ভারতের প্রধানমন্ত্রীকে স্বাগত জানাতে প্রস্তুত শ্যামনগরবাসী


394 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
ভারতের প্রধানমন্ত্রীকে স্বাগত জানাতে প্রস্তুত শ্যামনগরবাসী
মার্চ ১৬, ২০২১ ইতিহাস ঐতিহ্য ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

শ্যামনগর (সাতক্ষীরা) সংবাদদাতা ॥
ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির আগমনকে ঘিরে সাতক্ষীরার শ্যামনগরে এখন রীতিমত সাজ সাজ রব। প্রশাসন থেকে জনপ্রতিনিধি এমনকি কাজে নিযুক্ত শ্রমিকরা সকাল থেকে রাত পর্যন্ত ব্যস্ত সময় পার করছে। রাস্তাঘাট সংস্কারসহ পানি ও বিদ্যুৎ এর মত জরুরী বিষয়গুলো নির্বিঘœ করতে জোর তৎপরতা চালানো হচ্ছে।
উল্লেখ্য ২৭ মার্চ ভারতীয় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী শ্যামনগর উপজেলার ঈশ^রীপুর ইউনিয়নে অবস্থিত প্রাগৈতিহাসিক কালের স্বাক্ষী যশোরেশ^রী কালি মন্দির পরিদর্শন করবেন। প্রায় তিরিশ মিনিট কালের পরিদর্শনের সময় মন্দিরের পুজা অংশ নিতেও পারেন। তার সফরকে কেন্দ্র করে গোটা শ্যামনগরে জোরদার নিরাপত্তা বলয় তৈরীসহ পরির্দশনস্থল ও আশপাশের এলাকাকে রীতিমত মনোমুগ্ধকর সাঁজে গোছানো হচ্ছে। প্রশাসনের সর্বোচ্চ পর্যায় থেকে প্রতিনিয়ত প্রস্তুতির খুটিনাটি খতিয়ে দেখতে সব পক্ষকে নিয়ে মুহুর্মুহ সভা করা হচ্ছে।
ভারতের প্রধানমন্ত্রীকে আতিথেয়তা দিতে এতটুকু কমতি রাখতে চায় না ব্যবস্থাপনার দায়িত্বে থাকা কতৃপক্ষ। তার আগমন থেকে পরির্দশনসহ যাবতীয় কর্মকান্ড নিয়ন্ত্রণের দায়িত্ব গ্রহন করেছে এসএসএফ।
সফরসঙ্গীসহ তাকে বহনকারী হেলিকপ্টার অবতারণের লক্ষ্যে ঈশ^রীপুর এ সোবহান বহুমুখী মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের মাঠসহ পাশর্^বর্তী স্থানে প্রায় চারটি হেলিপ্যাড নির্মানের কাজ এগিয়ে চলেছে। হেলিকপ্টার অবতারনের পর যে রাস্তা ধরে তিনি মন্দির এলাকায় যাবেন, সেসব রাস্তা নুতনভাবে সংস্কার করা হচ্ছে। নিরবিচ্ছিন্ন বিদ্যুৎ সরবরাহ নিশ্চিত করতে বিদ্যুৎ বিভাগের সদস্যরা দিনরাত কাজ করছে। মন্দির পরিদর্শনের আগে-পরে যদি তিনি মুহুর্তকাল সেখানে অবস্থান করতে চান-এমন বিষয়কে সামনে রেখে মন্দিরের দুটি অতিথি কক্ষ সজ্জিত করার পাশাপাশি বিকল্প বিশ্রামাগারসহ শৌচাগার নির্মানের কাজ শুরু করা হয়েছে। পুর্ব হতে নির্মিত দুটি কক্ষে ইতিমধ্যে এসি স্থাপনের কাজ অনেকটা এগিয়েছে।
এদিকে মন্দির ও প্রাচীরসমুহে রং এর কাজসহ প্রাচীরের ভঙ্গুর অংশ মেরামতের কাজ সম্পন্ন হয়েছে। মন্দিরের প্রবেশদ্বারে বেড়ে প্রায় দুই শতাধিক বছরের পুরানো বটতলা অংশে খানা-খন্দক বন্ধ করে ইট-পাথরের মিশ্রণে প্রথমবারের মত সৌন্দর্য্য মন্ডিত সু-বিস্তৃত চাতাল গড়ে তোলা হচ্ছে। মন্দিরের পুর্ব ও দক্ষিন প্রান্তের যাবতীয় বন-বাদাড় পরিস্কার করে মন্দিরের শোভা বৃদ্ধির কাজ অনেক দুর এগিয়ে নেয়া হয়েছে।
দেশের মন্ত্রী পর্যায়ের ব্যক্তিবর্গের পাশাপাশি বিশিষ্ট জনেরা ইতিপুর্বে যশোরেশ^রী কালি মন্দির পরির্দশন করলেও কোন দেশের রাষ্ট্র প্রধানের এটাই প্রথম শ্যামনগরে আগমন। আর সেজন্য ভারতের সরকার প্রধানের আগমনকে ঘিরে রীতিমত উৎসবের আবহ তৈরী হয়েছে শ্যামনগরসহ গোটা সাতক্ষীরাজুড়ে।
নরেন্দ্র মোদীর সফরকে ঘিরে নিরাপত্তা ব্যবস্থা খতিয়ে দেখতে ইতিমধ্যে একাধিকবার শ্যামনগর পরিদর্শন করেছেন দু’দেশের উচ্চ পর্যায়ের প্রতিনিধি দল। ভারতীয় দূতাবাস কর্মকতাগন একাধিকবার শ্যামনগরের যশোরেশ^রী কালি মন্দির এলাকা পুরিদর্শন করে সার্বিক বিষয়ে খতিয়ে দেখেছেন।
জাতীয় গৃহায়ণ ও গনপুর্ত মন্ত্রণালয়ের সচিবসহ র‌্যাব এর মহাপরিচালক আর বিমান বাহিনীর প্রতিনিধি দল সরেজমিনে শ্যামনগরের ঈশ^রীপুরস্থ যশোরেশ^রী মন্দির এলাকার যাবতীয় খুটিনাটি পর্যবেক্ষন করছেন। আয়োজক কতৃপক্ষের তরফ থেকে নরেন্দ্র মোদীর আগমন থেকে শুরু করে মন্দির পরিদর্শনসহ শ্যামনগর ছেড়ে যাওয়া অবধি যাবতীয় বিষয়কে ত্রুটিমুক্ত রাখতে যারপর নাই চেষ্টা চালানো হচ্ছে।
জানা গেছে হেলিকপ্টার থেকে অবতরনের পর হতে মন্দির পর্যন্ত রাস্তার দু’পাশ রঙিন কাপড়ে মুড়িয়ে দেওয়া হবে। ইতিমধ্যে মন্দির এলাকায় যাতায়াতরতদের পর্যবেক্ষনে পুলিশ ও আনছার সদস্যদের মোতায়েন করা হয়েছে।

গত সোমবার থেকে এসএসএফ (স্পেশাল সিকিউরিটি ফোর্স) এর পক্ষ থেকে প্রতিবেশী রাষ্ট্রের সরকার প্রধানের সফর কেন্দ্রিক যাবতীয় ব্যবস্থাপনার দায়িত্ব বুঝে নেয়া হয়েছে।
সনাতন ধর্মালম্বীদের কাছে শ্যামনগরের ঈশ^রীপুরস্থ যশোরেশ^রী কালি মন্দির তাদের অতি গুরুত্বপুর্ন কয়েকটি ধর্মীয় পীঠস্থানের একটি। পৃথিবীরবুকে এটি একাটি জাগ্রত মন্দির।