কালিগঞ্জ সংবাদ ॥ প্রতিবন্ধীদের আয়বৃদ্ধি মূলক কর্মশালা


119 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
কালিগঞ্জ সংবাদ ॥ প্রতিবন্ধীদের আয়বৃদ্ধি মূলক কর্মশালা
জুন ৩০, ২০১৯ কালিগঞ্জ ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

সুকুমার দাশ বাচ্চু,কালিগঞ্জ ::

কালিগঞ্জে ডিজএ্যাবল্ড রিহ্যাবিলিটেশন এন্ড রিসার্চ এ্যাসোসিয়েশের ডি আর আর এর আয়োজনে এবং লিলিয়ানা ফন্ডসের সহযোগীতায় অনুষ্ঠিত হয়েছে আয়বৃদ্ধি মুলক কার্যক্রম প্রতিষ্ঠানের সাথে প্রতিবন্ধী ব্যাক্তিদের সম্পৃক্তকরণের উপর কর্মশালা। ৩০ জুন রবিবার বেলা ২ টায় কালিগঞ্জ উপজেলা সমাজসেবা কার্যালয়ে উপজেলা সমাজসেবা কর্মকর্তা জেসিয়া জামানের সভাপতিত্বে ও ডি আর আর এর প্রোগ্রাম অফিসার দেবাশিষ ঘোষের এর সঞ্চালনায় কর্মশালায় বক্তব্য রাখেন উপজেলা মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা শারমিন আক্তার, কালিগঞ্জ প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক সুকুমার দাশ বাচ্চু, যুবউন্নয়ন অফিসের ক্যাডিট এন্ড মার্কেটিং অফিসার নিলুফা ইয়াসমিন, নবযাত্রা প্রকল্পের লাইলা আন্জুমান খানম, একটি ববাড়ি একটি খামারের সমন্বয়ক আশরাফুল হোসেন, ইউসিসি কালিগঞ্জের চেয়ারম্যান গাজী জাহাঙ্গীর কবীর, কালিগঞ্জ প্রেসক্লাবের সাংগঠনিক সম্পাদক এম হাফিজুর রহমান শিমুল, ব্রাকের প্রোগ্রাম অফিসার শাহারিয়ার কবির, কালিগঞ্জ গ্রামীন ব্যাংকের প্রতিনিধি রফিকুল ইসলাম, নেহা সঞ্চয় ও ঋনদান সমবায় সমিতির নির্বাহী পরিচালক শেখ আব্দুল্লাহ, সুবর্ণ নাগরিক উন্নয়ন সংস্থার নির্বাহী পরিচালক ফরহাদ রেজা প্রমুখ। সমগ্র অনুষ্ঠান ব্যবস্থাপনায় ছিলেন ডি আর আর এর নজিফা খাতুন। কালিগঞ্জ উপজেলায় প্রতিবন্ধিদের সার্বিক বিষয়ে আয় বন্ধ মূলক কার্যক্রমে সম্পৃক্তকরণের বিষয়ে গুরুত্ব আরোপ করা হয়। উপজেলা সমাজসেবা অফিসের মাধ্যমে প্রতিবন্ধিদের বিভিন্ন সুযোগ সুবিধা প্রদান করা হয়। প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা প্রতিবন্ধিদের নিয়ে চিন্তা করেন। প্রতিবন্ধিদের আগে মাসে ৫ শত টাকা দেওয়া হতো এখন তা বাড়িয়ে প্রতি মাসে ৭ শত টাকা দেওয়া হয়। কালিগঞ্জ উপজেলায় ২১৪০ জন প্রতিবন্ধিদের ভাতার আওতায় নিয়ে আশা হবে।

#

কালিগঞ্জে নারী নির্যাতন মামলায় আটক -১

সুকুমার দাশ বাচ্চু,কালিগঞ্জ ::

অবশেষে বহ অপকর্মের হোতা, এলাকার ত্রাস, অসংখ্য মামলার আসামী, সন্ত্রাসী দিদার হোসেন (৩২), পুলিশের খাঁচায় বন্দী। নারী নির্যাতন মামলায় কালিগঞ্জ থানা পুলিশ শুক্রবার( ২৮ জুন) দুপুরে তাকে আটক করেছে। সে কালিগঞ্জ উপজেলার বিষ্ণুপুর ইউনিয়নের চাঁচাই গ্রামের মৃত মাদার আলী মোড়লের পুত্র। মাদার আলী মোড়লের দুই স্ত্রীর মধ্যে শেষ পক্ষের সন্তান দিদার। তার বির”দ্ধে ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক নিরঞ্জন কুমার পাল বাচ্চুকে প্রকাশ্য বাজার ফেলে মারপিট, ঘের ব্যাবসায়ী শ্রীধরকাটি গ্রামের গহর আলী শেখের পুত্র শেখ আব্দুস সালাম, চাঁচাই গ্রামের বিশিষ চিকিৎসক ডাঃ আব্দুল হামিদকে মারপিট ও অপদাস্ত করা, মুকুন্দ মধু সুদনপুর গ্রামের শাহমত আলী শেখের পুত্র শেখ আব্দুল করিমকে বেধড়ক মারপিট করা। এছাড়াও চাঁদাবাজি, ঘের দখল, জমি দখল ও নারী কেলেঙ্কারীসসহ সন্ত্রাসী কর্মকান্ডের অভিযোগ রয়েছে তার বির”দ্ধে। এছাড়াও তার বির”দ্ধে ঘের ডাকাতি, চুরি, ছিনতাইয়ের মত গুর”তর অভিযোগ রয়েছে। সে অল্প বয়স থেকে অপরাধ জগতে জড়িত রয়েছে বলে বিষ্ণুপুর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক ও ইউপি সদস্য নিরঞ্জন কুমার পাল বাচ্চুসহ তার দারা ক্ষতিগ্রস্থ ব্যাক্তিবর্গ এ প্রতিনিধিকে জানান। তারা আরও জানান, দিনমজুর পরিবারের সন্তান দিদার কোনো কাজকর্ম না করলেও চলনে বলনে রাজকীয় হাল। এলাকার সহজ সরল মানুষকে মামলায় জড়ানো ও পুলিশের ভয়ভীতি দেখিয়ে অর্থ আদায় করা তার মুল ব্যবসা। দিদার একটি ডায়াং (৮০সিসি) মটর সাইকেল চালিয়ে দাপটিয়ে বেড়ায়, সেটা ছিনতাই করে আনা বলে জনশ্র”তি রয়েছে, যার কাগজপত্র ও নম্বর নেই । তার ভাই আব্দুল কাদের মোড়ল (৩৮) জাল কাগজপত্র আর জাল সনদে বিষ্ণুপুর ইউপির ২ নং ওয়াডের গ্রাম পুলিশ হিসাবে চাকুরী নিয়েছে, যা অবৈধ। সন্ত্রাসী দিদারের যথাযথ শাস্তির জন্য ভুক্তভোগীদের পক্ষ থেকে জোর দাবী উঠেছে। তার বির”দ্ধে গৃহবধূকে শ্লীলতাহানী ও উত্যক্ত করার বিষয়টি নতুন নয়। সর্বশেষ কালিগঞ্জের বিষ্ণুপুর ইউনিয়নের মেয়ে ও খুলনা জেলার ঢাকুরিয়া গ্রামের গৃহবধুকে বাবার বাড়িতে যৌন হয়রানীর চেষ্টা করে। ভুক্তভোগী ওই গৃহবধূর মা জানান, গত ৫ বছর পূর্বে তার মেয়েকে খুলনা জেলার ঢাকুরিয়া গ্রামে বিয়ে দেওয়া হয়। সংসার জীবনে তার মেয়ের চার বছরের একটি কন্যা সন্তানও রয়েছে। তার মেয়ে ও মেয়ের জামাই সুখে শান্তিতে বর্তমানে বসবাস করছে। কিন্তু বিষ্ণুপুর ইউনিয়নের চাঁচাই গ্রামের মৃত মাদার মোড়লের বখাটে ছেলে, এলাকার চিহ্নিত সন্ত্রাসী দিদার মোড়ল তার মেয়ের ব্যবহৃত মোবাইল নম্বর সংগ্রহ করে প্রায়ই সময় ফোন করে অশ্লীল কথাবার্তাসহ কু-প্রস্তাব দিতে থাকে। বিষয়টি আমার মেয়ে আমাদের জানালে আমরা একধিকবার দিদার মোড়লকে নিষেধ করলে সে আমাদের জীবননাশের হুমকি দিতে থাকে। এরপর গত ১৭ জুন (সোমবার) আমার মেয়ে আমার বাড়িতে বেড়াতে আসলে ওই বখাটে দিদার আমার মেয়েকে বিভিন্ন সময়ে রাস্তা ঘাটে দেখলে উত্যক্ত করাসহ কু-প্রস্তাব দেয়। রাত-বিরাতে প্রতিনিয়ত আমার বাড়িতে এসে আমার মেয়ের ঘরের দরজায় শব্দ করে। সর্বশেষ গত ২৩ জুন (রবিবার) রাত ১১.৫০ ঘটিকার দিকে বাড়িতে অবস্থান কালিন সময়ে বখাটে দিদার মোড়ল রাতের আধারে আমার বাড়িতে এসে আমার মেয়ের ঘরের দরজায় শব্দ করে। এসময় আমার মেয়ে ঘরের দরজা খোলার সাথে সাথে বখাটে দিদার মোড়ল তার যৌন কামনা চরিতার্থ করার উদ্দেশ্য আমার মেয়েকে জাপটিয়ে ধরে শ্লীলতাহানীর চেষ্টা করে। আমার মেয়ের চিৎকারে আমরাসহ স্থানীয়রা এগিয়ে আসলে বখাটে দিদার মোড়ল আমার মেয়েকে ভয়ভীতি প্রদান করে ঘটনাস্থল থেকে পালিয়ে যায়। পরবর্তীতে শুক্রবার (২৮ জুন) রাতে আমি বাদী হয়ে মামলা দায়ের করলে রাতে পুলিশ দিদারকে আটক করে থানায় দিয়ে আসে। তার আটকের বিষয়ে কালিগঞ্জ থানার ওসি (তদন্ত) আজিজুর রহমান খাঁনের নিকট জানতে চাইলে তিনি বলেন নারী নির্যাতন মামলায় দিদারকে আটক করা হয়েছে। তবে তার বির”দ্ধে আরও অনেক অভিযোগ এসেছে, যা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

#

কালিগঞ্জের সন্ন্যাসীর চক প্রাথমিক বিদ্যালয়ে দপ্তরী পদে গোলাম হোসেনের স্থলে চাকুরী করছে ধুরন্ধর আল-আমিন- আজ তদন্ত

সুকুমার দাশ বাচ্চু,কালিগঞ্জ ::

কালিগঞ্জ উপজেলার সন্ন্যাসীর চক সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে দপ্তরী কাম নৈশ প্রহরী নিয়োগে প্রাথমিক ও গনশিক্ষা মন্ত্রনালয় কতৃক চুড়ান্ত নিয়োগ তালিকায় মোঃ গোলাম হোসেনের নাম উল্লেখ থাকলেও প্রতারণা মুলক ভাবে অবৈধ পন্থায় ২০১৪ সাল হতে চাকুরী করে চলেছে ধুরন্ধর আল আমিন। সে উপজেলার নলতা ইউনিয়নের সন্ন্যাসীর চক গ্রামের আলহাজ্ব মোক্তার আলীর পুত্র। সম্পুর্ণ অনিয়মতান্ত্রিক ভাবে অতি চালাক ও ধুরন্ধর আল আমিন স্কুলের তৎকালিন এসএমসি কমিটির সভাপতি ও উপজেলা শিক্ষা অফিসের কতিপয় কর্তা ব্যাক্তিদের ম্যানেজ করে নিয়োগ পরীক্ষায় ৪র্থ স্থান প্রাপ্ত আল-আমিনকে সর্বোচ্চ নম্বর প্রাপ্ত প্রথম স্থান অধিকারী গোলাম হোসেনের স্থলে আনা হয়। অপরদিকে হতদরিদ্র পরিবারের মেধাবী ও যোগ্য প্রার্থী গোলাম হোসেনকে বঞ্চিত করা হয়। এলাকার প্রভাবশালী ও ধর্ণার্ঢ্য পরিবারের সন্তান আল আমিন প্রভাব খাটিয়ে মামলা ও হামলার ভয় দেখিয়ে গোলাম হোসেন কে গ্রাম ছাড়া করা হয়। আল আমিন অবৈধ ভাবে ২০১৪ সালে নিয়োগ পেয়ে সরকারি যাবতিয় সুযোগ সুবিধা গ্রহন করলেও দ্বায়িত্বে ও কর্তব্যে চরম অবহেলার অভিযোগ রয়েছে। এছাড়া তার বিরুদ্ধে স্কুলের শিক্ষকদের লাঞ্চিত করা, শিক্ষার্থীদের দিয়ে কাজ করিয়ে নেওয়া ও দীর্ঘদিন স্কুলে না এসেও প্রভাব খাটিয়ে ১০/১২ দিনের স্বাক্ষর ১দিনে করার ও চাঞ্চল্যকর তথ্য আছে। স্কুলের প্রধান শিক্ষক শিবানী স্বর্ণকার গত ১৫/০১/২০১৪ তারিখে উপজেলা শিক্ষা অফিসার বরাবর আল আমিনের বিরুদ্ধে লিখিত অভিযোগ দায়ের করে। অভিযোগের প্রেক্ষিতে সরেজমিনে তদন্ত করেন গঠিত তদন্ত কমিটি। তদন্তে আল আমিনের বিরুদ্ধে দায়ের করা অভিযোগের সত্যতা পেলেও কর্তৃপক্ষ কোন ব্যাবস্থা নেননি। জানাগেছে, মোটা অংকের টাকার বিনিময়ে তদন্ত প্রতিবেদন ধামাচাঁপা দেওয়া হয়। বিদ্যালয়ের এস এমসি কমিটির সভাপতি মুছা করিম গত ০৭/০৫/২০১৯ তারিখে পুনঃরায় উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার বরাবর আল আমিনের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করেন। যার তদন্ত কালিগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কার্যালয়ে হবে আজ ১ জুলাই অনুষ্ঠিত হবে। এস এম সির সহ সভাপতি আবু তালেব এ প্রতিনিধিকে জানান, আল আমিন অযোগ্য ও ফাঁকিবাজ। তাকে দিয়ে কোনোমতে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে চাকুরী করানো ঠিক না। সে নৈশ প্রহরী হলেও কোনদিন রাত্রে স্কুলে ঘুরতেও যায়না। বিদ্যালয়ের দপ্তরী হলেও শিক্ষকদের কোন আদেশ নির্দেশ মেনে বা শুনে চলে না। অপরদিকে নিয়োগ পরীক্ষায় সর্বোচ্চ নম্বরধারী প্রকৃত যোগ্য প্রার্থী গোলাম হোসেন চাকুরী ফেরত পেতে সাতক্ষীরা আদালতে একটি মামলা দায়ের করে, মামলার নম্বর দেওয়ানী ৬৪। এদিকে গত ২৪/০৬/২০১৯ তারিখে কালিগঞ্জ উপজেলা শিক্ষা অফিসে অভিযোগের প্রক্ষিতে সন্ন্যাসীর চক সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের দপ্তরী কাম নৈশ প্রহরী আল আমিনের নিয়োগ সংক্রান্ত কোন নথির সন্ধান মেলেনি বলে জানাগেছে। সবমিলে স্কুলের ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি, সহ সভাপতিসহ কমিটির লোকজন, অভিভাবক, সুধীজন ও ভুক্তভোগীরা ধুরন্ধর আল আমিনের বিরুদ্ধে সঠিক তদন্ত হলে থলের বিড়াল বেরিয়ে আসবে বলে জানান।

#

কালিগঞ্জে কুশুলিয়া ও মৌতলা ইউনিয়নের উপ-নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে ৪ জনের মনোনয়নপত্র দাখিল

সুকুমার দাশ বাচ্চু,কালিগঞ্জ ::

কালিগঞ্জ উপজেলার কুশুলিয়া ও মৌতলা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান পদে উপ-নির্বাচনে ৪ জন প্রার্থী ও কৃষ্ণনগর, বিষ্ণুপুর ও তারালী ইউপিতে সদস্য পদে ১০ জন প্রার্থী মনোনয়নপত্র দাখিল করেছেন। রবিবার (৩০ জুন) মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষদিনে উপজেলা নির্বাচন অফিসার জমিরুল হায়দারের নিকট মনোনয়নপত্র দাখিল করেন কুশুলিয়া ইউনিয়নে আওয়ামীলীগ মনোনীত প্রার্থী উপজেলা আওয়ামীলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক এ্যাডঃ শেখ মোজাহার হোসেন কান্টু, স্বতন্ত্র প্রার্থী, সাবেক চেয়ারম্যান শেখ এবাদুল ইসলাম। মৌতলা ইউনিয়নের আওয়ামীলীগের মনোনীত নৌকার প্রার্থী, মৌতলা ইউনিয়ন যুবলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সাংবাদিক সুমন মাহবুব ও স্বতন্ত্র প্রার্থী আওয়ামীলীগ নেতা রফিকুল ইসলাম বাটুল। অপরদিকে ১ নং কৃষ্ণনগর ইউপির ৬ নম্বর ওয়ার্ডের উপ নির্বাচনে সদস্য পদে ৫জন মনোনয়নপত্র দাখিল করেন। এরা হলেন সাবেক ইউপি সদস্য তপন রায়, রফিকুল ইসলাম, রাম প্রসাদ হালদার, নুর হোসেন ও কবিরুল ইসলাম। ২ নং বিষ্ণুপুর ইউনিয়ন পরিষদের ৪, ৫ ও ৬ নং সংরক্ষীত আসনে সুফিয়া খাতুন ও পুর্ণিমা রানী মনোনয়ন পত্র দাখিল করেছেন। এছাড়াও ৭নং তারালী ইউনিয়ন পরিষদের ১,২ ও ৩ নং সংরক্ষিত আসনে মনোনয়নপত্র দাখিল করেছেন উপজেলা মহিলা আওয়ামীলীগের সভানেত্রী জেবুন্নাহার জেবু সাবেক সদস্যা শাহানারা খাতুন ও লিপিয়া খাতুন। কুশুলিয়া ইউনিয়নের আওয়ামীলীগের মনোনীত প্রার্থী এ্যাডঃ শেখ মোজাহার হোসেন কান্টুর মনোনয়নপত্র জমাকালে উপস্থিত ছিলেন কুশুলিয়া ইউপির সাবেক চেয়ারম্যান শেখ মেহেদী হাসান সুমন, জেলা পরিষদের সদস্য ও উপজেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের সভাপতি নুরুজ্জামান, উপজেলা মহিলা আওয়ামীলীগের সভানেত্রী জেবুন্নাহার জেবু, কুশুলিয়া ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি কাজী কওফিল অরা সজল, কৃষ্ণনগর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি মোস্তফা কবিরুজ্জামান মন্টু, ৩নং ওয়ার্ড আওয়ামীলীগের সভাপতি গোলাম আইয়ুব জুলু, সেক্রেটারী উত্তম কুমার, ৭ নং ওয়ার্ড সভাপতি আজিবর রহমান, সেক্রেটারী আনোয়ারুল ইসলাম, স্বেচ্ছাসেবকলীগ নেতা শেখ আব্দুল্যাহ, জাকির হোসেন মিষ্টার, নয়ন দাশ, শহিদুল ইসলামসহ ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ ও বিভিন্ন অঙ্গ সহযোগী সংগঠনের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। উল্লেখ্য যে, মৌতলা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান সাঈদ মেহেদী ও কুশুলিয়া ইউপির চেয়ারম্যান শেখ মেহেদী হাসান সুমন উপজেলা নির্বাচনে প্রার্থী হওয়ার জন্য পদত্যাগ করলে চেয়ারম্যান পদ শূন্য হয়। অপরদিকে উপজেলা নির্বাচনে মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে বিষ্ণুপুর ইউপির ফারজানা পারভীন ও তারালী ইউপির জেবুন্নাহার জেবু প্রতিদ্বন্দিতা করায় আসন দুটি শূন্য হয়। অপরদিকে কৃষ্ণনগর ইউপির উপ নির্বাচনে ৬ নং ওয়ার্ড সদস্য আব্দুর রহমান মোল্লা চেয়ারম্যান পদে প্রতিদ্বন্দিতা করলে মেম্বর পদটি শূন্য হয়। পৃথক ৪টি ইউনিয়নে উপ নির্বাচনে ২ জুলাই মনোনয়নপত্র যাচাই বাছাই, প্রার্থীতা প্রত্যাহারের শেষ তারিখ ৯ জুলাই। ২৫ জুলাই অনুষ্ঠিত হবে নির্বাচন।

#