কলারোয়ায় গৃহবধুকে কুপিয়ে হত্যার ঘটনায় চার জনের নামে মামলা, গ্রেপ্তার-৩


148 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
কলারোয়ায় গৃহবধুকে কুপিয়ে হত্যার ঘটনায় চার জনের নামে মামলা, গ্রেপ্তার-৩
আগস্ট ২০, ২০২০ কলারোয়া ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

আসাদুজ্জামান ::

পারিবারিক কলহের জের ধরে সাতক্ষীরার কলারোয়ায় ধারালো দা দিয়ে গৃহবধু মর্জিনা খাতুনকে কুপিয়ে হত্যার ঘটনায় চার জনের নামসহ অজ্ঞাত আরো ২/৩ জনকে আসামী করে থানায় মামলা দায়ের হয়েছে। বুধবার রাতে নিহতের ভাই ফারুক হোসেন বাদী হয়ে এ মামলাটি দায়ের করেন। এ মামলায় পুলিশ ইতিমধ্যে তিন জনকে গ্রেপ্তার করেছেন। এর আগে বুধবার দুপুরে উপজেলার চন্দনপুর ইউনিয়নের গয়ড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।
গ্রেপ্তারকৃতরা হলেন, নিহতের বড় জা মর্জিনা খাতুন (৩৭), তার স্বামী ইমানুর রহমান ঝন্টু (৪৫) ও তার ছেলে জাহিদ হাসান (১৩)। তবে, এ মামলার অপর আসামী মর্জিনা খাতুনের মেয়ে আহত সোনিয়া খাতুন পুলিশ প্রহরায় বর্তমানে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।
মামলার এজাহার সূত্রে জানা যায়, বুধবার দুপুরে নিহত সকিনার সাথে তার বড় জা মর্জিনা খাতুনের ছাগলে ফসল খাওয়াকে কেন্দ্র করে কথা কাটাকাটি হয়। এক পর্যায়ে মর্জিনা ও তার ছেলে জাহিদ হাসান ধারালো দা দিয়ে তার মা সকিনাকে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে জখম করে। এতে ঘটনাস্থলেই তার মৃত্যু হয়। এ সময় তাদের ঠেকাতে গিয়ে আহত হন নিহত সকিনা খাতুনের মেয়ে রাজিয়া খাতুন ও ঘাতক মর্জিনা খাতুনের মেয়ে সোনিয়া খাতুন। তারা বর্তমানে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। এ ঘটনায় পুলিশ ইতিমধ্যে মর্জিনা, তার স্বামী ইমানুর রহমান ঝন্টু ও তার ছেলে জাহিদ হাসানকে গ্রেপ্তার করেছে। আপর আসামী আহত সোনিয়া পুলিশ প্রহরায় বর্তমানে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।
কলারোয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শেখ মনীর উল গীয়াস বিষয়টি নিশ্চিত করে করে জানান, এঘটনায় নিহতের ভাই ফারুক হোসেন বাদী হয়ে চার জনের নাম উল্লেখসহ অজ্ঞাত আরো ২/৩ জনের নামে রাতেই থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন। ইতিমধ্যে এ মামলার প্রধান আসামীসহ তিন আসামীকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

#