পাইকগাছা সংবাদ ॥ পুলিশের পৃথক অভিযানে চেয়ারম্যান পুত্রসহ ৩ জন আটক


246 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
পাইকগাছা সংবাদ ॥ পুলিশের পৃথক অভিযানে চেয়ারম্যান পুত্রসহ ৩ জন আটক
নভেম্বর ৯, ২০১৫ খুলনা বিভাগ ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

পাইকগাছা (খুলনা) প্রতিনিধি :
পাইকগাছায় হত্যা, নাশকতা, চুরি-ছিনতাইসহ একাধিক মামলার আসামী জবেদ আলী ও চাঁদাবাজির অভিযোগে চেয়ারম্যান পুত্রসহ দু’যুবক কে আটক করা হয়েছে। আটক আসামীদের মধ্যে   পালানোর সময় পড়ে গিয়ে আসামী জবেদ গুরুতর আহত হয়েছে। থানা পুলিশ পৃথক অভিযান চালিয়ে ৩ আসামীকে আটক করে।

রোববার রাত ১১টার দিকে উপজেলার গদাইপুর গ্রামের দাউদ আলী গাজীর ছেলে ও ২৩৭/১১ নং ছিনতাই সংক্রান্ত  মামলার ওয়ারেন্ট ভূক্ত আসামী জবেদ আলী গাজী (৩৫) গদাইপুর বাজারের শফির চায়ের দোকানে অবস্থান করছিল। এ খবর জানতে পেরে থানার এসআই রোকনুজ্জামান, এসআই মাসুম সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে ঘটনাস্থলে উপস্থিত হলে পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে দৌড়ে পালানো সময় পিচে রাস্তার উপর পড়ে গিয়ে আসামী জবেদ আলী গুরুতর আহত হয়। পরে পুলিশ তাকে আটক করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে। অপরদিকে একই দিন সকাল ১১ টার দিকে উপজেলা মধ্যলতা গ্রামের বিষ্ণপদ রায়ের নিকট থেকে চাঁদা গ্রহণের অভিযোগে এসআই জহুরুল ইসলাম অভিযান চালিয়ে গদাইপুর ইউপি চেয়ারম্যান কাজী আব্দুস সালাম বাচ্চুর ছেলে কাজী সাব্বির হোসেন (৩৫) ও ভিলেজ পাইকগাছা গ্রামের মোক্তার সরদারের ছেলে হায়দার সরদার (৩৫)কে আটক করে।

এ ঘটনায় বিষ্ণপদ রায়ের ছেলে কালাচাঁদ রায় বাদি হয়ে আটককৃতদের বিরুদ্ধে চাঁদাবাজি মামলা করেছে। যার নং- ০৩। এ ব্যাপারে ওসি আশরাফ হোসেন জানান, আটক জবেদ একটি মামলার  ওয়ারেন্ট ভূক্ত আসামী। তার বিরুদ্ধে থানায় চৌকিদার হত্যাসহ একাধিক মামলা রয়েছে। আদালতে দুই স্ত্রীর দায়ের করা পৃথক দুটি মামলা রয়েছে বর্তমানে সে পুলিশের হেফাজতে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে। ০৮(০২)১৫ নং নাশকতা মামলায় তাকে আদালতে পাঠানো হতে পারে বলে  পুলিশের এ কর্মকর্তা জানান।
##
পাইকগাছায় বিদ্যুৎস্পৃষ্টে নির্মান শ্রমিকের মৃত্যু
পাইকগাছা (খুলনা) প্রতিনিধি ॥ পাইকগাছায় বিদ্যুৎস্পৃষ্টে স্বপন কুমার নামে এক নির্মান শ্রমিকের করুণ মৃত্যু হয়েছে। সোমবার দুপুরে কপিলমুনি বাজারে ৩ তলা ভবনে ছাদের উপর কাজ করার সময় এ দূর্ঘটনা ঘটে।

এলাকাবাসী সুত্রে জানা গেছে, ঘটনার দিন সোমবার সকালে স্মৃতি টেইলর্স এর স্বত্ত্বাধিকারী আমির সরদারের কপিলমুনি বাজারস্থ ব্যবসায়ী প্রতিষ্ঠানের ছাদের উপর নির্মাণ কাজ করার সময় হরিঢালী ইউনিয়নের হরিদাশকাটি গ্রামের রাজমিস্ত্রী স্বপন কুমার দাশ (৫০) হঠাৎকরে বৈদ্যুতিক তারে স্পৃষ্ট হয়ে ৩ তলার ছাদ থেকে নিচে ছিটকে পড়ে যায়।

পরে তাকে প্রথমে কপিলমুনি হাসপাতাল এবং বর্তীতে উন্নত চিকিৎসার জন্য খুমেক হাসপাতালে প্রেরণ করা হলে সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় বেলা ১২টার দিকে তার মৃত্যু হয় বলে থানার ওসি আশরাফ হোসেন নিশ্চিত করেছেন।