পাইকগাছা সংবাদ ॥ পৌরসভার ওয়াশ পরিস্থিতি নিয়ে আলোচনা সভা


79 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
পাইকগাছা সংবাদ ॥ পৌরসভার ওয়াশ পরিস্থিতি নিয়ে আলোচনা সভা
সেপ্টেম্বর ২২, ২০২২ খুলনা বিভাগ ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

এস, এম, আলাউদ্দিন সোহাগ ::

পাইকগাছা পৌরসভার ওয়াশ পরিস্থিতি নিয়ে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। বুধবার দুপুরে পৌর ভবনে ওয়াটার এইড বাংলাদেশ এর সহযোগিতায় পৌরসভা ও নবলোক যৌথ ভাবে এ আলোচনা সভার আয়োজন করে। মেয়র সেলিম জাহাঙ্গীর এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন, ওয়াটার এইড বাংলাদেশ এর কান্ট্রি ডিরেক্টর হাসিন জাহান। বিশেষ অতিথি ছিলেন, নবলোকের নির্বাহী পরিচালক কাজী রাজীব ইকবাল, ওয়াটার এইড বাংলাদেশ এর ডিরেক্টর প্রোগ্রাম হোসাইন আদিব, কনসালট্যান্ট ইমরুল কায়েস, এ্যাডভোকেসী স্পেশালিস্ট রঞ্জন কুমার ঘোষ, প্রোগ্রাম ম্যানেজার বাবুল বালা, স্পেশালিস্ট আরবান স্যানিটেশন কেএ আমিন, বিজিনেস ডেভেলপমেন্ট লিওনারা অধিকারী এবং নবলোকের সহকারী পরিচালক প্রোগ্রাম এম মোস্তাফিজুর রহমান সেতু। উপস্থিত ছিলেন, পৌর নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ লালু সরদার, কাউন্সিলর আলাউদ্দীন গাজী, অহেদ আলী গাজী, আব্দুল গফফার মোড়ল, এসএম তৈয়েবুর রহমান, রবি শংকর মন্ডল, কামাল আহমেদ সেলিম নেওয়াজ, শেখ মাহবুবর রহমান রনজু, ইমরান সরদার, এসএম ইমদাদুল হক, কবিতা দাশ, রাফেজা খানম, নির্বাহী প্রকৌশলী নূর আহম্মদ, নবলোকের উপজেলা ব্যবস্থাপক মাসুম বিল্লাহ। সভায় পৌরসভার পানি, স্যানিটেশন এবং হাইজিনের ক্ষেত্রে কি অগ্রগতি সাধিত হয়েছে এবং কোথায় এখনও সীমাবদ্ধতা আছে তা নিয়ে আলোচনা করা হয় এবং সার্বজনীন ওয়াশ নিশ্চিত করার ক্ষেত্রে সবাই একযোগে কাজ করার বিষয়ে গুরুত্ব প্রদান করা হয়।

#

পাইকগাছায় এসএসসি’র ৩ পরীক্ষার্থী বহিষ্কার

এস, এম, আলাউদ্দিন সোহাগ ::

পাইকগাছায় এসএসসি’র ভোকেশনাল পরীক্ষায় ৩ পরীক্ষার্থীকে বহিষ্কার করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার সকাল ১১ টায় উপজেলার কেডি শাহপাড়া মাধ্যমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে ভোকেশনাল পরীক্ষার গণিত বিষয়ে পরীক্ষা শুরু হয়। পরীক্ষা শুরুর পর কেন্দ্র পরিদর্শন যান সহকারী কমিশনার ভূমি এম আব্দুল্লাহ ইবনে মাসুদ আহমেদ। পরীক্ষা শুরুর ১ ঘন্টার মধ্যে অসৎ উপায় অবলম্বন করার অভিযোগে এসিল্যান্ড ৩ পরীক্ষার্থীকে বহিষ্কার করেন। বহিষ্কৃতরা হলেন, জাহেরুল ইসলাম, কর্ণ সরদার ও ইমরান হোসেন। এ সময় কেন্দ্রের দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ও একাডেমিক সুপার ভাইজার মীর নূরে আলম সিদ্দিকী উপস্থিত ছিলেন।

#

দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা দপ্তরের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের পূর্ণ দিবস কর্মবিরতি পালন

এস, এম, আলাউদ্দিন সোহাগ ::

এবার পূর্ণ দিবস কর্মবিরতি পালন করলেন পাইকগাছা উপজেলা দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা দপ্তরের কর্মকর্তা-কর্মচারীবৃন্দ। ৫ দফা ন্যায্য দাবী আদায়ের লক্ষে কেন্দ্রীয় কর্মসূচীর অংশ হিসেবে দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা আইন-২০১২ এর আলোকে প্রস্তাবিত জনবল কাঠামো ও নিয়োগ বিধিবাস্তবায়ন, জেলা ত্রাণ ও পুনর্বাসন কর্মকর্তা পদ আপগ্রেডেশন, উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা পদ আপগ্রেডেশন, সচিবলায়ের ন্যায় দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা অধিদপ্তরের কর্মচারীদের পদনাম পরিবর্তন ও দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা অধিদপ্তরের সকল শূন্যপদ পদোন্নতি/চলতি দায়িত্ব/নিয়োগের মাধ্যমে পূরণ সহ বিভিন্ন দাবী আদায়ের লক্ষে কর্মকর্তা-কর্মচারীরা বৃহস্পতিবার সকাল ৮টা থেকে বিকাল ৩টা পর্যন্ত পূর্ণ দিবস কর্মবিরতি পালন করে। একই দাবীতে এর আগে ১২ সেপ্টেম্বর থেকে ১৫ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত অর্ধদিবস কর্মবিরতি পালন করে অত্র দপ্তরের কর্মকর্তা-কর্মচারীরা। পূর্ণ দিবস কর্মবিরতি পালন কালে উপস্থিত ছিলেন, উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা ইমরুল কায়েস, উপ-সহকারী প্রকৌশলী মুজিব কেল্লা আব্দুল আজিজ, উপ-সহকারী প্রকৌশলী সাইফুর রহমান, মারুফ হোসেন, সবুর খান, সুমন আল-মামুন ও সুজয় মিস্ত্রী। কর্মসূচি প্রসঙ্গে উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা ইমরুল কায়েস বলেন, যুদ্ধবিধ্বস্ত দুর্যোগ প্রবণ দেশের কোটি মানুষের পুনর্বাসন, গ্রামীন অবকাঠামো ও যোগাযোগ ব্যবস্থার উন্নয়ন এবং পুনর্গঠনের লক্ষ্যে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ১৯৭২ সালে ত্রাণ ও পুনর্বাসন মন্ত্রণালয় গঠন করেন। এ মন্ত্রণালয়ের অধীন দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা অধিদপ্তর এর জেলা এবং উপজেলা পর্যায়ের কর্মকর্তা যথাক্রমে জেলা ত্রাণ ও পুনর্বাসন কর্মকর্তা ও উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা সহ দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা অধিদপ্তরের সর্বস্থরের কর্মকর্তা কর্মচারী তাদের কর্মদক্ষতা, কর্তব্যনিষ্ঠা ও নিরলস পরিশ্রম এর মাধ্যমে দেশের জনসাধারণের দুর্যোগজনিত ঝুঁকিহ্রাস, দারিদ্রবিমোচন, সামর্থ্য বৃদ্ধি, দুর্যোগের নেতিবাচক প্রভাব থেকে দরিদ্র ও সুবিধাবঞ্চিত মানুষের বিপদাপন্নতা হ্রাস, যে কোন দুর্যোগে দক্ষতার সাথে জরুরি সাড়াদান ইত্যাদি কর্মসূচী সফলতার সাথে বাস্থাবায়ন করে আসছে। কিন্তু দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা আইন ২০১২ এ প্রয়োজনীয় জনবল কাঠামো গঠনের জন্য বলা হলেও গত ১০বছরে এর সন্তোষজনক অগ্রগতি হয়নি। জনবল কাঠামো ও নিয়োগবিধির প্রস্তাবটি দীর্ঘদিন পূর্বে মন্ত্রণালয়ে প্রেরণ করা হলেও বিভিন্ন অযুহাতে কালক্ষেপন করা হচ্ছে। জেলা এবং উপজেলা পর্যায়ে বিভিন্ন মন্ত্রণালয়, অধিদপ্তর ও পরিদপ্তরের অধীন পদ গুলো যুগোপযোগী করে আপগ্রেড করা হলেও তাদের সাথে সামঞ্জস্য রেখে এ মন্ত্রণালয়ের জেলা ও উপজেলা পর্যায়ের কর্মকর্তা কর্মচারীদের পদ অদ্যাবধি আপগ্রেডেশন করা হয়নি। যার ফলে সামাজিক ও অর্থনৈতিক ভাবে আমরা ক্ষতিগ্রস্থ হয়ে আসছি পাশাপাশি ৪১৬টি বিভিন্ন পদ শূন্য থাকায় মাঠ পর্যায়ে কাজ কর্মে স্থবিরতা নেমে এসেছে। এজন্য আমরা এবার পূর্ণ দিবস কর্মবিরতি পালন করছি।

#

পাইকগাছায় হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিষ্টান যুব ও ছাত্র ঐক্য পরিষদের কর্মী সভা

এস, এম, আলাউদ্দিন সোহাগ ::

বাংলাদেশ হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিষ্টান যুব ও ছাত্র ঐক্য পরিষদের যৌথ উদ্যোগে পাইকগাছা উপজেলা শাখার উদ্যোগে এক কর্মীসভা পাইকগাছা প্রেসক্লাব মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত হয়েছে। বুধবার বিকালে সংগঠনের উপজেলা শাখার সভাপতি তাপস কুমার ঘোষ এর সভাপতিত্বে সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিষ্টান ঐক্য পরিষদের জেলা কমিটির সহ-সভাপতি এড. অজিত কুমার মন্ডল। মান্যবর অতিথি ছিলেন যুব ঐক্য পরিষদের কেন্দ্রীয় সহ-সভাপতি দেবাশীষ রায়। বিশেষ অতিথি ছিলেন হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিষ্টান ঐক্য পরিষদের পাইকগাছা উপজেলা সভাপতি রবীন্দ্র নাথ রায়, সাধারন সম্পাদক সাংবাদিক তৃপ্তি রঞ্জন সেন, পৌর সভাপতি সন্তোষ কুমার সরদার, যুব ঐক্য পরিষদের জেলা সভাপতি (ভারপ্রাপ্ত) স্বপন কুমার রায়। প্রধান বক্তা ছিলেন যুব পরিষদের জেলা সাধারন সম্পাদক অনিমেষ সরকার রিন্টু। অতিথি ছিলেন হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিষ্টান ঐক্য পরিষদের উপজেলা কমিটির প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক সাংবাদিক বি সরকার, ছাত্র ঐক্য পরিষদের জেলা সদস্য সচিব অভিজিৎ সরকার রাহুল, অরবিন্দু কুমার মন্ডল, মিঠুন কুমার মন্ডল, বরুন প্রকাশ মন্ডল, কার্তিক চন্দ্র দাশ, দয়াল কৃষ্ণ সানা, বিপ্লব কান্তি রায়, সুব্রত হাজরা। বিপুল রায় চৌধুরী ও কৃষ্ণেন্দু দত্ত এর পরিচালনায় সভায় বক্তব্য রাখেন সুরেশ মন্ডল, আশীষ দত্ত, পিটার হালদার, শক্তিপদ মন্ডল, সুব্রত দাশ, অমরেশ গাইন, পলাশ বাছাড়, বিশ্বজিৎ দফাদার, তন্ম ঢালী, বিনয় হালদার, দেবরাজ মন্ডল, অসীম ঘোষ, লিল্টু রানী মন্ডল, স্মিতা মন্ডল, অসীম বিশ্বাস, শুভ মন্ডল, পলাশ দে, সাগর দে, সৌরভ দত্ত, পার্থ গাঙ্গলী, জয় মিত্র, দেবব্রত বিশ্বাস, টুটুল দেবনাথ, অরিন্দম বৈদ্য, জগন্নাথ সরকার, অভিক সরকার, মিথুন দাশ, দিপু সাধু, সুজয় দত্ত প্রান্ত ও জয় ভৌমিক।

#