‘খাদিজার অবস্থা জানা যাবে শনিবার’


446 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
‘খাদিজার অবস্থা জানা যাবে শনিবার’
অক্টোবর ৭, ২০১৬ জাতীয় ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

অনলাইন ডেস্ক :
সিলেটে ছাত্রলীগ নেতার হামলায় ‘সঙ্কটাপন্ন’ কলেজছাত্রী খাদিজা বেগম নার্গিসের অবস্থার তেমন কোনো পরিবর্তন হয়নি; এ বিষয়ে শনিবার সকালে বিস্তারিত জানাবেন চিকিৎসকরা।

স্কয়ার হাসপাতালের মেডিসিন অ্যান্ড ক্রিটিক্যাল কেয়ার বিভাগের পরামর্শক মির্জা নাজিম উদ্দিন শুক্রবার দুপুরে বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে এ তথ‌্য জানান ।

তিনি বলেন, খাদিজাকে ‘পর্যবেক্ষণে’ চিকিৎসকদের দেওয়া ৭২ ঘণ্টা সময় শেষ হচ্ছে বিকাল ৫টায়।

“তার অবস্থা অপরিবর্তিত রয়েছে। যেহেতু অবস্থার অবনতি হয়নি, তাই বলা যায় কিছুটা ইতিবাচক। আজকের দিনটি দেখে শনিবার সকালের দিকে সাংবাদিকদের বিস্তারিত জানানো হবে।”

সিলেট সরকারি মহিলা কলেজের স্নাতক দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্রী খাদিজা গত সোমবার বিকালে স্নাতক পরীক্ষা শেষে এমসি কলেজ কেন্দ্র থেকে বেরিয়ে আসার পর কলেজ ক‌্যাম্পাসেই হামলার শিকার হন।
sylhet-pic-1-1
শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সহ-সম্পাদক বদরুল আলম তাকে কুপিয়ে আহত করেন বলে প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন।

আহত খাদিজাকে প্রথমে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়া হলেও অবস্থার অবনতি হলে রাতে তাকে ঢাকায় আনা হয়। স্কয়ার হাসপাতালে তাকে পর্যবেক্ষণে রেখেছেন চিকিৎসকরা।

হাসপাতালে খাদিজা বেগম

হাসপাতালে খাদিজা বেগম
মঙ্গলবার বিকালে তার অস্ত্রোপচারের পর চিকিৎসক রেজাউস সাত্তার বলেছিলেন, মাথায় মারাত্মক আঘাত পাওয়া এই কলেজছাত্রীর বেঁচে থাকার সম্ভাবনা ৫ থেকে ১০ ভাগ।

পরিস্থিতির উন্নতি হলে তার হাতসহ শরীরের অন্য জখমের জন্যে ‘অর্থোপেডিক চিকিৎসা দেওয়া হবে বলে জানিয়েছিলেন নিউরোসার্জন সাত্তার।

ঘটনার পরপরই কলেজের শিক্ষার্থীরা বদরুলকে ধরে পুলিশে দেয়। পরদিন তাকে আসামি করে সিলেটের শাহ পরাণ থানায় মামলা করেন খাদিজার চাচা আব্দুল কুদ্দুস।

খাদিজাকে কুপিয়ে আহত করার ঘটনায় শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ বদরুলকে বহিষ্কার করেছে। বদরুল হামলার কথা স্বীকার করে আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দিও দিয়েছেন বলে পুলিশ জানিয়েছে।