পাইকগাছা সংবাদ ॥ বিশ্ববরেণ্য বিজ্ঞানী পিসি রায়ের ১৫৪ তম জন্ম বার্ষিকী পালিত


496 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
পাইকগাছা সংবাদ ॥ বিশ্ববরেণ্য বিজ্ঞানী পিসি রায়ের ১৫৪ তম জন্ম বার্ষিকী পালিত
আগস্ট ২, ২০১৫ খুলনা বিভাগ ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

এস,এম, আলাউদ্দিন সোহাগ, পাইকগাছা :
খুলনার পাইকগাছায় যথাযোগ্য মর্যাদায় বিশ্ববরেণ্য বিজ্ঞানী আচার্য স্যার প্রফুল্ল চন্দ্র পিসি রায়ের ১৫৪ তম জন্ম বার্ষিকি পালিত হয়েছে। জেলা প্রশাসনের উদ্যোগে রোববার সকালে বিজ্ঞানীর জন্মাস্থান রাড়–লীস্থ বসত বাড়ী চত্ত্বরে উপজেলা চেয়ারম্যান এ্যাডঃ স.ম. বাবর আলীর সভাপত্বিতে অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন জেলা প্রশাসক মোস্তফা কামাল, বিশেষ অতিথি ছিলেন জেলা পুলিশ সুপার হাবিবুর রহমান, উপজেলা নির্বাহী অফিসার ভারপ্রাপ্ত কামরুল ইসলাম, ওসি আশরাফ হোসেন। বক্তব্য রাখেন, মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার শেখ শাহাদাৎ হোসেন বাচ্চু, ইউপি চেয়ারম্যান আবুল কালাম আজাদ, সাবেক চেয়ারম্যান আব্দুল মজিদ গোলদার, আ’লীগ নেতা শংকর দেবনাথ, প্রধান শিক্ষক হরেকৃষ্ণ দাস, প্রভাষক ময়নুল ইসলাম সহ স্থানীয় গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গ। এর আগে বিজ্ঞানীর প্রতিকৃতিতে পুষ্পমাল্য অর্পণের মাধ্যমে জন্মবার্ষিকি কর্মসূচির শুভ সূচনা করা হয়। সবশেষে মণোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়।
##

পাইকগাছায় অনৈতিক কর্মকান্ডের অভিযোগে আলোচিত সেই শিক্ষক-শিক্ষিকা বরখাস্ত :
পাইকগাছা প্রতিনিধি ॥
খুলনার পাইকগাছায় শনিবার পরিচালনা পর্ষদের জরুরী সভায় অনৈতিক কর্মকান্ডের অভিযোগে কে,ডি, শাহপাড়া মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের দুই শিক্ষককে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে। এদিকে ঘটনার পর থেকে দুই শিক্ষকই গা ঢাকা দিয়েছে বলে জানা গেছে। উল্লেখ্য উপজেলার কে,ডি শাহপাড়া মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের রসায়ন শিক্ষক শেখ হেলাল মাসুদ ও একই বিদ্যালয়ের ভুগোল শিক্ষক মিঠু রানী মন্ডলের মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। এরই সূত্র ধরে গত ২৪ জুলাই রাতে মিঠু রানীর বাসায় অনৈতিক কার্যকলাপে লিপ্ত থাকাবস্থায় স্থানীয় লোকজন হেলাল ও মিঠুকে হাতে নাতে ধরে ফেলে। এ ঘটনায় শিক্ষিকার স্বামী প্রভাষক বিবেকানন্দ থানায় লিখিত অভিযোগ করে। পরবর্তীতে এলাকাবাসী দুই শিক্ষকের অপসারন ও শাস্তির দাবীতে মানব বন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশ করে। অবশেষে শনিবার দুপুরে পরিচালনা পর্ষদের এক জরুরী সভায় হেলাল ও মিঠু রানীকে সাময়িক বরখাস্তের সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয় বলে প্রধান শিক্ষক পরমানন্দ বিশ্বাস নিশ্চিত করেছেন।
##

পাইকগাছায় ধর্মান্তরিত সাবেক স্ত্রীর দায়ের করা
মামলায় স্কুল শিক্ষক আটক
পাইকগাছা প্রতিনিধি ॥
খুলনার পাইকগাছায় ধর্মান্তরিত সাবেক স্ত্রীর দায়ের করা মামলায় স্কুল শিক্ষককে আটক করা হয়েছে। এ ঘটনায় ধর্মান্তরিত শিক্ষিকার বিরুদ্ধে ফুসে উঠেছে অভিভাবক শিক্ষার্থী সহ সচেতন এলাকাবাসী। জানা গেছে উপজেলার কাশিমনগর গ্রামের নগেন্দ্রনাথ বিশ্বাস এর ছেলে ও আগড়ঘাটা মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের ইংরেজী শিক্ষক বিধান চন্দ্র বিশ্বাস এর সাথে নড়াইল জেলার কালিয়া উপজেলার রামচন্দ্রশীলের মেয়ে ও একই বিদ্যালয়ের সমাজ বিজ্ঞান শিক্ষক স্বরসতী শীলের বিয়ে হয়। এ দিকে গত ৩ বৎসর আগে স্বরসতী শীল ফাতেমা আক্তার সাথী নামে ধর্মান্তরিত হয়ে কেশবপুর উপজেলার মনির হোসেন নামে এক ব্যক্তির সাথে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হয়। স্ত্রী ধর্মান্তরিত হওয়ায় সাড়ে ৮ বছরের পুত্র সন্তান কৌশল বিধান (রহিত) কে দাবী করে বিধান বিশ্বাস নির্বাহী আদালতে মামলা করে। এরই প্রেক্ষিতে সাবেক স্ত্রী স্বরসতী কালিয়া থানায় বিধানের বিরুদ্ধে যৌতুক মামলা করে। যার নং-১, এ মামলায় পাইকগাছা থানা পুলিশের এ,এস,আই মোমিনুর রহমান রোববার দুপুরে শিক্ষক বিধান চন্দ্র বিশ্বাসকে আটক করলে বিদ্যালয়ের অভিভাবক শিক্ষার্থীরা শিক্ষিকা স্বরসতীর ক্লাস বর্জনের ঘোষণা দিয়ে প্রধান শিক্ষক বরাবর লিখিত অভিযোগ করেছে। এ ব্যাপারে আটক শিক্ষক বিধান জানান, স্ত্রী ধর্মান্তরিত হওয়ায় একমাত্র পুত্র সন্তানকে দাবী করে নির্বাহী আদালতে মামলা করায় আমার বিরুদ্ধে হয়রানীমুলক এ মামলা করা হয়েছে।