পঞ্চগড়ে বাস-ট্রাকের সংঘর্ষে প্রাণ গেল ১০ জনের


236 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
পঞ্চগড়ে বাস-ট্রাকের সংঘর্ষে প্রাণ গেল ১০ জনের
অক্টোবর ২৭, ২০১৮ জাতীয় ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

অনলািইন ডেস্ক ::

পঞ্চগড়ে যাত্রীবাহী বাস ও ট্রাকের মুখোমুখি সংঘর্ষে ১০ জন প্রাণ হারিয়েছেন। এ ছাড়া আহত হয়েছেন আরও ২০ জন। শুক্রবার রাত পৌনে ৮টার দিকে তেঁতুলিয়া-ঢাকা মহাসড়কের দশমাইল এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, রাতে পঞ্চগড় থেকে একটি যাত্রীবাহী মিনিবাস তেঁতুলিয়া যাচ্ছিল। এ সময় ভজনপুর থেকে আসা বিদ্যুতের খুঁটিবাহী একটি ট্রাকের সঙ্গে বাসটির মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। পঞ্চগড় এবং তেঁতুলিয়া ফায়ার স্টেশনের দুটি ইউনিট, পুলিশসহ স্থানীয় লোকজন হতাহতদের উদ্ধার করে পঞ্চগড় সদর হাসপাতালে নিয়ে যান।

পঞ্চগড় পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, তেঁতুলিয়া-ঢাকা মহাসড়কের দশমাইল বাজারে ট্রাকটির বাম পাশে একটি বিয়ের বরযাত্রীবাহী বাস দাঁড় করানো ছিল। বিদ্যুতের খুঁটিবাহী ট্রাকটি বাসটিকে পাশ কাটতে চাইলে সামনে থেকে আসা যাত্রীবাহী বাসের সঙ্গে মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এতে ঘটনাস্থলেই পাঁচজন নিহত এবং হাসপাতালে নেওয়ার পর এক শিশু, এক নারীসহ আরও পাঁচজন মারা যান।

নিহতরা হলেন- রেজাউল ইসলাম (২২), ফরিদ হোসেন (২৮), অনিত্য (২০), রাসেল (২৭), লায়লা আক্তার (২৫), ইউনুস আলী (২০), মোজাম্মেল হক (৩৮), মনির হোসেন (১০), সদর উপজেলার জোত হাসনা এলাকার সাইদুল ইসলামের স্ত্রী লাভলী আক্তার (২৯) এবং তার সাত বছর বয়সী ছেলে ইয়াসিন।

এ ঘটনায় জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট এহেতেশাম রেজাকে প্রধান করে ৫ সদস্যের তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে। তদন্ত কমিটিকে ৩ দিনের মধ্যে প্রতিবেদন দিতে বলা হয়েছে।

খবর পেয়ে জেলা প্রশাসক সাবিনা ইয়াসমিন হাসপাতালে হতাহতদের বিষয়ে খোঁজখবর নেন। তিনি নিহত প্রত্যেকের পরিবারকে ২০ হাজার করে মোট দুই লাখ টাকা প্রদান করেন। দুর্ঘটনার পর মিনিবাস এবং ট্রাকের চালক পালিয়ে যায়। পুলিশ বাস এবং ট্রাক জব্দ করেছে।