কলারোয়ায় ৪ জনকে হোম কোয়ারেন্টাইনে রাখার নির্দেশ দিয়েছে স্বাস্থ্য বিভাগ


152 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
কলারোয়ায়  ৪ জনকে হোম কোয়ারেন্টাইনে রাখার নির্দেশ দিয়েছে স্বাস্থ্য বিভাগ
মার্চ ১৯, ২০২০ কলারোয়া ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

কে এম আনিছুর রহমান ::

সাতক্ষীরার কলারোয়ায় করোনা ভাইরাস সংক্রামন প্রতিরোধে বিদেশ ফেরত ৪ জনকে হোম কোয়ারেন্টাইনে নিয়েছে স্বাস্থ্য বিভাগ। বৃহস্পতিবার সকালে এই তথ্য প্রকাশ করেছে কলারোয়া হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ। এ বিষয়ে সাতক্ষীরা সিভিল সার্জন ডা.হুসাইন সাফায়াত জানান, সাতক্ষীরায় ইতোমধ্যে বিদেশ ফেরত মোট ৮৭ জনকে হোম কোয়ারেন্টাইনে নেওয়া হয়েছে। এর সংখ্যা আরও বাড়তে পারে। এরা সবাই ইটালী, মালয়েশিয়া, সিঙ্গাপুর, কুয়েত, ভারত, সৌদি আরব, ব্রানিয়া থেকে দেশে ফিরেছেন। তবে ভারত থেকে দেশে ফিরেছেন এমন লোকের সংখ্যা অনেক বেশী রয়েছে। এসব ব্যক্তিদের বিশেষ নজরদারীতে রাখা হয়েছে। তিনি আরো বলেন, এ সব ব্যক্তিরা যেন ঘরের বাইরে ঘোরাফেরা না করে সেজন্য নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। তাদের উপর স্থানীয় স্বাস্থ্য বিভাগ, ইউনিয়ন পরিষদ ও গ্রাম পুলিশকে নজরদারিতে রাখতে বলা হয়েছে। কেউ নির্দেশনা অমান্য করলে তাকে স্ব স্ব স্থানে উপজেলা নির্বাহী অফিসারের মাধ্যমে শাস্তির আওতায় আনা হবে। তবে, সাতক্ষীরায় এখনও পর্যন্ত করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন এমন কোন রোগী পাওয়া যায়নি। এদিকে কত কয়েকদিন ধরে কলারোয়ায় সৌদি আরব, থাইলান্ড, মালয়েশিয়া, ইটালী, কুয়েত, ব্রানিয়া ও ভারত থেকে ৮৮৬জন প্রবেশ করেছে। তাদের মধ্যে থেকে কলারোয়া স্বাস্থ্য বিভাগ ৪ জনকে হোম কোয়ারেন্টাইনে নিয়েছে। বৃহস্পতিবার রাতে কলারোয়া থানার এসআই ইয়ামিন আলী জানান-তাদের তথ্য অনুযায়ী বিভিন্ন দেশ থেকে ৮৮৬জন ব্যক্তি কলারোয়া প্রবেশ করেছে বলে জানান। তিনি আরো বলেন- এখনও পর্যন্ত করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন এমন কোন রোগী সনাক্ত করা বা খবর পাওয়া যায়নি। এবিষয়ে কলারোয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স এর টিএইচও ডা: জিয়াউর রহমান জানান,তারা এ পর্যন্ত ৪ জনকে হোম কোয়ারেন্টাইনে নিয়েছে। সবাইকে সর্তক বার্তা দেয়া হয়েছে। উপজেলা নির্বাহী অফিসার আরএম সেলিম শাহনেওয়াজ জানান-তিনি করোনা ভাইরাস সংক্রামন প্রতিরোধে সচেনতামুলক লিফলেট বিতরণ করেছেন। একই সাথে হোম কোয়ারেন্টাইন নিশ্চিতে অভিযান পরিচালনা করা হচ্ছে। তিনি সকলকে বলেন-আতংক নয় বরং সচেতনতায় পারে মরণব্যধি করোনা থেকে মুক্ত থাকতে। সম্প্রতি বিদেশ থেকে দেশে আসা ব্যক্তিদের উদাসিন না হয়ে নিজেদের জীবণ সুরক্ষার স্বার্থে ঘোরাঘুরি না করে অন্তত ১৪ দিন নিজের বাড়িতে অবস্থান করতে হবে। এর ব্যক্তয় হলে কঠোর আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।