পাইকগাছা সংবাদ ॥ বিশ্ব কবি রবীন্দ্রনাথের ১৫৭তম জন্মজয়ন্তী উদযাপিত


207 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
পাইকগাছা সংবাদ ॥ বিশ্ব কবি রবীন্দ্রনাথের ১৫৭তম জন্মজয়ন্তী উদযাপিত
মে ৮, ২০১৮ খুলনা বিভাগ ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

এস, এম, আলাউদ্দিন সোহাগ ::
পাইকগাছায় আলোচনা সভা, কবিতা আবৃত্তি ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে বিশ্ব কবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের ১৫৭তম জন্মজয়ন্তী উদযাপিত হয়েছে। শিব্সা সাহিত্য অঙ্গনের উদ্যোগে মঙ্গলবার বিকালে রোজ বাড কিন্ডার গার্টেন স্কুল মিলনায়তনে সংগঠনের সিনিয়র সহ-সভাপতি সরদার মোহাম্মদ নাজিম উদ্দীনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন, সহ-সভাপতি অনিতা রানী মন্ডল, যুগ্ম সম্পাদক বজলুর রহমান, মমতাজ পারভীন মিনু, প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক মোঃ আব্দুল আজিজ, সাহিত্য বিষয়ক সম্পাদক শফিকুল ইসলাম কচি, আইন বিষয়ক সম্পাদক সেলিনা আক্তার, প্রভাষক তরুণ কান্তি মন্ডল, গাজী শহিদুল ইসলাম খোকন, আফরোজা পারভীন শিল্পী, আলতাফ হোসেন মুকুল, অসীম রায় ও শ্যামল মন্ডল।
##


পাইকগাছার বাতিখালী চর বনায়নে বন্য পাখি সংরক্ষণে মাটির পাত্র স্থাপন
এস, এম, আলাউদ্দিন সোহাগ ::
পাইকগাছার বাতিখালী চর বনায়নে বন্য পাখি সংরক্ষণে মাটির পাত্র স্থাপন করা হয়েছে। মঙ্গলবার সকালে পৌর সদরের শিব্সা নদীর চরের বাতিখালী চর বনায়নে বিভিন্ন ধরণের মাটির পাত্র স্থাপন করা হয়। উল্লেখ্য, ২০১৪-১৫ সালে পৌরসভার শিববাটী থেকে শিব্সা ব্রিজ পর্যন্ত সাড়ে ৫ হেক্টর চরভরাটি জমিতে উপকূলীয় বনায়ন করা হয়। সুন্দরবন ভিত্তিক লবণ সহিষ্ণু বিভিন্ন প্রজাতির গাছের চারা রোপন করা হয়। গত কয়েক বছরে চর বনায়নটি মিনি সুন্দরবনে পরিণত হয়েছে। বনায়নের গাছে আশ্রয় নিয়েছে বিভিন্ন প্রজাতির বন্য পাখি। পাখিদের নিরাপদ আশ্রয়ের জন্য বাতিখালী চর বনায়ন সমিতির উদ্যোগে বনায়নের গাছে গাছে স্থাপন করা হয়েছে বিভিন্ন ধরণের মাটির পাত্র। মঙ্গলবার সকালে মাটির পাত্র স্থাপনকালে উপস্থিত ছিলেন, উপজেলা চেয়ারম্যান এ্যাডঃ স ম বাবর আলী, উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ ফকরুল হাসান, উপজেলা বন কর্মকর্তা প্রেমানন্দ রায়, পানি উন্নয়ন বোর্ডের উপ-সহকারী প্রকৌশলী ফরিদ উদ্দীন, উপজেলা সমন্বয়কারী আসমাউল হুসনা, চর বনায়ন সমিতির সভাপতি জিএমএম আজাহারুল ইসলাম, সাংবাদিক মোঃ আব্দুল আজিজ, প্রণব সরদার, জামিনুর ইসলাম, রফিকুল ইসলাম ও নিমাই সহ বনায়ন সমিতির সদস্যবৃন্দ।
##


কারণ জানতে চেয়ে আদালতের নির্দেশনা; অভিভাবক নির্বাচন সম্পন্ন
পাইকগাছার শ্রীকণ্ঠপুর উত্তরপাড়া প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির নির্বাচন নিয়ে মিশ্র প্রতিক্রীয়া
এস, এম, আলাউদ্দিন সোহাগ ::
পাইকগাছার ১০৩নং শ্রীকণ্ঠপুর উত্তরপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির নির্বাচন নিয়ে মিশ্র প্রতিক্রীয়া দেখা দিয়েছে। বতমানের নির্বাচনের তফসিল বাতিল করে পুনরায় নতুন তফসিল ঘোষণার দাবী জানিয়ে সিনিয়র সহকারী জজ আদালতে মামলা করেছেন বিদ্যালয়ের জমি দাতা। বিজ্ঞ আদালত মামলাটি আমলে নিয়ে মামলার ৩-৮ নং বিবাদী গণের বিরুদ্ধে কেন অর্ন্তবর্তী কালীন নিষেধাজ্ঞার আদেশ প্রদান করা হইবে না। তদমর্মে নোটিশ প্রাপ্তির ৭ দিনের মধ্যে কারণ দর্শানোর নির্দেশ দিয়েছেন। বিদ্যালয়ের জমিদাতা তানজিলা বেগম সোমবার পাইকগাছা সিনিয়র সহকারী জজ আদালতে ৯৯/২০১৮ নং মামলাটি দায়ের করেন। মামলায় জেলা প্রশাসক, জেলা শিক্ষা অফিসার, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা, প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার, সহকারী উপজেলা শিক্ষা অফিসার ও রিটার্নিং অফিসার, প্রধান শিক্ষক (ভারপ্রাপ্ত), বিদ্যুৎসাহী পুরুষ ও মহিলা সদস্যকে বিবাদী করা হয়েছে। আদালতের এ নির্দেশনার মধ্য দিয়ে মঙ্গলবার বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির অভিভাবক সদস্য নির্বাচন সম্পন্ন করা হয়। মামলার বাদী ও এলাকাবাসীর অনেকের মতে আদালতের নির্দেশনার মধ্য দিয়ে নির্বাচন প্রক্রীয়া চলমান রাখা নির্বাচনকে প্রশ্নবিদ্ধ করবে। অপরদিকে আদালতের কোন নিষেধাজ্ঞা না থাকায় নিয়মনীতি অনুযায়ী অভিভাবক সদস্য নির্বাচন সম্পন্ন করা হয়েছে বলে প্রাথমিক শিক্ষা দপ্তর কর্তৃপক্ষ জানিয়েছেন। মামলায় উল্লেখ করা হয়েছে গত ৪ মে মামলার ৭নং বিবাদী আবুল কালাম মোড়ল ও ৮নং বিবাদীকে আছিয়া পারভীনকে বিদ্যুৎসাহী সদস্য মনোনীত করে ৭নং বিবাদীকে গোপনে সভাপতি করার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়েছে, যা সম্পন্ন বে-আইনী। মঙ্গলবার সকাল ১০টা থেকে বিকাল ৩টা পর্যন্ত পুরুষ অভিভাবক সদস্য পদের নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। নির্বাচনে আহছানুর রহমান ফুটবল, আব্দুল খালেক গাজী দোয়াত কলম, মফিজুল গাজী মাছ ও হাবিবুর রহমান বিশ্বাস ছাতা প্রতীকে প্রতিদ্বন্দ্বীতা করেন। নির্বাচনে প্রিজাইডিং অফিসারের দায়িত্ব পালন করেন দক্ষিণ হরিঢালী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক প্রসেনজিৎ সরকার ও সহকারী দায়িত্ব পালন করেন রহিমপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক মোঃ আবু সাঈদ। নির্বাচন প্রসঙ্গে আদালতের কোন বিষয় জানানেই বলে জানিয়েছেন নির্বাচনী দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তা। প্রার্থী হাবিবুর রহমানও একই মন্তব্য করেন। তবে এলাকাবাসীর পক্ষে আরশাদ আলী বিশ্বাস বলেন, নির্বাচন সংক্রান্ত বিষয় নিয়ে যখন আদালতে মামলা চলমান রয়েছে এর মধ্য দিয়ে কোন নির্বাচন হলে সেটি প্রশ্নবিদ্ধ হবে। নির্বাচনের সুষ্ঠু পরিবেশের জন্য ঘোষিত তফসিল বাতিল করে নতুন তফসিল ঘোষণার মাধ্যমে একটি সুন্দর নির্বাচন উপহার দেওয়া উচিত। উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা গাজী সাইফুল ইসলাম জানান, সকল নিয়মনীতি যথাযথ ভাবে অনুসরণ করে নির্বাচন প্রক্রীয়া চলমান রাখা হয়েছে। এলাকার অনেকেই বিদ্যুৎসাহী সদস্য হতে না পারাই ক্ষুদ্ধ হয়ে একজন মহিলাকে দিয়ে আদালতে একটি মামলা দায়ের করেছেন। আদালত কারণ জানতে চেয়েছে। এ ক্ষেত্রে কোন নিষেধাজ্ঞা না থাকায় স্বাভাবিক নিয়ম অনুযায়ী অভিভাবক সদস্য নির্বাচন সম্পন্ন করা হয়েছে। তবে নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে আদালতের কারণ জানতে চাওয়ার জবাব প্রদান করা হবে বলে প্রাথমিক শিক্ষা দপ্তরের এ কর্মকর্তা জানিয়েছেন।
##