কলারোয়ায় রবিউল হত্যা মামলার আসামী সহিদুল গ্রেফতার


406 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
কলারোয়ায় রবিউল হত্যা মামলার আসামী সহিদুল গ্রেফতার
আগস্ট ১৪, ২০১৫ কলারোয়া ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

কে এম আনিছুর রহমান, কলারোয়া প্রতিনিধি ॥
সাতক্ষীরার কলারোয়ায় সেচ্ছাসেবকলীগ নেতা রবিউল হত্যা মামলার অন্যতম পলাতক আসামী বিএনপি কর্মী সহিদুল ইসলামকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। গ্রেফতারকৃত সহিদুল (৪৫) উপজেলার দেয়াড়া গ্রামের মৃত আফসার সানার ছেলে। বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত ২ টার দিকে পুলিশ তার নিজ বাড়ি থেকে আটক গ্রেফতার করে। দীর্ঘদিন সে পালিয়ে ছিল।

কলারোয়া উপজেলার খোরদো পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ এস আই তরিকুল ইসলাম জানান, বৃহস্পতিবার গভীর রাতে তিনি গোপন সংবাদের ভিত্তিতে জানতে পারেন, রবিউল হত্যা মামলার আসামী সহিদুল ইসলাম দীর্ঘদিন পলাতক থাকার পর  সম্প্রতি বন্যার পানি তার বাড়িতে উঠে যাওয়ায় এবং বাড়ির চারিপাশে বুক পর্যন্ত পানি থাকায় নিজ বাড়িতে আত্ম গোপনে রয়েছে। পরে এই মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা সাতক্ষীরা সিআইডি ইন্সপেক্টর (ওসি) আমের আলীর নির্দেশ নিয়ে তার নেতৃত্বে ফাঁিড়র এ এস আই কামরুজ্জামান সঙ্গীয় পুলিশ সদস্য নিয়ে ওই বাড়ি ঘেরাও করে তাকে গ্রেফতার করে।

তার বিরুদ্ধে কলারোয়া থানায় জিআর হত্যা মামলা (নং-২৪,তারিখ-২৭/১১/১৩ ইং) থাকায় তাকে গ্রেফতার করা হয়েছে বলে থানার অফিসার ইনচার্জ শেখ আবু সালেহ মাসুদ করিম জানান ভয়েস অব সাতক্ষীরা ডটকমকে জানিয়েছেন। তবে বর্তমানে মামলাটি সিআইডিতে তদন্তাধীন রয়েছে বলে তিনি জানান।
উল্লেখ্য, ২০১৩ সালের ২৭ নভেম্বর সরকারী বিরোধী আন্দোলনের সময় জামায়াত-বিএনপি’র সর্মথকরা  কলারোয়া উপজেলার ১১নং দেয়াড়া ইউনিয়নের সেচ্ছাসেবকলীগের সাধারণ সম্পাদক রবিউল ইসলামকে কুপিয়ে  নৃশংস ভাবে হত্যা করে। এ ঘটনায় কলারোয়া থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের হয়। সহিদুল ইসলাম ওই মামলার একজন এজাহার নামীয় আসামী।
##

কলারোয়ায় ফেনসিডিলসহ ৫ ব্যক্তি আটক
কলারোয়া প্রতিনিধি
সাতক্ষীরার কলারোয়ায় অভিযান চালিয়ে ভারতীয় ফেনসিডিলসহ  ৫ ব্যক্তিকে আটক করেছে পুলিশ। বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ১০ টার দিকে উপজেলার ওফাপুর সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সামনে পাকা রাস্তার উপর থেকে তাদেরকে আটক করা হয়।
আটককৃতরা হলো-উপজেলার ফয়জুল্লাহপুর গ্রামের মৃত রওশন আলীর ছেলে নাজমুল হুদা মিঠু, একই উপজেলার সীমান্তবর্তী দক্ষিণ ভাদিয়ালী গ্রামের মিজানুর রহমানের ছেলে শরিফুল ইসলাম, কলারোয়া পৌর সদরের গদখালী গ্রামের মৃত রফিকুল ইসলামের ছেলে শাহিনুর রহমান, যশোর জেলার শার্শা উপঝেলার পশ্চিম কোটা গ্রামের মৃত হযরত সরদারের ছেলে জাহান আলী ও একই গ্রামের মোতলেব সরদারের ছেলে কবীর হোসেন।
উপজেলার সরসকাটি পুলিশ ফাঁড়ির এ এস আই লিটন বিশ্বাস জানান, বৃহস্পতিবার রাতে তিনি গোপন সংবাদের ভিত্তিতে জানতে পারেন, কলারোয়া বাজার থেকে কয়েকজন ব্যক্তি ভারতীয় ফেনসিডিল নিয়ে সরসকাটি বাজার অভিমুখে আসছে। পরে তার নেতৃত্বে সঙ্গীয় পুলিশ সদস্যরা ওই স্কুলের পাশে অবস্থান নেন। কিছুক্ষন পরেই আটককৃতরা ওই স্থানে আসার সাথে সাথে তাদেরকে গতিরোধ আটক করেন। পরে তাদের দেহ তল্লাশী চালিয়ে প্রত্যেকের নিকট থেকে ১ বোতল করে মোট ৫বোতল ভারতীয় ফেনসিডিল উদ্ধারসহ জব্দ করে।
এ ব্যাপারে কলারোয়া থানায় একটি মামলা (নং-১৩,তারিখ-১৪/৮/১৫ইং) হয়ে বলে থানার অফিসার ইনচার্জ শেখ আবু সালেহ মাসুদ করিম জানান।