দেবহাটায় ইউএনও’র হস্তক্ষেপে বন্ধ হল বাল্য বিয়ে


611 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
দেবহাটায় ইউএনও’র হস্তক্ষেপে বন্ধ হল বাল্য বিয়ে
এপ্রিল ১০, ২০২০ দেবহাটা ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

আর.কে.বাপ্পা, দেবহাটা ॥
দেবহাটায় ইউএনওর হস্তক্ষেপে বাল্য বিয়ে থেকে রক্ষা পেল ৯ম শ্রেনীর ছাত্রী রুপা। রুপা পারুলিয়া বালিকা বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী। শুক্রবার বাদ জুম্মা রুপার বিয়ে ঠিক করেছিল তার পরিবার। বিষয়টি নজরে আসে দেবহাটা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সাজিয়া আফরীনের। তিনি তাৎক্ষনিক হাজির হন পারুলিয়া বাসস্টান্ড সংলগ্ন রুপার পিতা ও মৌজে আলীর ছেলে বিল্লাল হোসেনের বাড়িতে। রনে ভঙ্গ হয় রুপার বিয়ের আয়োজন।

দেবহাটা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সাজিয়া আফরীন উপস্থিত হওয়ার সাথে সাথে স্থানীয়রা ভিড় জমান সেখানে। এসময় বিয়ের ছেলে পক্ষে সাতক্ষীরা সদরের নুর আলীর ছেলে বর পক্ষের চাচা রফিকুল ইসলাম সেখানে ছিলেন। ইউএনওর সাজিয়া আফরীন এসময় মেয়ের পিতা বিল্লাল হোসেনকে ১০ হাজার টাকা ও ছেলের চাচা রফিকুল ইসলামকে ৭ হাজার টাকা জরিমানা করেন।

ইউএনও জানান, এই দূর্যোগ কালীন সময়ে এধরনের আয়োজন খুবই দুঃখজনক। বাল্য বিবাহ নিরোধ আইন ২০০৭ এর আওতায় উভয় পক্ষকে জরিমানা করা হয়েছে বলে ইউএনও জানিয়েছেন। তিনি সকলকে করোনায় আতর্কিত না হয়ে সচেতনতার সাথে এই দূর্যোগ মোকাবিলা করার আহবান জানান।