ছাদখোলা বাসে করে যে পথে যাবেন চ্যাম্পিয়নরা


116 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
ছাদখোলা বাসে করে যে পথে যাবেন চ্যাম্পিয়নরা
সেপ্টেম্বর ২১, ২০২২ খেলা ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

অনলাইন ডেস্ক ::

সব অপেক্ষার অবসান হচ্ছে। হিমালয়ের দেশ থেকে সাফ চ্যাম্পিয়নশিপের মুকুট জিতে আজ বুধবার দেশে ফিরছেন বাংলাদেশ নারী ফুটবল দল। সবকিছু ঠিক থাকলে আজ দুপুরে ট্রফি নিয়ে ঢাকায় পা রাখবেন সাফজয়ী লাল-সবুজের মেয়েরা।

সাফ চ্যাম্পিয়নশিপের ট্রফি নিয়ে ছাদখোলা বাসে ঘরে ফিরতে চেয়েছেন বাংলাদেশ নারী ফুটবলাররা। তাদের সেই স্বপ্ন পূরণ করতে যাচ্ছে ক্রীড়া মন্ত্রণালয়। সাফজয়ী মেয়েদের জন্য ছাদখোলা বাসের ব্যবস্থা করেছে যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয়। আজ দুপুর ১টা ৫০ মিনিটে হজরত শাহজালাল বিমানবন্দরে নামবেন খেলোয়াড়-স্টাফরা। সেখানে ক্রীড়া মন্ত্রী, সচিব ও বাফুফে কর্মকর্তারা মেয়েদের অভ্যর্থনা জানাবেন।

বাফুফে সেক্রেটারি আবু নাইম সোহাগ বলেন, দুপুর ১টা ৫০ মিনিটে বিমান থেকে নামবে চ্যাম্পিয়ন নারী ফুটবলাররা। সেখানে উপস্থিত থাকবেন- প্রতিমন্ত্রী মহোদয় (জাহিদ আহসান রাসেল), যুব ও ক্রীড়া সচিব এবং মন্ত্রণালয় ও বাফুফে কর্মকর্তারা। তবে সেখানে বাফুফে সভাপতি কাজী সালাউদ্দিন উপস্থিত থাকবেন না। তিনি থাকবেন বাফুফে ভবনে।

বাফুফে সেক্রেটারি আরও বলেন, বিমান থেকে নেমে আসার পর প্রতিমন্ত্রী মহোদয় তাদেরকে ফুল দিয়ে বরণ করবেন, মিষ্টিমুখ করাবেন। এরপর অনুষ্ঠিত হবে একটি সংক্ষিপ্ত প্রেস কনফারেন্স। সেখানে ফুটবলাররা তাদের অনুভূতির কথা জানাবেন।

আবু নাইম সোহাগ বলেন, আপনারা এরই মধ্যে জানেন, ছাদখোলা বাসে করে বিজয় উদযাপনের ব্যবস্থা করেছে মন্ত্রণালয়। সেই বাসকে ব্র্যান্ডিং করা হচ্ছে, সাউন্ড সিস্টেম থাকবে। যেখানে বাজানো হবে ফুটবল এবং স্পোর্টস রিলেটেড গানগুলো। সেই বাসে করেই সাফজয়ী ফুটবলাররা বাফুফে ভবনে আসবেন।’

বিমানবন্দর থেকে যে পথে বাফুফে ভবনে যাবেন ফুটবলাররা সেটার পুরো রুটটাই জানিয়ে দিলেন বাফুফে সেক্রেটারি। তিনি বলেন, বিমানবন্দর থেকে ছাদখোলা বাস চ্যাম্পিয়ন মেয়েদের নিয়ে কাকলি হয়ে, মহাখালি ফ্লাইওভার দিয়ে শহীদ জাহাঙ্গীর গেট যাবে। সেখান থেকে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের সামনে দিয়ে বিজয় সরণী, তেজগাঁও, মৌচাক ফ্লাইওভার দিয়ে কাকরাইল যাবে। এরপর ফকিরেরপুল, আরামবাগ, শাপলা চত্বর দিয়ে পৌঁছাবে মতিঝিলের বাফুফে ভববে।

এ পর্যায়ে নারী ফুটবলারদের বরণ করবেন বাফুফে সভাপতি কাজী সালাউদ্দিন। আবু নাইম সোহাগ বলেরন, বাফুফে ভবনে উপস্থিত থাকবেন সভাপতি (কাজী সালাউদ্দিন)। মেয়েরা আসার পর তাদেরকে ফুলের স্টিক দিয়ে তিনি বরণ করে নেবেন। এরপর ফটোসেশন হবে। এখানেও হতে পারে একটি সংবাদ সম্মেলন। এরপর অফিসিয়ালি আপাতত রিসিপশনটা শেষ হবে। বাকি আরও বড় কোনো সংবর্ধনার আয়োজন করা হবে কি না তা নির্ধারণ করবেন বাফুফে সভাপতি এবং কার্যনির্বাহী কমিটি।