ঝিনাইদহ সংবাদ॥ শৈলকুপায় ভ্রাম্যমান আদালতের জরিমানা


994 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
ঝিনাইদহ সংবাদ॥ শৈলকুপায় ভ্রাম্যমান আদালতের জরিমানা
মে ১৭, ২০১৬ খুলনা বিভাগ ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

ঝিনাইদহ প্রতিনিধি:
ঝিনাইদহের শৈলকুপা উপজেলার কাতলাগাড়ী বাজারের বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে অভিযান চালিয়ে ২০ হাজার ৭’শ টাকা জরিমানা করেছে ভ্রাম্যমান আদালত।
মঙ্গলবার সকাল ১০ টা থেকে দুপুর পর্যন্ত এ অভিযান চালানো হয়।
জানা গেছে, সোমবার সকালে শৈলকুপা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট দিদারুল আলম কাতলাগাড়ী বাজারে অভিযান চালায়।
এসময় কাতলাগাড়ী বাজারের জাহাঙ্গীর হোটেল এন্ড রেস্টুরেন্টে ৫ হাজার টাকা, রাজ্জাক হোটেলে ৫ হাজার টাকা, মোতাহার হোটেলে ৫শ’ টাকা, চাঁদ আলী মেশিনারীজ এন্ড হার্ডওয়ারে ৫ হাজার টাকা, রিপু স’মিলে ৫ হাজার টাকা ও রাস্তার পাশে ফলের দোকানে ২শ’ টাকা জরিমানা আদায় করে ভ্রাম্যমান আদালত।
সব মিলিয়ে মোট ২০ হাজার ৭’শ টাকা জরিমানা আদায় করা হয়েছে। ভ্রাম্যমান আদালতে শৈলকুপা থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মহিবুল ইসলাম সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে উপস্থিত ছিলেন।###

ঝিনাইদহে প্রেমিকাকে বেঁধে রেখে রাতভর নির্যাতনের অভিযোগ

ঝিনাইদহ প্রতিনিধি:
ঝিনাইদহ সদর উপজেলার পোড়াহাটি গ্রামে হাসিনা খাতুন (২২) নামে এক কলেজ ছাত্রীকে (প্রেমিকা) দঁড়ি দিয়ে বেঁধে নির্যাতন করার অভিযোগ উঠেছে প্রেমিক বকুল ও তার পরিবারের লোকজনের বিরুদ্ধে।
মেয়েটি (প্রেমিকা) বিয়ের দাবি নিয়ে তার প্রেমিক বকুল হোসেনের বাড়িতে গেলে তার ওপর এই নির্যাতন চালানো হয়। হাসিনা খাতুন মাগুরার শ্রীপুর উপজেলার জারিয়াপুর গ্রামের জালাল উদ্দীন শেখের মেয়ে।
খবর পেয়ে পুলিশ মঙ্গলবার সকালে মেয়েটিকে উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে।
ঝিনাইদহ সদর থানায় আনার পর মেয়েটি জানায়,

তাকে বিয়ে করার প্রস্তাব দিয়ে পোড়াহাটী গ্রামের ইমান আলীর ছেলে বকুল হোসেন প্রায় ২ বছর ধরে সম্পর্ক গড়ে তোলে। বকুল হোসেন তাকে বিয়ে করবে না বলে জানিয়ে দিলে সোমবার রাতে মেয়েটি বকুলের বাড়িতে গিয়ে বিয়ের প্রস্তাব নিয়ে হাজির হয়।

হাসিনা পোড়াহাটি গ্রামে আসার পর বকুল ও তার পরিবারের লোকজন মেয়েটিকে দঁড়ি দিয়ে ঘরের খুঁটির সঙ্গে বেঁধে সারারাত নির্যাতন চালায়। হাসিনা খাতুন বকুলের ভাবির চাচাতো বোন। খবর পেয়ে পুলিশ মঙ্গলবার সকালে মেয়েটিকে ওই বাড়ি থেকে উদ্ধার করে ঝিনাইদহ থানায় নিয়ে যায়। পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে বকুলসহ বাড়ির লোকজন পালিয়ে যায়।
ঝিনাইদহ সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) হাসান হাফিজুর রহমান জানান, মেয়েটিকে উদ্ধার করে থানায় আনা হয়েছে। পরিবারের পক্ষ থেকে অভিযোগ পেলে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।###

ঝিনাইদহে এবার হরিণের চামড়াসহ: আটক ৩

ঝিনাইদহ প্রতিনিধি:
ঝিনাইদহ শহরের ব্যাপারী পাড়া থেকে হরিণের চামড়া, মাদকদ্রব্য, মোবাইল ও নগদটাকাসহ তিনজনকে আটক করেছে র‌্যাব-৬।সোমবার (১৬ মে) রাত ১০টার দিকে অভিযান চালিয়ে তাদের আটক করা হয়।
আটক তিনজন হলেন- ব্যাপারী পাড়া এলাকার চুতুর আলীর ছেলে কোরবান আলী (৪৫), তার স্ত্রী আমেনা খাতুন (৩৮) ও শরিফুল ইসলামের ছেলে মামুনুর রশিদ (২৮)।

ঝিনাইদহ র‌্যাব-৬ ক্যাম্পের কোম্পানি কমান্ডার মো. মনির আহম্মেদ সাংবাদিক কে জানান,  রাতে শহরের ব্যাপারী পাড়ায় মাদক ব্যবসায়ীরা মাদক ক্রয়-বিক্রয় করছে এবং হরিণের চামড়া পাচার করছে খবর পেয়ে সেখানে অভিযান চালিয়ে এ তিনজনকে আটক করা হয়।

এসময় ঘটনাস্থল থেকে একটি হরিণের চামড়া, চার লাখ তিন হাজার ৫’শ ৩০ টাকা, ১৬টি মোবাইল, একটি ক্যামেরা, দুই পিস ইয়াবা, ২০ গ্রাম হেরোইন, ৪শ’ গ্রাম গাঁজা ও ১৮ বোতল ফেন্সিডিল জব্দ করা হয়।
আটক তিনজন দীর্ঘদিন যাবত মাদক ব্যবসা করে আসছিলেন বলে জানান মনির আহম্মেদ।