পরমাণু সমঝোতা পুনরুজ্জীবনের সংলাপ নিয়ে হতাশ হওয়ার কিছু নেই : রাশিয়া


129 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
পরমাণু সমঝোতা পুনরুজ্জীবনের সংলাপ নিয়ে হতাশ হওয়ার কিছু নেই : রাশিয়া
জুলাই ১৫, ২০২১ প্রবাস ভাবনা ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

অনলাইন ডেস্ক ::

রাশিয়া বলেছে, পাশ্চাত্যের সঙ্গে ইরানের স্বাক্ষরিত পরমাণু সমঝোতা পুনরুজ্জীবনের যে সংলাপ চলছে তা সহজ নয়; কিন্তু তা সত্ত্বেও অস্ট্রিয়ার রাজধানী ভিয়েনায় চলমান এই সংলাপ নিয়ে হতাশ হওয়ার মতো পরিস্থিতি তৈরি হয়নি।

ভিয়েনা সংলাপে রুশ প্রতিনিধিদলের প্রধান মিখাইল উলিয়ানোভ পরমাণু সমঝোতা স্বাক্ষরের ষষ্ঠ বার্ষিকী উপলক্ষে এ মন্তব্য করেন। ২০১৫ সালের ১৫ জুলাই জাতিসংঘের পাঁচ স্থায়ী সদস্যদেশ ও জার্মানিকে নিয়ে গঠিত ছয় জাতিগোষ্ঠীর সঙ্গে এই সমঝোতা সই করেছিল ইরান।
উলিয়ানোভ বলেন, পরমাণু সমঝোতাকে আগের অবস্থায় ফিরিয়ে নেওয়ার সংলাপের ব্যাপারে হতাশ হওয়ার সময় এখনো আসেনি এবং এ ব্যাপারে অতিরিক্ত আশাবাদী হওয়াও উচিত হবে না।

গত এপ্রিলে ব্রিটেন, ফ্রান্স, জার্মানি, রাশিয়া ও চীনের সঙ্গে সরাসরি ভিয়েনা সংলাপে বসে ইরান। এ পর্যন্ত এই সংলাপের ছয় দফা আলোচনা অনুষ্ঠিত হয়েছে। আমেরিকা এই সংলাপে সরাসরি অংশগ্রহণ না করলেও আলোচনার সময় ভিয়েনায় একটি মার্কিন প্রতিনিধিদল উপস্থিত থাকছে এবং তারা পরোক্ষভাবে আলোচনায় অংশ নিচ্ছে।

ষষ্ঠ দফা আলোচনা শেষ হওয়ার পর ২১ দিন পেরিয়ে গেলেও সপ্তম দফা আলোচনার তারিখ এখনও নির্ধারিত হয়নি।

ইরানের ওপর থেকে মার্কিন নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহারের মাধ্যমে দেশটির এই সমঝোতায় প্রত্যাবর্তন এবং ইরানের পক্ষ থেকে তার প্রতিশ্রুতি পুরোপুরি বাস্তবায়ন করা হচ্ছে ভিয়েনা সংলাপের মূল লক্ষ্য।

মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন তার দেশকে এই সমঝোতায় ফিরিয়ে আনার আগ্রহ প্রকাশ করলেও তিনি ইরানকে আগে তার প্রতিশ্রুতিতে পুরোপুরি ফিরে যাওয়ার আহ্বান জানাচ্ছেন। কিন্তু ইরান বলেছে, আমেরিকা আগে এই সমঝোতা থেকে বেরিয়ে গেছে বলে তাকে আগে নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করে এতে ফিরে আসতে হবে। ইরান ও আমেরিকার মধ্যকার মতপার্থক্যের এই জায়গাটি নিয়ে মূলত ভিয়েনায় ধারাবাহিক সংলাপ চলছে।