নলতা আল-হেরা মাদ্রাসায় করোনার মধ্যেও বেতন আদায়ের নোটিশ


413 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
নলতা আল-হেরা মাদ্রাসায় করোনার মধ্যেও বেতন আদায়ের নোটিশ
মে ৪, ২০২০ কালিগঞ্জ ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

নলতা প্রতিনিধি ::

দেশ ও বিশ্ব করোনার মত মহামারিতে আক্রান্ত। নিন্মবিত্ত থেকে উচ্চবিত্ত পর্যন্ত প্রতিটি মানুষ প্রায় গৃহবন্দী ও বিপদগ্রস্থ। গত মার্চ থেকে চলছে দেশে লক ডাউন। সরকার আগামী সেপ্টেম্বর পর্যন্ত সকল ধরনের শিক্ষা প্রতিষ্ঠান সাধারণ ছুটি ঘোষনা করেছে।
কিন্তু, কালিগঞ্জের পূর্ব নলতার আল-হেরা প্রি-ক্যাডেট মাদরাসা মানুষের মহা বিপদকে তোয়াক্কা না করে এবং সরকারের নির্দেশনাকে অমান্য করে প্লে-গ্রুপ থেকে ৫ম শ্রেণী পর্যন্ত সকল শিশু শিক্ষার্থীদের বাড়ী বাড়ী পাঠাচ্ছে বেতন আদায়ের নোটিশ। প্রতি মাসে এ চিঠি পাঠানো ও বেতন আদায় অব্যহত রেখেছে এই মাদ্রাসা কর্তৃপক্ষ। যেখানে আরো কতগুলো বে-সরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান থাকলেও তাদেরকে এই অমানবিক কার্যক্রম করতে দেখা যায়নি। মার্চ থেকে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ ঘোষনা হলেও এপ্রিল মাসেরও বেতন আদায়ের জন্য অমানবিকভাবে সকল অভিভাবককে দেওয়া হয়েছে বেতন পরিষোধের নোটিশ। যেখানে বেতনের হারও বেশ চড়া। স্কুল বন্ধ অথচ জনপ্রতি ৪শ থেকে সাড়ে ৪শ টাকা করে কষা হয়েছে ভ্যান ভাড়ার বিল। এমনকি প্রতিষ্ঠান বন্ধের সময়ও প্রতিটি শিশুকে ধরা হয়েছে চড়া হারে মাসিক বিদুৎ বিল। এসব কর্মকান্ডকে আবার ছহি করতে বেতনের নোটিশের সাথে দেওয়া হয়েছে অন্য কিছু ব্রেইন ওয়াশ করা কাগজপত্র। এমন নিরব দুর্নীতি করে মাদ্রাসার প্রায় ৪ শতাধিক ছাত্রছাত্রীর নিকট থেকে লক্ষ লক্ষ টাকা হাতিয়ে নিচ্ছে কেজি মাদ্রাসার অধ্যক্ষসহ কর্তৃপক্ষ।
সহিংসতা মামলার আসামী মাদ্রাসার অধ্যক্ষ মনিরুল ইসলামের স্বাক্ষরিত এসব বেতনের নোটিশ পেয়ে অনেক বিপদগ্রস্থ অভিভাবক ক্ষুব্ধ হয়েছে। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক বর্তমান পরিস্থিতিতে এসব বিপদগ্রস্থ ও ক্ষুব্ধ অভিভাবক এবং এলাকার সচেতন মহল প্রশাসন ও উর্দ্ধর্তন কর্তৃপক্ষের হস্তক্ষেপ কামনা করেছে বলে জানা গেছে।

#