ব্যাপক উৎসাহ উদ্দীপনার মধ্য দিয়ে সাতক্ষীরায় শুভ জন্মাষ্টমী পালিত


604 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
ব্যাপক উৎসাহ উদ্দীপনার মধ্য দিয়ে সাতক্ষীরায় শুভ জন্মাষ্টমী পালিত
সেপ্টেম্বর ৫, ২০১৫ ফটো গ্যালারি সাতক্ষীরা সদর
Print Friendly, PDF & Email

প্রেস বিজ্ঞপ্তি : ব্যাপক উৎসাহ উদ্দীপনার মধ্য দিয়ে সাতক্ষীরায় সনাতন ধর্মাবলীদের অন্যতম প্রধান ধর্মীয় উৎসব শুভ জন্মাষ্টমী পালিত হয়েছে। পরমেশ্বর ভগবান শ্রীকৃষ্ণের ৫২৪১ তম আর্বিভাব তিথি উদযাপন উপলক্ষে বাংলাদেশ পুজা উদযাপন কমিটি, সাতক্ষীরা জেলা শাখার উদ্দ্যোগে আজ সকাল ১১ ঘটিকায় সাতক্ষীরা সদর সার্বজনীন মন্দির (কাটিয়া) হতে এক বর্ণাঢ্য মঙ্গল শোভাযাত্রা বের হয়।
মঙ্গল শোভাযাত্রার শুভ উদ্বোধন করেন সাতক্ষীরা জেলার পুলিশ সুপার। সংক্ষিপ্ত বক্তব্যের শুরুতেই পুলিশ সুপার শুভ জন্মাষ্টমীতে সনাতন ধর্মাবলীর সকলকে শুভেচ্ছা জানান। পুলিশ সুপার বলেন ভগবান শ্রীকৃষ্ণ যুগে যুগে বিভিন্ন রুপে মর্ত্যে অবতরণ করে অশুভ শক্তিকে পরাজিত করে পৃথিবীতে শান্তি প্রতিষ্ঠা করেন। সকল ধর্মই সমাজে শান্তি প্রতিষ্ঠার জন্য সৃষ্টি হয়েছে কিন্তু মুষ্টিমেয় ব্যক্তি ধর্মের নাম দিয়ে বিভেদ সৃষ্টি করে সমাজে অশান্তি ডেকে আনে। যুগ যুগ ধরে এই বাংলায় হিন্দু-মুসলিম সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি বজায় রেখে বসবাস করে আসছে উল্লেখ করে পুলিশ সুপার বলেন বৃটিশরা এই সমাজে বিভাজন সৃষ্টি করায় বিভিন্ন সময়ে হিন্দু-মুসলিম দাঙ্গা সংঘটিত হয়। বৃটিশরা উপমহাদেশ থেকে বিতাড়িত হওয়ার পূর্বে মওদুদীর মাধ্যমে জামায়াতে ইসলাম সৃষ্টি করে সাম্প্রদায়িক শক্তির বীজ বপন করে। ১৯৪৭ সালে দেশ বিভাজনের পরও গোলাম আযমের মাধ্যমে এদলটি তাদের কার্যক্রম চালায়। ৭১’এর পরাজিত শক্তি জামায়াত-শিবিরের দোশররা স্বাধীন বাংলায় পুনরায় অরাজকতা সৃষ্টি করছে উল্লেখ করে পুলিশ সুপার জন্মাষ্টমীর এই শুভ তিথিতে সকলকে ঐক্যবদ্ধ হয়ে সাতক্ষীরা মাটি হতে এই অশুভ শক্তিকে চিরতরে দূর করার শপথ গ্রহণের আহবান জানান। মঙ্গল শোভাযাত্রাটি সাতক্ষীরা সদর সার্বজনীন মন্দির (কাটিয়া) হতে শুরু হয়ে পুরাতন সাতক্ষীরাস্থ মায়ের বাড়ী মন্দিরে শেষ হয়।