তালায় ভূমি কর্মকর্তার বিরুদ্ধে সরকারি গাছ আত্মসাতের অভিযোগ


476 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
তালায় ভূমি কর্মকর্তার বিরুদ্ধে সরকারি গাছ আত্মসাতের অভিযোগ
অক্টোবর ১০, ২০১৫ তালা ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

বি এম জুলফিকার রায়হান, তালা :
সাতক্ষীরার তালা উপজেলা সদর ইউনিয়ন ভূমি সহকারী কর্মকর্তা নাজমুল হাসান খান চৌধুরীর বিরুদ্ধে সরকারি গাছ কেটে আত্মসাতের অভিযোগ উঠেছে। সহকারী ইউনিয়ন ভূমি কর্মকর্তা আব্দুল বারীর সার্বিক সহযোগীতায় প্রায় ৩০ হাজার টাকা মূল্যের দুটি শিশু গাছ কেটে বিক্রয় করা হয়েছে বলে অভিযোগে জানাগেছে।
সূত্রে জানাগেছে, তালার শহীদ মুক্তিযোদ্ধা মহাবিদ্যালয় এলাকা থেকে তালা-পাটকেলঘাটা সড়কের পাশ থেকে প্রায় ৩০ হাজার টাকা মূল্যের বড় দুটি শিশু গাছ কাটা হয়। তালা সদর ইউনিয়ন ভূমি অফিসের ভূমি সহকারী কর্মকর্তা (নায়েব) নাজমুল হাসান খান চৌধুরী ও তাঁর সহকারী ইউনিয়ন ভূমি কর্মকর্তা আব্দুল বারী পরস্পর যোগসাজসে গাছ দুটি কাটেন। পরবির্ততে তালা মেলা বাজারের কাঠ ব্যবসায়ী নাজিম উদ্দীনের নিকট উক্ত গাছ দুটি বিক্রয় করা হয়।

রাস্তার উপর থেকে গাছ দুটি কেটে ভ্যানযোগে আব্দুল বারী মেলা বাজারের একটি স মিলে নিয়ে যায়। এখান থেকে গাছ দুটি কাঠ ব্যবসায়ী নাজিম উদ্দীনের নিকট ৩০ হাজার টাকা বিক্রি করা হয়।

এবিষয়ে জানতে চাইলে, তালা সদর ইউনিয়ন ভূমি সহকারী কর্মকর্তা নাজমুল হাসান খান চৌধুরী গাছ কাটার বিষয় স্বীকার করে বলেন, উক্ত গাছ কাটার বিষয় উপজেলা নির্বাহী অফিসারকে জানানো হয়েছে এবং উক্ত গাছের কাঠ দিয়ে অফিসের জন্য আসবাবপত্র তৈরি করা হবে।

সহকারী নায়েব আব্দুল বারী গাছ কাটার সাথে জড়িত থাকার বিষয় অস্বীকার করেছেন। কাঠ ব্যবসায়ী নাজিম উদ্দীন সরকারি গাছ কেটে নায়েব অফিসে ফার্নিচার তৈরির কথা স্বীকার করলেও, নিজে গাছ ক্রয় করার কথা অস্বীকার করেছেন।

উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষের অনুমতি না নিয়ে অবৈধভাবে সরকারি গাছ কাটার বিষয়টি জানতে চাইলে তালা উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. মাহবুবুর রহমান ভয়েস অব সাতক্ষীরা ডটকমকে জানান, গাছ কেটে বিক্রি করার বিষয়টি আমার জানানেই। এছাড়া, সরকারি গাছ কেটে এভাবে অফিসের ফার্নিচার করারও কোনও নিয়ম নেই।  তদন্ত করে পরবর্তি ব্যবস্থা নেয়া হবে।