পাইকগাছা সংবাদ ॥ ৩দিন ব্যাপী ফলদ বৃক্ষ মেলার উদ্বোধন


391 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
পাইকগাছা সংবাদ ॥ ৩দিন ব্যাপী ফলদ বৃক্ষ মেলার উদ্বোধন
আগস্ট ১১, ২০১৫ খুলনা বিভাগ ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

এস,এম, আলাউদ্দিন সোহাগ, পাইকগাছা প্রতিনিধি ॥
পাইকগাছায় ৩ দিনব্যাপী ফলদ বৃক্ষ মেলার উদ্বোধনী অনুষ্ঠান মঙ্গলবার সকালে কৃষি অফিস চত্ত্বরে উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ভারপ্রাপ্ত) কামরুল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত হয়েছে। কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর আয়োজিত “দিন বদলের বাংলাদেশ, ফলদ বৃক্ষে ভরবো দেশ” প্রতিপাদ্য বিষয়ের উপর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন, উপজেলা চেয়ারম্যান এ্যাডঃ স.ম. বাবর আলী। বিশেষ অতিথি ছিলেন, পৌর মেয়র সেলিম জাহাঙ্গীর, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান মাওঃ শেখ কামাল হোসেন, ইউপি চেয়ারম্যান আবুল কালাম আজাদ, প্রাক্তন অধ্যক্ষ লুৎফর রহমান। স্বাগত বক্তব্য রাখেন, উপজেলা কৃষি অফিসার এএইচএম জাহাঙ্গীর আলম। উপজেলা যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা রেজাউল করিমের পরিচালনায় বক্তব্য রাখেন, কাউন্সিলর আসমা আহমেদ, উপ-সহকারী কৃষি কর্মকর্তা এম.এম. আহম্মদ আলী, নার্সারী ব্যবসায়ী কাজী ময়নুল ইসলাম ও কৃষক প্রতিনিধি অখিল মন্ডল। উদ্বোধনী অনুষ্ঠান শেষে অতিথিবৃন্দ মেলার বিভিন্ন স্টল পরিদর্শন করেন।
##
পাইকগাছায় ৭৩টি পুকুর-জলাশয়ে মাছের পোনা অবমুক্ত
পাইকগাছা প্রতিনিধি ॥
পাইকগাছায় ৭৩টি প্রাতিষ্ঠানিক পুকুর-জলাশয়ে ৫৪৪ কেজি কার্প জাতীয় মাছের পোনা অবমুক্ত করা হয়েছে। উপজেলা মৎস্য অধিদপ্তরের উদ্যোগে পোনা অবমুক্তকরণ কার্যক্রমের অংশ হিসেবে মঙ্গলবার দুপুরে উপজেলা পরিষদের শহীদ সরোবর পুকুরে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে মাছের পোনা অবমুক্ত করেন উপজেলা চেয়ারম্যান এ্যাডঃ স.ম. বাবর আলী। এ সময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ভারপ্রাপ্ত) কামরুল ইসলাম, উপজেলা সিনিয়র মৎস্য কর্মকর্তা এস,এম,এ রাসেল, উপজেলা কৃষি অফিসার এএইচএম জাহাঙ্গীর আলম, উপজেলা যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা রেজাউল করিম, ক্ষেত্র সহকারী সুজিত রঞ্জন মন্ডল ও অফিস সহকারী সুবাস চন্দ্র বসু।
##

পাইকগাছায় ইন্টারনেটে শিক্ষক-ছাত্রীর আপত্তিকর ছবি । ব্যবস্থা গ্রহণে ম্যানেজিং কমিটির গড়িমসির অভিযোগ
পাইকগাছা প্রতিনিধি ॥
পাইকগাছায় গজালিয়া মাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয়ের বিতর্কিত শিক্ষক রফিকুল ইসলামের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণে সিদ্ধান্তহীনতায় ভুগছে বিদ্যালয়ের পরিচালনা পর্ষদ। এ সংক্রান্ত পর পর দুটি সভা আহবান করার পরও চুড়ান্ত কোন সিদ্ধান্ত নিতে পারেনি পর্ষদের নেতৃবৃন্দ। ফলে সভাপতি, প্রধান শিক্ষকসহ ম্যানেজিং কমিটির নেতৃবৃন্দের উপর চরম ক্ষোভ প্রকাশ করেছে শিক্ষার্থী, অভিভাবকসহ সচেতন এলাকাবাসী।
সম্প্রতি গজালিয়া মাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয়ের ইংরেজী শিক্ষক রফিকুল ইসলাম ও একই বিদ্যালয়ের প্রাক্তন জনৈক ছাত্রীর একাধিক আপত্তিকর ছবি ইন্টারনেটে ছড়িয়ে পড়লে শিক্ষক রফিকুলের বিরুদ্ধে ফুঁেস উঠে এলাকার     সর্বস্তরের মানুষ। শিক্ষকের শাস্তির দাবীতে এলাকাবাসী মানববন্ধনসহ বিভিন্ন দপ্তরে লিখিত অভিযোগ দায়ের করে। ইতোমধ্যে এ সংক্রান্ত ব্যাপারে সোমবার সর্বশেষ মলতবি সভা করে বিদ্যালয়ের পরিচালনা পর্ষদ। তবে সভায় কোন চুড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেয়া হয়নি বলে প্রধান শিক্ষক মতিয়ার রহমান জানান। এদিকে সিদ্ধান্ত নিতে গড়িমশি করায় পরিচালনা পর্ষদের সভাপতি গণি গাজী ও প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে ক্ষুব্দ প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেছে এলাকাবাসীসহ ক্ষোদ ম্যানেজিং কমিটির অনেকেই। এ ব্যাপারে পরিচালনা পর্ষদের অন্যতম সদস্য ডাঃ রফিকুল ইসলাম জানান, শিক্ষক রফিকুল ইসলামের কর্মকান্ডে শিক্ষার্থীসহ অভিভাবক সকলেই উদ্বিগ্ন। এহেন কর্মকান্ডের কোন বিচার না হওয়ায় অনেক অভিভাবকরা তাদের মেয়েদের স্কুলে আসা বন্দ করে দিয়েছে। আমরা বিতর্কিত শিক্ষক রফিকুল ইসলামের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি চাই। উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার শেখ মতিউর রহমান জানান, ইতোমধ্যে এ ঘটনার তদন্ত কাজ সম্পন্ন হয়েছে। যা এখনও আমার হাতে এসে পৌছায়নি। তদন্ত প্রতিবেদনটি পাওয়ার পর প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে বলে মাধ্যমিক এ শিক্ষা কর্মকর্তা জানান।