তালায় দরিদ্র কৃষকের পান বরজে দূর্বৃত্তদের হামলা : ৬ লক্ষ টাকার ক্ষতিসাধন


532 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
তালায় দরিদ্র কৃষকের পান বরজে দূর্বৃত্তদের হামলা : ৬ লক্ষ টাকার ক্ষতিসাধন
সেপ্টেম্বর ৬, ২০১৭ তালা ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

বি. এম. জুলফিকার রায়হান, তালা ::
উপজেলার ঘোষনগর গ্রামের দরিদ্র কৃষক রবীন হরির পান বরজে বর্বর হামলা চালিয়ে দূর্বৃত্তরা। হামলায় পান বরজ (পান ক্ষেত) নষ্ট হয়ে প্রায় ৬ লক্ষ টাকার ক্ষতিসাধন হয়েছে। জমি সংক্রান্ত বিরোধকে কেন্দ্র করে দূর্বৃত্তরা এই হামলা চালায় বলে অভিযোগ উঠেছে। দূর্বৃত্তরা পান বরজ ভেঙ্গে দেওয়ায় কৃষক রবীন হরির পরিবার অসহায় হয়ে পড়েছে।

রবীন হরি জানান, প্রায় ২৫ বছর আগে তিনি এলাকার বরেন্য বীর মুক্তিযোদ্ধা অমল কান্তি ঘোষ’র কাছ থেকে ১৯ শতক জমি হারি নিয়ে সেখানে পান বরজ করেন। ওই পানবরজ থেকে আয় করে তিনি সংসারের দারিদ্রতা দূর করেন এবং বর্তমানে ৫ সদস্যের সংসার চালাচ্ছিলেন।

তিনি বলেন, বিগত কয়েক মাস পূর্ব থেকে অমল কান্তি ঘোষ’র ভাই দুলাল কান্তি ঘোষ’র স্বামী পরিত্যক্তা মেয়ে মঞ্জুশ্রী ঘোষ ঝনু ওই জমি তাদের দাবী করে পান বরজ তছনছ করা সহ নানাবিধ হুমকি প্রদান করে। এঘটনায় তালা থানায় একটি জিডি (১৭৭, তাং ০৫/০৫/১৭) করা হয়। এনিয়ে তালা উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ঘোষ সনৎ কুমার, খলিলনগর ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান প্রণব ঘোষ বাবলু সহ বিশিষ্ট ব্যক্তিদের অংশগ্রহনে তালা থানায় একটি সালিশ সভা অনুষ্ঠিত হয়।

সালিশে উভয় পক্ষের কাগজপত্র পর্যালোচনা শেষে রায় জমি মালিক অমল কান্তি ঘোষ’র অনুকূলে হয় এবং উক্ত জমিতে রবীন হরি পানচাষ অব্যাহত রাখেন। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে চুরি সহ বিভিন্ন অপকর্মের সাথে জড়িত মঞ্জুশ্রী ঘোষ ঝনু বিভিন্ন সময় পান বরজ ভাংচুর, পান বরজ থেকে পান, কলা ও অন্যান্য ফসল চুরি করে। এতে বাঁধা দিলে মঞ্জুশ্রী নারী নির্যাতন মামলায় ফাঁসানো সহ বিভিন্ন হুমকি প্রদান করে। সর্বশেষ গত বুধবার দুপুরে মঞ্জুশ্রী সহ ৪ দূর্বৃত্ত পান বরজে হামলা চালিয়ে বরজ ভেঙ্গে তছনছ করে দেয়।

কৃষক রবীন হরি জানান, পান বরজ ভেঙ্গে দেয়ায় সব মিলিয়ে প্রায় ৬ লক্ষ টাকার ক্ষতি হয়েছে। এরফলে এনজিও ঋন পরিশোধ এবং সংসার চালানো অনিশ্চিত হয়ে যাওয়ায় গোটা পরিবারের সদস্যদের মাঝে হতাশা ও আতংক বিরাজ করছে। ঘটনার প্রতিকার পেতে রবীন হরি প্রশাসনের আশু হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।

এব্যাপারে জমি মালিক অমল কান্তি ঘোষ’র পুত্র অজয় কুমার ঘোষ জানান, তালার ঘোষনগর মৌজার ১৩৫ নং জে.এল’র ০১/০১/০২ বিএস খতিয়ানের ১২৬ দাগের ১৯ শতক ভোগ দখলীয় জমি তাঁর পিতার পৈত্রিক সূত্রে পাওয়া। ওই জমি দরিদ্র কৃষক রবীন হরিকে প্রায় ২৫ বছর আগে পান চাষের জন্য হারি হিসেবে দেয়া হয়। কিন্তু গত কয়েক মাস আগে চাচাতো বোন মঞ্জুশ্রী ঘোষ ওই জমি দখলের চেষ্টা চালাতে থাকে এবং সে সহ আরো ৩ দূর্বৃত্তকে দরিদ্র কৃষক রবীন হরির পান বরজটি ভেঙ্গে তছনছ করে দেয়।

স্থানীয় ইউপি সদস্য প্রকাশ কুমার দালাল জানান, বেপরোয়া মঞ্জুশ্রী ঘোষের বির”দ্ধে দুধ চুরি ও মুসলিম সম্প্রদায়কে নিয়ে অনৈতিক মন্তব্য করা সহ নানাবিধ অভিযোগ রয়েছে। এদিকে, পান বরজে হামলা চালানোর পরপরই মঞ্জুশ্রী গা ঢাকা দেয়ায়- ঘটনার বিষয়ে তার বক্তব্য নেয়া সম্ভব হয়নি।