দু’হাত কেটে ফেলে গেল বিলে


123 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
দু’হাত কেটে ফেলে গেল বিলে
অক্টোবর ১০, ২০২০ জাতীয় ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

অনলাইন ডেস্ক ::

সিলেটের গোলাপগঞ্জে পূর্ব শত্রুতার জের ধরে আব্দুল বশির (৫০) নামের এক ব্যক্তিকে দু’হাত কেটে বিলে ফেলে রেখে গেছে প্রতিপক্ষরা। শুক্রবার দুপুরে উপজেলার উত্তর বাদেপাশা ইউপির বাগলা মিরের চক গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। গুরুতর আহত আব্দুল বশির বাগলা মিরের চক গ্রামের বাসিন্দা।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, শুক্রবার জুমার নামাজ পড়তে মিরের চক জামে মসজিদে যাওয়ার জন্য বাড়ি থেকে বের হন বশির। পথে একটি ঝোঁপের মধ্যে লুকিয়ে থাকা স্থানীয় রহিম ও তার ৪/৫ সহযোগী ধারালো অস্ত্র দিয়ে তার ওপর হামলা চালায়। এ সময় ধারালো অস্ত্রের কোপে তার একটি হাত শরীর থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে যায় এবং অপর হাত শরীরের সঙ্গে ঝুলতে থাকে। ধারালো অস্ত্রের কোপে তার পায়েও মারাত্মক জখম হয়েছে। ধারণা করা হচ্ছে, মৃত্যু নিশ্চিত ভেবে হামলাকারীরা তাকে পার্শ্ববর্তী একটি বিলে ফেলে যায়। জুমার নামাজে শেষে ফেরা মুসল্লিরা গুরুতর আহত অবস্থায় তাকে দেখতে পেয়ে চিকিৎসার জন্য দ্রুত সিলেটে পাঠায়। বর্তমানে তিনি সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছেন। তার অবস্থা আশঙ্কাজনক বলে জানিয়েছে চিকিৎসকরা।

এ ব্যাপারে বাদেপাশা ইউপি চেয়ারম্যান মোস্তাক আহমদ বলেন, দীর্ঘদিন থেকে ওই দুইপক্ষের মধ্যে বিরোধ চলে আসছিল। হামলাকারীদের আইনের আওতায় এনে শাস্তির দাবি জানান তিনি।

গোলাপগঞ্জ মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ মোহাম্মদ হারুনুর রশিদ চৌধুরী বলেন, খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। হামলাকারীদের গ্রেপ্তারে পুলিশ মাঠে তৎপর রয়েছে। মামলার প্রস্তুতি চলছে।