মেডিকেলের ফল: পরীক্ষার্থীদের ৫৮.৪ শতাংশ ভর্তির যোগ্য


362 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
মেডিকেলের ফল: পরীক্ষার্থীদের ৫৮.৪ শতাংশ ভর্তির যোগ্য
সেপ্টেম্বর ২০, ২০১৫ জাতীয় ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

ভয়েস অব সাতক্ষীরা ডটকম ডেস্ক :
যোগ্য শিক্ষার্থীর এই সংখ্যা পরীক্ষার্থীদের মোট সংখ্যার ৫৮ দশমিক ৪ শতাংশ।

আসন সংখ্যার হিসেবে শেষ পর্যন্ত তাদের মধ্যে চিকিৎসা শাস্ত্রে লেখাপড়ার সুযোগ পাবেন ১১ হাজার ৪৯ জন।

স্বাস্থ্য প্রতিমন্ত্রী জাহিদ মালেক রোববার দুপুরে ঢাকার মহাখালীতে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের সম্মেলনকক্ষে এ ফলাফল প্রকাশ করেন।

দুপুরে আনুষ্ঠানিকভাবে ফল প্রকাশ করা হলেও সকাল থেকে উত্তীর্ণ পরীক্ষার্থীদের মোবাইল ফোনে এসএমএসের মাধ্যমে ফলাফল পাঠানো শুরু হয় বলে অধিদপ্তরের কর্মকর্তারা বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে জানান।

ভর্তি ফরম পূরণের সময় পরীক্ষার্থীদের যে মোবাইল ফোন নম্বর নেয়া হয়েছে, সেখানেই পাঠানো হচ্ছে ফল।

স্বাস্থ্য প্রতিমন্ত্রীর সংবাদ সম্মেলনের পর অধিদপ্তরের ওয়েবসাইটেও (www.dghs.gov.bd) ফলাফল প্রকাশ করা হয়েছে।

গত শুক্রবার সকাল ১০টা থেকে ১১টা পর্যন্ত সারা দেশে ৪৪টি কেন্দ্রে এই সমন্বিত ভর্তি পরীক্ষা চলে। ৮২ হাজার ৯৬৪ জন পরীক্ষার্থীর মধ্যে রোববার উত্তীর্ণ ঘোষণা করা হয়েছে ৪৮ হাজার ৪৪৮ জনকে।

১০০ নম্বরের এই পরীক্ষায় উত্তীর্ণদের মধ্যে সর্বোচ্চ নম্বর উঠেছে ৯৪ দশমিক ৭৫।

দেশে সরকারি মেডিকেল কলেজ ৩০টি, ডেন্টাল কলেজের সংখ্যা নয়টি। এর বিপরীতে বেসরকারি মেডিকেল কলেজের সংখ্যা ৬৫টি ও ডেন্টাল কলেজের সংখ্যা ৩৩টি।

আর বেসরকারি মেডিকেল ও ডেন্টালে সাত হাজার ৩৫৫টি আসনের বিপরীতে সরকারি মেডিকেলের আসন সংখ্যা তিন হাজার ৬৯৪টি।

বর্তমান পদ্ধতি অনুযায়ী এসএসসি ও এইচএসসির ফল মিলিয়ে অন্তত ৮ জিপিএ থাকলে মেডিকেলে ভর্তির আবেদন করা যায়। এরপর পরীক্ষার মাধ্যমে নির্দিষ্ট সংখ্যক শিক্ষার্থীই ভর্তির সুযোগ পান।