মুস্তাফিজের কাঁধে অস্ত্রোপচার করবেন শচীনের সার্জন


439 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
মুস্তাফিজের কাঁধে অস্ত্রোপচার করবেন শচীনের সার্জন
আগস্ট ৭, ২০১৬ খেলা ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

অনলাইন ডেস্ক :
আপাতত বিশ্রামে কাটার মাস্টার মুস্তাফিজুর রহমান। ইংলিশ কাউন্টি ক্লাব সাসেক্সের হয়ে খেলতে গিয়ে অনুশীলনের সময়ে কাঁধে মুস্তাফিজ এতটাই চোট পেয়েছেন যে, তা থেকে সেরে উঠতে অস্ত্রোপচারের করতেই হবে। এমআরআই রিপোর্টে বিশেষজ্ঞ সার্জন টনি কোচার চোটের অবস্থা কেমন সেটা জানিয়েছেন ক’দিন আগে। অস্ত্রোপচারের পর ৬ মাস থাকতে হবে মাঠের বাইরে, এমন পূর্বাভাসও দিয়েছেন তিনি। তাতেই বড় ভাবনায় বাংলাদেশ দলকে ফেলে দিয়েছেন মুস্তাফিজুর রহমান। ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে আসন্ন হোম সিরিজে ২ টেস্ট, ৩ ওয়ানডে খেলতে পারবেন না মুস্তাফিজ। নিউজিল্যান্ড সফরও মিস করবেন তিনি। দলের মূল বোলিং অস্ত্র ছাড়া মাঠে নামতে হবে বাংলাদেশকে।

মুস্তাফিজের কাঁধের অপারেশনটা ইংল্যান্ডে, না অস্ট্রেলিয়ায় হবে তা নিয়ে অনেক ভেবেছে বিসিবি। অস্ত্রেলিয়ায় অপারেশন করাতে হলে বেশ ক’দিন অপেক্ষা করতে হবে। কিন্তু ইংল্যান্ডে খুব বেশিদিন অপেক্ষা করতে হবে না বলে ইংল্যান্ডেই মুস্তাফিজের অপারেশনের পক্ষে মত দিয়েছে বিসিবি। টনি কোচারের পরামর্শ শুনে ইংল্যান্ড অ্যান্ড ওয়েলশ ক্রিকেট বোর্ড (ইসিবি) ইংল্যান্ডে মুস্তাফিজের কাঁধের অস্ত্রোপচারের জন্য পারদর্শী দু’জনের নাম প্রস্তাব করেছিলেন। খোঁজ-খবর নিয়ে  বিশেষজ্ঞ সার্জন লেনার্ড ফাঙ্ক অথবা অ্যান্ড্রু ওয়ালেসের একজনকে দিয়ে এই অস্ত্রোচারের প্রস্তাবনা ছিল ইসিবির। ইসিবির পরামর্শ অনুযায়ী, ম্যানচেস্টারে উইমম্লো হাসপাতালে লেনার্ড ফাঙ্কের কাছে ফিজকে পাঠিয়েছিল বিসিবি। তবে আগামী ২২ অাগস্টের আগে ফাঙ্ক অপারেশনের জন্য সময় দিতে পারছেন না বলে বিকল্প হিসেবে লন্ডনে ফোর্টিয়াস ক্লিনিকে অ্যান্ড্র্রু ওয়ালেসের শরণাপন্ন হতে হয়েছে মুস্তাফিজকে। শেষ পর্যন্ত মুস্তাফিজের কাঁধের অস্ত্রোপচার নিয়ে অনিশ্চয়তা কেটেছে। আগামী ১১ আগস্ট লন্ডনের ফোর্টিয়াস ক্লিনিকের অভিজ্ঞ অর্থোপেডিক সার্জন অ্যান্ড্রু ওয়ালেস মুস্তাফিজের কাঁধে অস্ত্রপচার করবেন বলে রাজি হয়েছেন। বিসিবির মিডিয়া কমিটির চেয়ারম্যান জালাল ইউনুস শুক্রবার তা নিশ্চিত করেছেন।

এর আগে, ২০০৪ সালে টেনিস এলবো এবং ২০০৬ সালে ডান কাঁধে ভারতের কিংবদন্তি ক্রিকেটার শচীন টেন্ডুলকারকে দু’দুবার অপারেশনের মুখে পড়তে হয়েছিল। ওই দু’বারই তার সফল অস্ত্রোপচার করেছেন ওয়ালেশ। সেই বিশেষজ্ঞ সার্জন আগামী বৃহস্পতিবার মুস্তাফিজের কাঁধের অপারেশন করবেন। ২০০৬ সালে কাঁধের অপারেশনের কারণে শচীন মিস করেছেন সে বছর ইংল্যান্ডের বিপক্ষে মুম্বাই টেস্ট এবং ৭ ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজ, ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফরও করা হয়নি তার। সেখানে মুস্তাফিজ মিস করবেন ইংল্যান্ডের বিপক্ষে হোম সিরিজ এবং নিউজিল্যান্ড সফর। ২০০৬ সালে কাঁধের অপারেশনে শচীন পাশে পেয়েছিলেন চিকিৎসক স্ত্রী অঞ্জলিকে, সেখানে মুস্তাফিজের অস্ত্রোপচার প্রক্রিয়া দেখভাল করার জন্য ঢাকা থেকে বিসিবি’র প্রধান চিকিৎসক ডা. দেবাশিষ চৌধুরীকে পাঠানো হচ্ছে।