তালায় দু’ পক্ষের সংঘর্ষে নারী ও পুরুষসহ ৭ জন আহত


317 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
তালায় দু’ পক্ষের সংঘর্ষে নারী ও পুরুষসহ ৭ জন আহত
অক্টোবর ২৭, ২০১৮ তালা ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

বি. এম. জুলফিকার রায়হান ::

শনিবার সকালে তালার নারায়নপুর গ্রামে জমিজমা সংক্রান্ত বিরোধে দু’পক্ষের সংঘর্ষ’র ঘটনা ঘটেছে। এতে নারী ও পুরুষ সহ উভয় পক্ষের ৭জন আহত হয়েছে। আহতদের মধ্যে পিতা ও পুত্র সহ ৩জনকে গুরুতর আহতাবস্থায় তালা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।
জানাগেছে, উপজেলার নারায়নপুর গ্রামের মৃত মতুল্য সরদারের ছেলে কাসেম আলী সরদার (৬০) এর সাথে তার বসত বাড়ীর ২৯শতাংশ জমির মধ্যে সাড়ে তিন শতক জমি নিয়ে ভাইপো রিয়াজ উদ্দীন সরদারের ছেলে গ্রাম পুলিশ উজ্জ্বল সরদারের সাথে দীর্ঘ বছর যাবৎ বিরোধ চলে আসছিল। এনিয়ে বিভিন্ন সময় স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান অধ্যাপক সুভাষ চন্দ্র সেন এর নেতৃত্বে ইউপি সদস্যগন ও থানা পুলিশ সালিস করে বিরোধ মিমাংশার পর্যায়ে নিয়ে আসেন।
এরই জের ধরে শনিবার ভোর ৬টার দিকে গ্রাম পুলিশ উজ্জ্বল জোরপূর্বক বিরোধপূর্ন জমিতে বাথরুম নির্মানের চেষ্টা করে। এসময় বাঁধা দিলে উজ্জ্বল’র নেতৃত্বে দূর্বৃত্তরা আবুল কাসেম (৫০) ও স্ত্রী কমলা বেগম (৪০) ও ছেলে সিদ্দিক সরদার (১৮)কে পিটিয়ে ও কুপিয়ে মারাত্বক আহত করে। আহতদের এদিন সকালে তালা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। আহতদের মধ্যে পিতা ও পুত্রের অবস্থা গুরুতর বলে কর্তব্যরত ডাক্তার জানিয়েছেন।
অপরদিকে একই ঘটনায় কাশেম গংদের হামলায় প্রতিপক্ষ গ্রাম পুলিশ উজ্জ্বল সরদার সহ তার স্ত্রী রেহেনা বেগম, চাচা ফয়জুদ্দীন সরদার ও তার স্ত্রী রাশিদা বেগম আহত হয়েছে। এই পক্ষের আহতদের মধ্যে উজ্জ্বল সরদারকে গুরুতর আহতাবস্থায় তালা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এব্যপারে উজ্জ্বল সরদার জানান, নিজ জমিতে বাথরুম নির্মান করার সময় প্রতিপক্ষ কাশেম গংরা হামলা করে। এঘটনায় কাশেম সরদার এর পক্ষে তালা থানায় মামলার দায়ের করার প্রস্তুতি নিচ্ছিল বলে জানাগেছে।

##