বুধহাটা ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে জমি দখল করে মার্কেট নির্মাণের অভিযোগে সংবাদ সম্মেলন


471 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
বুধহাটা ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে জমি দখল করে মার্কেট নির্মাণের অভিযোগে সংবাদ সম্মেলন
অক্টোবর ৩১, ২০১৬ আশাশুনি ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

স্টাফ রিপোর্টার :
সাতক্ষীরার আশাশুনি উপজেলার বুধহাটা ইউপি চেয়ারম্যান আ.ব.ম মোসাদ্দেকের বিরুদ্ধে জমি দখল করে অবৈধভাবে মার্কেট নির্মাণের অভিযোগ উঠেছে।

সোমবার দুপুরে সাতক্ষীরা প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলন করে বুধহাটা বাজার এলাকার গোবিন্দ ব্যানার্জী এই অভিযোগ করেন।

এ সময় লিখিত বক্তব্যে তিনি বলেন, তিনি পরিবার নিয়ে বুধহাটা বাজার সংলগ্ন আশাশুনি-সাতক্ষীরা সড়কের পশ্চিম পাশে ৪৭ শতক ভিটাবাড়িতে বসবাস করেন। তাদের ভিটাবাড়ির পাশে দোকানপাট ও সমিল রয়েছে।

গত বৃহস্পতিবার স্থানীয় চেয়ারম্যান আ.ব.ম মোসাদ্দেক তাদের ভিটাবাড়ির সামনে থেকে (৬০ ফুট বাই ১৫ ফুট) জমি দখল করে মার্কেট নির্মাণ শুরু করেন। এ ঘটনায় তাদের পরিবারের সদস্যরা আতঙ্কিত হয়ে পড়েছেন। এ ব্যাপারে আমরা আশাশুনি থানায় লিখিত অভিযোগ দেই। অভিযোগ পেয়ে পুলিশ মার্কেটের কাজ বন্ধ করে দেয়।

সংবাদ সম্মেলনে আরও বলা হয়, চেয়ারম্যান আ.ব.ম মোসাদ্দেক প্রচার দিচ্ছেন তিনি ওই জমি জেলা পরিষদ থেকে ডিসিআর নিয়ে মার্কেট নির্মাণ করছেন। যা সম্পূর্ণ মিথ্যা। কারণ চেয়ারম্যান কর্তৃক দখলকৃত জমির মধ্যে তাদেরও জমি রয়েছে। এছাড়া সেখানে মার্কেট নির্মাণ করলেও তারা বসবাস করতে পারবেন না।

সংবাদ সম্মেলনে তিনি জমি দখল করে অবৈধভাবে মার্কেট নির্মাণ বন্ধে প্রশাসনের দৃষ্টি আকর্ষণ করেন। ## বুধহাটা ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে জমি দখল
করে মার্কেট নির্মাণের অভিযোগে সংবাদ সম্মেলন

স্টাফ রিপোর্টার :
সাতক্ষীরার আশাশুনি উপজেলার বুধহাটা ইউপি চেয়ারম্যান আ.ব.ম মোসাদ্দেকের বিরুদ্ধে জমি দখল করে অবৈধভাবে মার্কেট নির্মাণের অভিযোগ উঠেছে।

সোমবার দুপুরে সাতক্ষীরা প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলন করে বুধহাটা বাজার এলাকার গোবিন্দ ব্যানার্জী এই অভিযোগ করেন।

এ সময় লিখিত বক্তব্যে তিনি বলেন, তিনি পরিবার নিয়ে বুধহাটা বাজার সংলগ্ন আশাশুনি-সাতক্ষীরা সড়কের পশ্চিম পাশে ৪৭ শতক ভিটাবাড়িতে বসবাস করেন। তাদের ভিটাবাড়ির পাশে দোকানপাট ও সমিল রয়েছে।

গত বৃহস্পতিবার স্থানীয় চেয়ারম্যান আ.ব.ম মোসাদ্দেক তাদের ভিটাবাড়ির সামনে থেকে (৬০ ফুট বাই ১৫ ফুট) জমি দখল করে মার্কেট নির্মাণ শুরু করেন। এ ঘটনায় তাদের পরিবারের সদস্যরা আতঙ্কিত হয়ে পড়েছেন। এ ব্যাপারে আমরা আশাশুনি থানায় লিখিত অভিযোগ দেই। অভিযোগ পেয়ে পুলিশ মার্কেটের কাজ বন্ধ করে দেয়।

সংবাদ সম্মেলনে আরও বলা হয়, চেয়ারম্যান আ.ব.ম মোসাদ্দেক প্রচার দিচ্ছেন তিনি ওই জমি জেলা পরিষদ থেকে ডিসিআর নিয়ে মার্কেট নির্মাণ করছেন। যা সম্পূর্ণ মিথ্যা। কারণ চেয়ারম্যান কর্তৃক দখলকৃত জমির মধ্যে তাদেরও জমি রয়েছে। এছাড়া সেখানে মার্কেট নির্মাণ করলেও তারা বসবাস করতে পারবেন না।

সংবাদ সম্মেলনে তিনি জমি দখল করে অবৈধভাবে মার্কেট নির্মাণ বন্ধে প্রশাসনের দৃষ্টি আকর্ষণ করেন। ##