কাল বিতর্কের জন্য প্রস্তুত হিলারি-ট্রাম্প


278 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
কাল বিতর্কের জন্য প্রস্তুত হিলারি-ট্রাম্প
অক্টোবর ৯, ২০১৬ প্রবাস ভাবনা ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

অনলাইন ডেস্ক :
যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের বাকি মাত্র এক মাস। নির্বাচনে ডেমোক্রেটিক প্রার্থী হিলারি ক্লিনটন ও রিপাবলিকান প্রার্থী ডোনাল্ড ট্রাম্পের মধ্যে গত সপ্তাহে অনুষ্ঠিত প্রথম প্রেসিডেন্ট বিতর্ক উপভোগ করেছিলেন আট কোটিরও বেশি দর্শক-শ্রোতা। বাংলাদেশ সময় আগামীকাল সোমবার সকালে (ওয়াশিংটন সময় রোববার সন্ধ্যা) তারা আবারও মুখোমুখি হচ্ছেন বিতর্কে। দ্বিতীয় দফার এই বিতর্ক নিয়ে জোর প্রস্তুতি নিয়েছেন দুই প্রার্থী। সেন্ট লুইসে ওয়াশিংটন ইউনিভার্সিটি ক্যাম্পাসে অনুষ্ঠেয় দ্বিতীয় বিতর্কে মডারেটর হিসেবে থাকবেন সিএনএনের অ্যান্ডারসন কুপার এবং এবিসি নিউজের মার্থা রাডাজ। প্রথম বিতর্কে ট্রাম্পের বিরুদ্ধে জয়ী হয়েছেন হিলারি। ওই বিতর্কে মাইক্রোফোন স্যাবোটাজের শিকার হয়েছেন বলে পরে অভিযোগ করেছিলেন ডোনাল্ড ট্রাম্প। তবে হিলারির তরফ থেকে কোনো অভিযোগ ওঠেনি। খবর নিউইয়র্ক টাইমস, এনডিটিভি ও এএফপির।

নারী নিয়ে ট্রাম্পের বেফাঁস মন্তব্য : নারীদের নিয়ে বেফাঁস কথা বলে আবারও ফেঁসে গেছেন ডোনাল্ড ট্রাম্প। রিপাবলিকান পার্টির এই প্রার্থীর এমন একটি অডিও টেপ ফাঁস হয়েছে, যাতে নারীদের নিয়ে নানা রকম অবমাননাকর কথা বলেছেন তিনি। তবে ঘটনা ফাঁস হওয়ার পর ক্ষমা চেয়েছেন ট্রাম্প। নারীদের নিয়ে তার কদর্য বক্তব্য যুক্তরাষ্ট্রের প্রথম নারী প্রেসিডেন্ট হতে হিলারির পথ আরও খুলে দিতে পারে। কারণ, এখন ট্রাম্পের দলের নেতারাও তার কাছ থেকে দূরে থাকতে চাইছেন। মার্কিন সংবাদমাধ্যম ওয়াশিংটন পোস্ট শুক্রবার ২০০৫ সালে ধারণ করা ট্রাম্পের ওই অডিও সাক্ষাৎকারটি ফাঁস করেছে। মার্কিন টেলিভিশন চ্যানেল এনবিসির উপস্থাপক বিলি বুশকে টেলিফোনে ওই ‘বিতর্কিত’ সাক্ষাৎকারটি দিয়েছিলেন এই রিপাবলিকান প্রেসিডেন্ট পদপ্রার্থী। ফাঁস হওয়া অডিও সাক্ষাৎকারে ট্রাম্প বলেন, ‘তারকারা নারীদের নিয়ে যা খুশি করতে পারে, আর এতে ওই নারীরাও বাধা দেবে না।’ সাক্ষাৎকারে ট্রাম্প এক বিবাহিত অভিনেত্রীর সঙ্গে যৌন সম্পর্ক স্থাপনে তার আগ্রহের কথাও জানান। সাক্ষাৎকারটি প্রকাশের পর ব্যাপক সমালোচনায় পড়েন ট্রাম্প। শনিবার নিজের ‘বিতর্কিত’ বক্তব্যের জন্য ক্ষমা চেয়ে ট্রাম্প বলেন, ‘আমি যা বলেছি এবং করেছি, তার জন্য আমি অনুশোচনায় ভুগছি। এ জন্য আমি ক্ষমা প্রার্থী।’

ডেমোক্রেটিক পার্টির প্রার্থী হিলারি এর তীব্র নিন্দা জানিয়ে টুইটারে লেখেন, ‘এটা ভয়াবহ! আমরা এমন একজনকে প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হতে দিতে পারি না।’ এর জবাবে ট্রাম্প তার বিবৃতিতে হিলারির স্বামী সাবেক মার্কিন প্রেসিডেন্ট বিল ক্লিনটনের যৌন সম্পর্কের বিষয়টি তুলে ধরে বলেন, ‘প্রকৃতপক্ষে বিল ক্লিনটন নারীর প্রতি অবমাননা প্রদর্শন করেছেন। ওই নারীকে হিলারি গালাগালি করেছেন, আক্রমণ করেছেন।’ তিনি ইঙ্গিত করেন, রোববারের বিতর্কে এই বিষয়গুলো তুলে ধরবেন।

উইকিলিকস ফাঁস করল হিলারির গোপন ভাষণ :হিলারিকে ধরাশায়ী করতে তার ওয়াল স্ট্রিটে দেওয়া ব্যক্তিগত ভাষণের অনুলিপি ফাঁস করল উইকিলিকস। প্রকাশিত ২০১৩-১৪ সালের ভাষণের নথির একটি অংশে দেখা যায়, হিলারি সে সময় অবাধ বাণিজ্য আর অবাধ সীমান্তের কট্টর সমর্থক ছিলেন। ভাষণে হিলারি বলেন, ‘আমি গোলার্ধজুড়ে বিশাল এক কমন মার্কেটের স্বপ্ন দেখি, যেখানে বাণিজ্য আর সীমান্ত থাকবে উন্মুক্ত।’ গোল্ডম্যান শ্যাসের আর্থিক পৃষ্ঠপোষকতায় ২০১৩ সালে হিলারি বিভিন্ন ব্যাংকারের মাঝে ভাষণ দেন। সে সময় তিনি আর্থিক খাতে সংস্কারের জন্য ওয়াল স্ট্রিটের সঙ্গে পরামর্শ করার কেন দরকার, তা নিয়েও কথা বলেন। তবে ২০১৩-১৪ সালে দেওয়া এসব ভাষণ প্রকাশ্যে আনতে চাইতেন না হিলারি।