খননের নামে সাতক্ষীরা প্রাণ সায়র খাল আরো সংকীর্ণ, জেলা নাগরিক কমিটির উদ্বেগ


412 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
খননের নামে সাতক্ষীরা প্রাণ সায়র খাল আরো সংকীর্ণ, জেলা নাগরিক কমিটির উদ্বেগ
নভেম্বর ২৮, ২০২০ ফটো গ্যালারি সাতক্ষীরা সদর
Print Friendly, PDF & Email

৫ ডিসেম্বর মানববন্ধন

সাতক্ষীরা ‘শহরের প্রাণ’ প্রাণ সায়র খাল খনন করে মাটি দিয়ে পাড় ভরাট এবং খাল পূর্বের চেয়ে আরো সরু করার ঘটনায় উদ্বেগ প্রকাশ করেছে সাতক্ষীরা জেলা নাগরিক কমিটি। ২৮ নভেম্বর শনিবার বেলা ১১টায় সংগঠনের যুগ্ম আহবায়ক এড. শেখ আজাদ হোসেন বেলালের সভাপতিত্বে জেলা নাগরিক কমিটির সভায় এই উদ্বেগ প্রকাশ করা হয়।
নাগরিক কমিটির নেতৃবৃন্দ বলেন, প্রতিবারই খননের নামে পূর্বের চেয়ে আরো সরু করার কারণে প্রাণ সায়র খালটি অস্তিত্বহীন হওয়ার পথে। তাছাড়া স্কেবেটর মেশিন চলাচলের পথ তৈরীর জন্য পাড়ের অংশ কেটে পুনরায় খননকৃত মাটি দিয়ে ভরাটের কারণে অচিরেই তা ভেঙে খালের মধ্যেই পড়বে। ফলে খনন কাজ অর্থহীন ও টাকার অপচয় হচ্ছে। নেতৃবৃন্দ বলেন, খাল প্রসস্থ করার জন্য শতশত ব্যবসায়ীর দোকানপাট ভাঙা হয়েছে। কিন্তু এখন দেখা যাচ্ছে খাল প্রসস্থ নয়, বরং দোকান পাট ভেঙে ঠিকাদারের স্কেবেটার মেশিন চলাচলের পথ তৈরী করা হয়েছে। খালের খনন কাজে এই প্রক্রিয়া অব্যাহত থাকলে আগামী দিনে সাতক্ষীরা শহরের জলাবদ্ধতা পরিস্থিতি আরো বৃদ্ধি পাবে বলে নাগরিক কমিটির নেতৃবৃন্দ আশংকা ব্যক্ত করেন।
সভায় সাতক্ষীরা পৌরসভার নির্বাচনকে সামনে রেখে তড়িঘড়ি করে শহরের বিভিন্ন এলাকায় উন্নয়ন প্রকল্পের নামে যেন তেন প্রকারে লোক দেখানো ‘ওয়ান টাইম রাস্তা-ড্রেন-কালভার্ট’ নির্মাণ কাজ বন্ধ করে টেকসই উন্নয়ন নিশ্চিত করার দাবী জানানো হয়।
একইসাথে সাতক্ষীরা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে বরাদ্বকৃত পিসিআর ল্যাব দ্রুত স্থাপন ও চালু করার দাবী জানানো হয়। সভায় আম্পান দুর্গত এলাকায় বেড়িবাঁধে বসবাসকারী শতশত মানুষের জন্য জরুরি ত্রাণ সহায়তা এবং শীতবস্ত্র বিতরণ এবং টেকসই বেড়িবাঁধ নির্মাণের দাবী জানানো হয়।
সভায় সাতক্ষীরা শহর ও পাশ্ববর্তী এলাকার জলাবদ্ধতা নিরসনে নাগরিক কমিটির প্রস্তবনা আগামী ২৯ নভেম্বর মাননীয় জেলা প্রশাসকের নিকট পেশ এবং দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের ভূমিহীন-কৃষক আন্দোলনের নেতা সাইফুল্লাহ লস্করের মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে ও প্রাণ সায়র খাল সঠিকভাবে খনন করার দাবীতে ৫ ডিসেম্বর প্রাণসায়র খালের পাকাপুল এলাকায় মানববন্ধনের কর্মসূচি গ্রহণ করা হয়।
সভায় বক্তব্য রাখেন, অধ্যক্ষ আশেক-ই-এলাহী, মধাব চন্দ্র দত্ত, অপারেশ পাল, প্রভাষক ইদ্রিশ আলী, কমরেড আবুল হোসেন, নিত্যা নন্দ সরকার, আসাদুজ্জামান লাভলু, আলী নুর খান বাবলু, এড. আবুল কালাম আজাদ প্রমুখ।

প্রেস বিজ্ঞপ্তি

#