টানা তৃতীয় হার মাশরাফির কুমিল্লার


281 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
টানা তৃতীয় হার মাশরাফির কুমিল্লার
নভেম্বর ১৪, ২০১৬ খেলা ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

অনলাইন ডেস্ক :
হারের বৃত্তেই আটকে থাকলো মাশরাফি বিন মর্তুজার কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স। রবিবার বিপিএলের চতুর্থ আসরে তিন ম্যাচে টানা তৃতীয় হারের তিক্ত স্বাদ পেয়েছে শিরোপাধারীরা। কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ানসের বিপক্ষে ১৩ রানের জয় তুলে নিয়েছে মাহমুদউল্লাহ রিয়াদের খুলনা টাইটানস। আর দুর্দান্ত এই জয়ে পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষে উঠে এসেছে খুলনা।

খুলনা টাইটান্সের দেয়া ১৪৪ রানের চ্যালেঞ্জ মোকাবেলা করতে নেমে মারলন স্যামুয়েলসের ৩০ এবং সোহেল তানভিরের ২১ রান সত্ত্বেও জিততে ব্যর্থ হলো বর্তমান চ্যাম্পিয়নরা। ৯ উইকেট হারিয়ে কুমিল্লা শেষ পর্যন্ত ১৩১ রানে গিয়ে থামতে বাধ্য হয়েছে।

মূলত কেভন কুপার, শফিউল ইসলামের নিয়ন্ত্রিত বোলিংয়ের কাছেই হারতে হয়েছে কুমিল্লাকে। ৪ ওভারে মাত্র ১৬ রান দিয়েছেন কেভন কুপার। শফিউল দিয়েছেন ১৯ রান। নিয়েছেন ২ উইকেট।

জয়ের জন্য ১৪৫ রানের লক্ষ্যে ব্যাট করতে নেমে শুরুতেই লিটন দাসের উইকেট হারিয়ে বিপদে পড়ে যায় কুমিল্লা। ৫ বলে ৮ রান করে আউট হয়ে যান লিটন। এরপর ইমরুল কায়েস ফর্মে ফেরার ইঙ্গিত দিলেও ১৬ বলে ২১ রান করে আউট হয়ে যান তিনি।

আগের ম্যাচেও পারফরমার ছিলেন মারলন স্যামুয়েলস। আজও তিনি চেষ্টা করেছিলেন কুমিল্লাকে জয় উপহার দেয়ার; কিন্তু তার ৩৪ বলে করা ৩০ রানের ইনিংস কোনো কাজেই আসলো না। বরং শফিউলের বলে বোল্ড হয়ে কুমিল্লার পরাজয় ত্বরান্বিত করেন তিনি।

প্রথম ম্যাচে হাফ সেঞ্চুরিয়ান নাজমুল হোসেন শান্ত আউট হন ১০ রান করে। আসহার জাইদিও বেশি কিছু করতে পারলেন না। আউট হলেন ১০ রানে।

সোহেল তানভির গত ম্যাচেও শেষ দিকে ভালো ব্যাট করেছিলেন। এ ম্যাচেও চেষ্টা করেছেন। তবে খুলনার বোলারদের নিয়ন্ত্রিত বোলিংয়ের কারণে পারলেন না শেষ পর্যন্ত কুমিল্লাকে জেতাতে। ২১ বলে ২১ রানে অপরাজিত থাকেন তিনি।

আফগান রশিদ খান রানআউট হন ১০ রানে। মাশরাফি আউট হন ৫ রান করে। সাইফুদ্দিন ৪, সৈকত আলি এবং নাবিল সামাদ কোনো রানই করতে পারলেন না।

খুলনার হয়ে জুনায়েদ খান এবং শফিউল ইসলাম নেন ২টি করে উইকেট। শুভাগত হোম, কেভন কুপার এবং মোশাররফ হোসেন রুবেল নেন ১টি করে উইকেট।

সংক্ষিপ্ত স্কোর:

খুলনা টাইটান্স: ২০ ওভারে ১৪৪/৯  (ফ্লেচার ২৩, হাসানুজ্জামান ৩৭, শুভাগত ১৬, মাহমুদউল্লাহ ১১, পুরান ১২, কাপালী ৩, আরিফুল ৭, কুপার ১১, মোশাররফ ২, জুনায়েদ ০*; মাশরাফি ৩/২৬, নাবিল ০/২৮, তানভির ৩/১৯, রশিদ ১/২৫, জাইদি ০/১০, নাজমুল ২/৯, সাইফুদ্দিন ০/৭)

কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স: ২০ ওভারে ১৩১/৯ (লিটন ৮, ইমরুল ২১, স্যামুয়েলস ৩০, নাজমুল ১০, জাইদি ১০, তানভির ২১*, মাশরাফি ৫, রশিদ ১০, সাইফুদ্দিন ৪, সৈকত ০, নাবিল ০*; শুভাগত ১/২০, জুনায়েদ ২/২৪, কুপার ১/১৬, মাহমুদউল্লাহ ০/২৮, মোশাররফ ১/২১, শফিউল ২/১৯)

ফল: খুলনা টাইটান্স ১৩ রানে জয়ী