মনোনয়নপত্র বাতিল হলো কাদের সিদ্দিকীর


287 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
মনোনয়নপত্র বাতিল হলো কাদের সিদ্দিকীর
ডিসেম্বর ২, ২০১৮ জাতীয় ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

 

অনলাইন ডেস্ক

কৃষক শ্রমিক জনতা লীগের সভাপতি বঙ্গবীর আবদুল কাদের সিদ্দিকীর মনোনয়নপত্র বাতিল করেছে নির্বাচন কমিশন।

রোববার দুপুরে যাচাই–বাছাইয়ের পর টাঙ্গাইলের জেলা রিটার্নিং কর্মকর্তা ও জেলা প্রশাসক মো. শহীদুল ইসলাম ঋণখেলাপিসহ বিভিন্ন ত্রুটির কারণে একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের তিনিসহ আরও অন্তত জনের মনোনয়নপত্র বাতিল করেন।

কাদের সিদ্দিকী টাঙ্গাইল-৮ (সখীপুর-বাসাইল) এবং টাঙ্গাইল-৪ (কালিহাতী) আসন থেকে মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছিলেন।

মনোনয়পত্র বাতিলের পর সাংবাদিকদের তিনি বলেন, আওয়ামী লীগ একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ১৫ থেকে ২০টি আসন পাবে। আমি সারাজীবন আল্লাহ-রসুলকে বিশ্বাস করে এসেছি। আমার বিশ্বাস যদি সত্য হয় আমার দেশ প্রেম যদি সত্য হয় তাহলে আগামী নির্বাচনে আওয়ামী লীগ ২০টি আসন পাবে।

কাদের সিদ্দিকী বলেন, সরকার এখন ইলেকশন কমিশন। কমিশন এখন সরকারের মত আচরণ করছে। আমি অবশ্যই কমিশনে যাব। কারণ এর আগেরবার আমরা যখন ইলেকশন কমিশনে গিয়েছিলাম তারা বলেছিলেন কমিশন আদালতে বাদী হবে না। এটা দেখার জন্যই আমি কমিশনে আপিল করবো।

সাংবাদিকদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, আমি আপনাদের দেখাতে পারবো ৫৭ কোটি টাকার লোনে ২২ লাখ টাকা দিয়েই লোন রিসিডিউল করা হয়েছে। আর আমার বেলায় অন্যটা।

কাদের সিদ্দিকী বলেন, সব কিছুই সরকারের ইচ্ছা। সরকার কৌশল করে একটি খাঁচায় বা ফাঁদে ফেলতে পেরেছে। এইজন্য জাতীয়ভাবে রাষ্ট্রের শাসন ক্ষমতা বদল হোক তখন দেখা যাবে। সরকারের সুনির্দিষ্ট পরিকল্পনার অংশ হিসেবে আমার মনেনায়নপত্র বাতিল করা হয়েছে।