দেবহাটার সখিপুর ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রের বিষয়ে বিবৃতি


370 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
দেবহাটার সখিপুর ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রের বিষয়ে বিবৃতি
জুন ১১, ২০২১ দেবহাটা ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

দেবহাটা প্রতিনিধি ::

দেবহাটার সখিপুর ইউপি চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক শেখ ফারুক হোসেন রতনের বিরুদ্ধে ইউপি সদস্য নির্মল কুমার মন্ডল কর্তৃক ষড়যন্ত্রের বিষয়ে ইউপি চেয়ারম্যান শেখ ফারুক হোসেন রতন লিখিত বিবৃতি প্রদান করেছেন। সখিপুর ইউনিয়ন পরিষদের প্যাডে লিখিত বিবৃতিতে ইউপি চেয়ারম্যান ফারুক হোসেন রতন বলেছেন, তিনি শেখ ফারুক হোসেন রতন, ইউপি চেয়ারম্যান, ৩নং সখিপুর ইউনিয়ন পরিষদ ও সাংগঠনিক সম্পাদক, দেবহাটা উপজেলা আওয়ামীলীগ। তিনি দীর্ঘদিন সখিপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান হিসেবে সুনামের সাথে দায়িত্ব পালন করছেন এবং সাথে সাথে উপজেলা প্রশাসনের নির্দেশনা মোতাবেক সরকারের উন্নয়ন কর্মকান্ড ত্বারান্বিত করাসহ বর্র্তমানে মহামারি করোনা পরিস্থিতি মোকাবেলায় মানুষকে সচেতন করা ও লকডাউন বাস্তবায়নে নিরলসভাবে কাজ করে চলেছেন। অত্র ইউনিয়ন পরিষদের ৬নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য নির্মল কুমার মন্ডল গত কয়েকমাস যাবৎ তার (চেয়ারম্যানের) নাম ব্যবহার করে বিভিন্ন দোকানদার ও সাধারন মানুষের নিকট থেকে অবৈধ সুবিধা আদায় করাসহ বিভিন্নরকম দূর্নীতি ও অনিয়ম করে আসছে। বর্তমানে লকডাউন বাস্তবায়নেও নির্মল কুমার মন্ডল ঈদগাহ বাজারসহ বিভিন্ন দোকানদারদের নিকট ভয়ভীতি দেখিয়ে তাদের থেকে অবৈধ সুবিধা আদায়ের চেষ্টা করলে জনগন তার (চেয়ারম্যানের) নিকট অভিযোগ করে। তিনি উক্ত অভিযোগের ভিত্তিতে নির্মল কুমার মন্ডলকে সতর্ক করেন এবং উপজেলা নির্বাহী অফিসারকে বিষয়টি অবহিত করেন। কিন্তু এরপরেও নির্মল কুমার মন্ডল তার অবৈধ কর্মকান্ড বন্ধ না করলে গত ১০/০৬/২০২১ তাং ইং বৃহস্পতিবার ঈদগাহ বাজারে স্থানীয় দোকানদারেরা সম্মিলিতভাবে তার (চেয়ারম্যানের) সম্মুখে ইউপি সদস্য নির্মল কুমার মন্ডলকে প্রতিহত করার চেষ্টা করে। এসময় তাদের মধ্যে উত্তপ্ত বাকবিতন্ডাও হয়। তিনি (চেয়ারম্যান) তাৎক্ষনিক বিষয়টি উপজেলা নির্বাহী অফিসারকে অবহিত করি। উল্লেখ্য যে, করোনা মোকাবেলার মিটিংসহ বিভিন্ন সময় ইউনিয়ন পরিষদের উন্নয়ন সমন্বয় সভায় নির্মল কুমার মন্ডল অনুপস্থিত থাকে। এবিষয়ে অবিলম্বে ইউনিয়ন পরিষদে জরুরী সভা ডেকে সকল ইউপি সদস্য ও সদস্যাদের মতামতের ভিত্তিতে পরবর্তী আইনগত ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে বলে লিখিত বিবৃতিতে ইউপি চেয়ারম্যান ফারুক হোসেন রতন জানিয়েছেন।

#