শ্যামনগরে জমি জবর দখলের অপচেষ্টার অভিযোগে সাবেক সেনা সদস্যের সংবাদ সম্মেলন


384 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
শ্যামনগরে জমি জবর দখলের অপচেষ্টার অভিযোগে সাবেক সেনা সদস্যের সংবাদ সম্মেলন
জুলাই ২৭, ২০১৬ ফটো গ্যালারি শ্যামনগর
Print Friendly, PDF & Email

স্টাফ রিপোর্টার  :
সাতক্ষীরার শ্যামনগর উপজেলার আটুলিয়া ইউনিয়নের মেম্বর শক্তি শেখরের উস্কানিতে কতিপয় ব্যক্তি এক সাবেক সেনা সদস্যের জমি দখলের পায়তারা চালাচ্ছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। বুধবার দুপুরে  সাতক্ষীরা প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলন করে আটুলিয়ার আয়নুদ্দীন গাজীর ছেলে সাবেক সেনা সদস্য সোহরাব হোসেন এই অভিযোগ করেন।
এ সময় লিখিত বক্তব্যে তিনি বলেন, তিনি ৫০ বছর যাবৎ আটুলিয়া মৌজার ৫৪৫, ১৮১ খতিয়ানের ২৮ বিঘা জমিতে পাকা ঘর-বাড়ি নির্মাণ করে বসবাস করছেন। সম্প্রতি দক্ষিণ-পশ্চিম আটুলিয়ার হারান মন্ডল, রাম প্রসাদ, হরিদাসসহ কয়েকজন স্থানীয় মেম্বর শক্তি শেখরের উস্কানিতে ওই জমি দখলের পায়তারা চালাচ্ছে। এরই প্রেক্ষিতে তারা কখনও জামায়াত-শিবির বলে ফাঁসানোর চেষ্টা করছে। কখনও বা বলছে জমির কাগজপত্র জাল। একই সাথে সাংবাদিকদের মিথ্যা তথ্য দিয়ে এ ঘটনায় জড়িত না হলেও যুবলীগ ও আওয়ামী লীগের কয়েকজন নেতার বিরুদ্ধে অপপ্রচার চালাচ্ছে।
সংবাদ সম্মেলনে বলা হয়, গত ১৮ জুলাই উল্লিখিতরা জমি দখলের মানসে দেশীয় অস্ত্রসস্ত্রে সজ্জিত হয়ে সোহরাব হোসেনের ভাই সবুরের বাড়িতে প্রবেশ করে এবং সবুরসহ তার মা ও স্ত্রী-কন্যার উপর হামলা চালানো হয়। ঘটনাস্থলে পুলিশ এলে সন্ত্রাসীরা পালিয়ে যায়। পরে মারাত্মক আহত সবুর, তার মা ও স্ত্রী-কন্যাকে সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।
সংবাদ সম্মেলনে আরও বলা হয়, ওইদিন তাদের বাড়ির সবকিছু লুট করে নিয়ে যায় সন্ত্রাসীরা। পুলিশের উপস্থিতিতে লুটকৃত মালামালের মধ্যে হারানের কাছ থেকে মোবাইল উদ্ধার হলেও অন্যান্য মালামাল এখনো উদ্ধার হয়নি। পরে শ্যামনগর থানার ওসি উভয়পক্ষকে শালিসে বসার নির্দেশ দেন। শালিসে হারানদের কাগজপত্র ভুয়া বলে প্রমাণিত হয়। কিন্তু তারপরও তারা জমি দখলের ষড়যন্ত্র চালিয়ে যাচ্ছে।
এবং সাংবাদিকদের মিথ্যা তথ্য সরবরাহ পত্রিকায় সংবাদ প্রকাশ পূর্বক হয়রানি করছে।
সংবাদ সম্মেলনে তিনি জমি জবরদখলের চেষ্টাকারীদের হাত থেকে রেহাই পেতে প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা করেন। ##