শেখ শরিফুল ইসলামকে হত্যার হুমকি দিয়ে চিঠি


310 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
শেখ শরিফুল ইসলামকে হত্যার হুমকি দিয়ে চিঠি
মার্চ ১, ২০১৭ ফটো গ্যালারি সাতক্ষীরা সদর
Print Friendly, PDF & Email

স্টাফ রিপোর্টার :: সাতক্ষীরা থেকে প্রকাশিত দৈনিক আজকের সাতক্ষীরা পত্রিকার বিশেষ প্রতিনিধি শেখ শরিফুল ইসলামকে হত্যার হুমকি দিয়ে চিঠি প্রদান করেছে দূর্বৃত্তরা। বুধবার সকালে ডাকযোগে এ চিঠি প্রদান করা হয়।

এ ব্যাপারে তিনি সাতক্ষীরা সদর থানায় একটি সাধারন ডায়েরীও করেছেন। যার নং-১৮। তারিখ-০১.০৩.২০১৭।

তিনি তার সাধারন ডায়েরীতে উল্লেখ করেছেন, চলতি বছরের ১৯ জানুয়ারী দৈনিক আজকের সাতক্ষীরা পত্রিকায় “এন,সি,টি,বি এর অনুমোদনহীন বই বাজারজাত করতে মরিয়া শিক্ষক সমিতির নেতৃবৃন্দ” শিরোনামে একটি খবর প্রকাশিত হয়।

পরবর্তীতে সেই খবর আরো কিছু স্থানীয় ও আঞ্চলিক পত্রিকায় প্রকাশিত হয়। উল্লিখিত খবরের পরিপ্রেক্ষিতে গত ১৯ জানুয়ারী জেলা উন্নয়ন সমন্বয় কমিটির সভায় সাতক্ষীরার জেলা প্রশাসক অসাধু বই ব্যবসায়ীদের কার্যক্রম বন্ধ ও দায়ীদের বিরুদ্ধে

শাস্তিমূলক ব্যবস্থা গ্রহনের জন্য স্ব-স্ব উপজেলা নির্বাহী অফিসার, জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার ও মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসারকে নির্দেশ প্রদান করেন।

উক্ত নির্দেশ প্রকাশিত হওয়ার পর শহরের পপুলার লাইব্রেরীর স্বত্বাধিকারী ছফিউল্লাহ ভুইয়া, জনতা লাইব্রেরীরর স্বত্বাধিকারী মিলন আহমেদ, সাতক্ষীরা বুক হাউসের স্বত্বাধিকারী নাছির উদ্দীন ভুইয়া, বই সাগরের স্বত্বাধিকারী আব্দুর রশিদ আমার নামে পর পর দুটি চিঠি বেনামীতে প্রেরন করেছেন।

উক্ত চিঠিতে আমাকে হত্যা, গুমসহ নানাবিধ ভীতিকর হুমকি-ধামকি প্রদান করেন। শেখ শরিফুল ইসলাম তার সাধারন ডায়েরীতে আরো উল্লেখ করেছেন, এমতাবস্থায় আমি আশংকা করছি উল্লিখিত বই ব্যবসায়ীরা আমাকে যে কোন সময় যে কোন মুহুর্তে মারাতœক ক্ষতি সাধন করতে পারেন।

আর এই ক্ষতিসাধন থেকে নিজেকে রক্ষা পেতে তিনি সাতক্ষীরা সদর থানায় একটি সাধারন ডায়েরী করেছেন।

এ ব্যাপারে শেখ শরিফুল ইসলাম জানান, এন,সি,টি,বি এর অনুমোদনহীন বই নিয়ে এর আগেও খবর প্রকাশিত হলে পপুলার লাইব্রেরীর স্বত্বাধিকারী ছফিউল্লাহ ভুইয়া, জনতা লাইব্রেরীরর স্বত্বাধিকারী মিলন আহমেদ, সাতক্ষীরা বুক হাউসের স্বত্বাধিকারী নাছির উদ্দীন ভুইয়া, বই সাগরের স্বত্বাধিকারী আব্দুর রশিদ সিন্ডিকেটের গাত্রদাহ শুরু হয়।

তারা এনিয়ে আমাকে অনেকবার হুমকিও প্রদান করেছেন। তারা আমাকে বলেছেন, প্রশসনকে ম্যানেজ করেই আমরা এ গুলো করি। আমাদের বিরুদ্ধে লিখেও তুই কিছু করতে পারবিনা। ##