্রায়ে ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের কমিটি ও ওয়ার্ড নেতৃবৃন্দের সাথে আলোচনা ও বর্ধিতসভা আদৌ না করে গত ১৪ ফেব্রুয়ারী রোববার বিকেলে তারা শুধু মাত্র ওয়ার্ড কমিটির সভাপতি ও সাধারন সম্পাদকদের নিয়ে প্রার্থী বাছাই করেছেন। তিনি জানান, ওই বাচাইয়ে বিগত দিনে জাতীয় পার্টি ও বিএনপির কর্মী ক্ষেত্রপাড়া গ্রামের আব্দুল আজিজ সরদারের ছেলে বর্তমান স্বেচ্ছাসেবকলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য সামসুদ্দীন আল মাসুদ বাবুকে একক প্রার্থী হিেিসবে ঘোষনা করা হয়েছে। উক্ত বাবু ১০ম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নৌকা প্রতীকের বিপক্ষে স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে হরিন প্রতীক নিয়ে নির্বাচন করেন। যাহা সর্বজন স্বীকৃত। তিনি আরো জানান, জয়নগর ইউনিয়নে প্রাথী বাছাইয়ের কৌশল কেন্দ্রীয় আওয়ামীলীগের ইউনিয়ন পরিষদ বোর্ডের সিদ্ধান্তের পরিপন্থী। আর তাই জয়নগর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের দলীয় প্রার্থী অনিয়মে যাচাই করার কারনে ইউনিয়ন কমিটি ও সমর্থকদের মধ্যে তীব্র ক্ষোভের জন্ম দিয়েছে। যা ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে দলীয় প্রার্থীর পরাজিত হওয়ার সম্ভাবনাই বেশী। তিনি এসময় তার লিখিত বক্তব্যে ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি ও সাধারনসম্পাদকের এহেন সীদ্ধান্তের তীব্র প্রতিবাদ জানিয়ে ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন মনোয়ন বোর্ডের হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন। সংবাদ সম্মেলনে এ সময় তার সাথে আরো উপস্থিত ছিলেন, নীলকন্ঠপুর গ্রামের আওয়ামীলীগ কর্মী উজ্বল হোসেন। ##