খুলনায় সাবেক এমপির পুত্রবধূ নিহতের ঘটনায় মামলা


322 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
খুলনায় সাবেক এমপির পুত্রবধূ নিহতের ঘটনায় মামলা
অক্টোবর ৮, ২০১৫ খুলনা বিভাগ ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

খুলনা প্রতিনিধি :
খুলনা-৪ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য ও জেলা আওয়ামী লীগ নেতা মোল্লা জালাল উদ্দিন আহমেদের বড় পূত্রবধূ রাব্বি সুলতানা লিপি হত্যার ঘটনায় মামলা দায়ের করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (০৮ অক্টোবর) দুপুরে সাবেক সংসদ সদস্য জালাল উদ্দিন বাদী হয়ে সদর থানায় মামলা করেছেন। মামলায় মোল্লা জালাল উদ্দিনের ভাইপো মোল্লা হেদায়েত হোসেনকে একমাত্র আসামি করা হয়েছে।

খুলনা সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সুকুমার বিশ্বাস দুপুরে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

খুলনা মহানগর পুলিশের উপ কমিশনার মোল্লা জাহাঙ্গীর হোসেন জানান, নিহত লিপি তার স্বামীর নামে লাইসেন্স করা শর্টগান আনলোড করে রাখেন। এমন সময় তার চাচাতো দেবর হেদায়েত মোল্লা রসিকতার করে ঘটনাস্থলে এসে তার মাথার দিকে শর্টগান তাক করে বলেন ভাবি দেবো গুলি করে। এসময় শর্টগান হাতে নিয়ে ট্রিগারে টিপ দিলে একরাউন্ড গুলি বের হয়ে লিপির মাথায় বিদ্ধ হয়। ঘটনাস্থলেই লিপি মারা যান। ঘটনার সময় নিহত লিপির ছোট বোনও ওই রুমে অবস্থান করছিলেন।

বৃহস্পতিবার রাতে নগরীর পুলিশ লাইন ইস্ট লেন এলাকায় সাবেক সংসদ সদস্যের পাঁচতলা বাড়ির পঞ্চম তলায় চাচাতো দেবর হেদায়েতের গুলিতে লিপি মারা যান। যে শর্টগান দিয়ে লিপিকে হত্যা করা হয়েছে ওই অস্ত্রটি লিপির স্বামী কামাল উদ্দিন সিদ্দিকি হেলালের। হেলাল তার মাকে নিয়ে হজপালনের জন্য সৌদি আরবে রয়েছেন।

নিহতের পরিবার থেকে জানানো হয়, ঘটনাটি সৌদিতে কামালকে জানানো হয়েছে। তিনি দেশের উদ্দেশ্যে রওয়ানা দিয়েছেন। এদিকে ঘাতক মোল্লা হেদায়েত হোসেনকে পুলিশ এখনো গ্রেফতার করতে পারেনি। সকালে নিহত লিপির ময়না তদন্ত শেষ হয়েছে।