পূর্ত মন্ত্রণালয়ের অনুমতি পেলেই যুক্তরাষ্ট্র যাবেন স্থপতিরা


304 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
পূর্ত মন্ত্রণালয়ের অনুমতি পেলেই যুক্তরাষ্ট্র যাবেন স্থপতিরা
ফেব্রুয়ারি ১, ২০১৬ জাতীয় ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

ভয়েস অব সাতক্ষীরা ডটকম ডেস্ক :
স্পিকারের অনুমতি সাপেক্ষে জাতীয় সংসদ ভবনসহ আগারগাঁও এলাকার স্থাপত্যের মূল নকশা যুক্তরাষ্ট্র থেকে আনতে চায় গৃয়াহণ ও গণপূর্ত মন্ত্রণালয়ের স্থাপত্য অধিদপ্তর।

আজ সোমবার এ বিষয়ে মন্ত্রণালয়ের অনুমতি চেয়ে আবেদন করা হবে বলে জানা গেছে। মন্ত্রণালয় অনুমতি দিলেই এক বা একাধিক স্থপতি যাবেন যুক্তরাষ্ট্রে।

এক রিট মামলায় গত ৪ নভেম্বর স্থপতি লুই আই কানের তৈরি জাতীয় সংসদ কমপ্লেক্সের মূল নকশা তিনমাসের মধ্যে দাখিলের নির্দেশ দিয়েছিলো সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগ। তবে এ সময়ের মধ্যে আদালতে তা উপস্থ‍াপনের সম্ভাবনা নেই। কারণ প্রকৌশলীদের যুক্তরাষ্ট্রে পাঠানোর পর আরও একমাস সময় লাগতে পারে।

এদিকে, পূর্ত মন্ত্রী ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেন বৃহস্পতিবার সংসদে এক প্রশ্নের উত্তরে বলেন,’ প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনায় বিখ্যাত স্থপতি লুই আই কান প্রণীত জাতীয় সংসদ ভবন কমপ্লেক্স, তদসংলগ্ন এলাকার মহাপরিকল্পনাসহ অন্যান্য সকল অঙ্গের স্থাপত্য নকশা সংগ্রহের জন্য যুক্তরাষ্ট্রের পেনসিলভেনিয়া ইউনিভার্সিটি আর্কিটেকচারাল আর্কাইভ এর সাথে ই-মেইলের মাধ্যমে যোগাযোগ করা হয়েছে।’

তিনি আরো বলেন,  ‘১৫ জানুয়ারি যুক্তরাষ্ট্র থেকে ড্রইং ইনভেন্টরি লিস্ট (Drawing inventory list) এর চূড়ান্ত তালিকা পাঠানো হয়েছে। এই তালিকা হতে প্রয়োজনীয় নকশা চিহ্নিত করে তা সংগ্রহের ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।’

এ নকশা আনার বিষয়ে জানতে চাইলে গতকাল দুপুরে স্থাপত্য অধিদপ্তরের প্রধান স্থপতি কাজী গোলাম নাসির বলেন, যুক্তরাষ্ট্রের পেনসিলভেনিয়া ইউনির্ভাসিটির স্থাপত্য বিভাগ আমাদের শেরে বাংলা নগরের সকল নকশার তালিকা দিয়েছে। এতে দেখা গেছে, ৮ হাজারের উপরে নকশা রয়েছে।

জাতীয় সংসদের ইতিকথা
১৯৬১ সালে পাকিস্তানের তৎকালীন রাষ্ট্রপতি আইয়ুব খানের আমলে বর্তমান সংসদ ভবন নির্মাণ কাজ শুরু হয়। সে সময় স্থপতি মাজহারুল ইসলামকে এই ভবনের স্থপতি নিয়োগ করা হয়। তার প্রস্তাবেই লুই আই কান এই প্রকল্পের প্রধান স্থপতি হিসেবে নিয়োগ পান। দীর্ঘ সাধনার পর ১৯৮২ সালের ২৮ জানুয়ারি এ ভবনের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন হয়।