‘বর্তমান সরকারের নেয়া খাদ্যবান্ধব কর্মসূচী হতদরিদ্র মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন এসেছে’


369 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
‘বর্তমান সরকারের নেয়া খাদ্যবান্ধব কর্মসূচী হতদরিদ্র মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন এসেছে’
অক্টোবর ১৮, ২০১৬ তালা ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

কামরুজ্জামান মোড়ল, পাটকেলঘাটা :
বর্তমান সরকারের নেয়া খাদ্যবান্ধব কর্মসূচী হতদরিদ্র মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন এসেছে। বর্তমান শেখ হাসিনা সরকারের নির্বাচনে প্রতিশ্রুতি না থাকলেও উন্নত দেশের তালিকায় স্থান পেতে আমরণ সংগ্রাম অব্যাহত রেখেছেন। সরকার বিরোধীরা মিথ্যা রটনা করে ভেবেছিল শেখ হাসিনার সরকার কখনও বাংলার জনগণকে ১০ টাকা কেজি দরের চাল খাওয়াতে সক্ষম হবে না। তিনি বাস্তবে প্রমাণ করে দেখিয়ে দিয়েছেন যে তার অধীনে সবকিছুই সম্ভব। যদি এই চাল নিয়ে কোনো রকম দুর্নিতি হয় তবে যুবলীগ, ছাত্রলীগ, আওয়ামীলীগ, ওয়ার্কাস পার্টি ও  অঙ্গ সংগঠনের নেতৃবৃন্দকে সাথে নিয়ে সকল দুর্নিতী প্রতিহত করার আহবান জানান। চাল বিতরণ উদ্বোধন পূর্বক আলোচনা সভায় কথাগুলো বলছিলেন সাতক্ষীরা-১ (তালা-কলারোয়া) আসনের সংসদ সদস্য এ্যাড. মুস্তফা লূৎফুল্লাহ এমপি।  সোমবার বিকাল ৪ টায় পাটকেলঘাটার ৪ নং কুমিরা ইউনিয়নের কদমতলায় সরকারের খাদ্যবান্ধব কর্মসূচীর অধীন ১০ টাকা মুল্যের ৩০ কেজি করে চাল বিতরণ কার্যক্রম অনুষ্ঠিত হয়। প্রথম দিনে ইউনিয়নের ৫, ৬ ও ৭ নং ওয়ার্ডের ৩৯৭ জন দুস্থদের মাঝে চাল বিতরণ করা হয়। ধারাবাহিকভাবে ইউনিয়নের সকল ওয়ার্ডের তালিকাভূক্ত হতদরিদ্রদের মধ্যে চাল বিতরণ করা হবে  হবে । এসময় উপস্থিত ছিলেন কুমিরা ইউপি চেয়ারম্যান শেখ গোলাম মোস্তফা, উপজেলা মাধ্যমিক সহকারী শিক্ষা কর্মকর্তা প্রভাষ কুমার দাশ, আ’লীগ নেতা গোপাল ঘোষ, নিবাস সরকার, বাসুদেব, ইউপি সদস্য শফিকুল ইসলাম, আলাউদ্দিন প্রমুখ। অনুষ্ঠানটি পরিচালনা করেন কুমিরা ইউনিয়ন আ’লীগের সাধারণ সম্পাদক ও ডিলার রফিকুল ইসলাম।

###

পাটকেলঘাটায় সড়ক দূর্ঘটনায় স্কুল ছাত্রী আহত
কামরুজ্জামান মোড়ল, পাটকেলঘাটা :
পাটকেলঘাটার কুমিরা মাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয়ের ৬ষ্ঠ শ্রেণীর ছাত্রী মহিলা খাতুন (১২) স্কুল পার হতে গিয়ে মোটর সাইকেলের ধাক্কায় গুরুতর আহত হয়ে বর্তমানে চিকিৎসাধীন আছে। তার অবস্থা আশঙ্কাজনক বলে কর্তব্যরত ডাক্তারের নিকট থেকে জানা যায়।

জানা যায়, গত শনিবার সকাল ১০ টায় স্কুলে বই রেখে কলম কিনতে মহিমা ও তার বান্ধবী কুমিরা কদমতলা মোড় পার হচ্ছিল। এসময় পাটকেলঘাটা অভিমুখী একটি মোটর সাইকেল পিছন দিক থেকে স্বজোরে তাদেরকে ধাক্কা দিলে ঘটনাস্থলেই মহিমা ও তার বান্ধবী প্রচন্ড আঘাত প্রাপ্ত হয়। চালক দ্রুত মোটর সাইকেল ফেলে রেখে পালিয়ে গেলে স্থানীয় জনগণ মহিমা ও তার বান্ধবীকে বাসষ্ট্যান্ড সংলগ্ন ডাঃ স্বদেশের নিকট নিয়ে যায়।

মহিমার বান্ধবীর হাত কেটে গেলে প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে বাড়িতে পাঠানো হয় এবং মহিমার অবস্থার অবনতি হলে কুমিরা ইউনিয়ন আ’লীগের সাধারণ সম্পাদক রফিকুল ইসলাম তাকে নিয়ে দ্রুত সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালে ভর্তি করেন। মহিমার মাথায় ৭ টি সেলাই এবং বাম পাটি ভেঙ্গে গেছে বলে জানা যায়। বর্তমানে সে চিকিৎসারত রয়েছে। কুমিরা মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক গৌতম কুমার দাস জানান, আমাদের শিক্ষকরা সার্বিক খোজখবর ও সহযোগিতা অব্যাহত রেখেছে। অনতিবিলম্বে চালকের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।