দিল্লিতে সংঘর্ষের পর ভারতজুড়ে শিক্ষার্থীদের বিক্ষোভ


136 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
দিল্লিতে সংঘর্ষের পর ভারতজুড়ে শিক্ষার্থীদের বিক্ষোভ
ডিসেম্বর ১৬, ২০১৯ প্রবাস ভাবনা ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

অনলাইন ডেস্ক ::

ভারতে বিতর্কিত নাগরিকত্ব সংশোধনী বিলের প্রতিবাদ চলাকালে রোববার দিল্লির জামিয়া মিলিয়া ইসলামিয়া বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে ঢুকে শিক্ষার্থীদের মারধর করে পুলিশ। এর প্রতিবাদে ভারতজুড়ে বিশ্ববিদ্যালয়গুলোতে বিক্ষোভ ছড়িয়ে পড়েছে।

রোববার রাতে উত্তর প্রদেশের আলিগড় মুসলিম বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্ররা জামিয়া মিলিয়ার শিক্ষার্থীদের প্রতি সংহতি জানিয়ে মিছিল বের করে। পুলিশ মিছিলে বাধা দিলে শিক্ষার্থীদের সঙ্গে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। খবর এনডিটিভির

এ দিকে হায়দরাবাদের মওলানা আজাদ উর্দু বিশ্ববিদ্যালয় এবং বেনারস হিন্দু বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরাও প্রতিবাদে বিক্ষোভ বের করে। জওহরলাল নেহেরু বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের আহ্বানে দিল্লির পুলিশ সদর দফতরের বাইরে কয়েকশ মানুষের জমায়েত হয়।

রোববার সন্ধ্যায় জামিয়া মিলিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষার্থীদের একটি প্রতিবাদ মিছিল দিল্লির যন্তরমন্তরের দিকে যাওয়ার চেষ্টাকালে পুলিশ বাধা দেয়। এরপর পুলিশের সঙ্গে শিক্ষার্থীদের সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। বেশ কয়েকজন শিক্ষার্থী ও পুলিশ সদস্য আহত হন।

বিক্ষোভকারীদের বিরুদ্ধে অভিযোগ, তারা ভাঙচুর চালায় ও যানবাহন জ্বালিয়ে দেয়। সেই সময়েই পুলিশ এলে তাদের সঙ্গেও সংঘর্ষ বাধে শিক্ষার্থীদের।

লাঠিচার্জ করে ও কাঁদুনে গ্যাস ব্যবহার করে পুলিশ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনার চেষ্টা করে এবং বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রবেশ করে প্রায় ১০০ জন শিক্ষার্থীকে আটক করে। যদিও পরে আটক করা সব শিক্ষার্থীকেই ভোরে ছেড়ে দেওয়া হয়।

নাগরিকত্ব আইনের বিরুদ্ধে দিল্লি, আসাম, মেঘালয়, ত্রিপুরা ও পশ্চিমবঙ্গ সহ ভারতের বিভিন্ন জায়গায় চলছে প্রতিবাদ ও বিক্ষোভ। ওই আইনের ফলে পাকিস্তান, আফগানিস্তান এবং বাংলাদেশ থেকে ভারতে বসবাসরত ধর্মীয় সংখ্যালঘুদের নাগরিকত্ব লাভে সুবিধা হবে। এই আইনের বিরুদ্ধে প্রথমে আসামে বিক্ষোভ হয়। এরপর তা আস্তে আস্তে সারা দেশে ছড়িয়ে পড়ছে।